ভারতের শিশু হোম থেকে ২ বছর পর দেশে ফিরলো শিশু বাদশা

বাংলারজমিন

হিলি প্রতিনিধি | ২১ এপ্রিল ২০১৭, শুক্রবার
ভারতের শিশু হোমে ২ বছর আটক থাকার পর দিনাজপুরের হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে দেশে ফিরেছে বাদশা মিয়া নামে এক কিশোর। বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ ও  বিজিবির উপস্থিতিতে ভারতীয় অভিবাসন পুলিশ বাংলাদেশ ইমিগ্রেশন পুলিশের কাছে কিশোরকে হস্তান্তর করে। পরে হিলি ইমিগ্রেশন পুলিশ তাকে তার পরিবারের কাছে বুঝিয়ে দিয়েছে।
দেশে ফেরত আসা কিশোর বাদশা মিয়া জানায়, কাজের প্রলোভনে দালালের সহযোগিতায় সে ভারতের দিল্লিতে যায়, সেখানে কিছু দিন থাকার পর বাড়ি ফেরার উদ্দেশে দিল্লি থেকে ভারতের শিলিগুড়ি  হয়ে দক্ষিণ দিনাজপুরের বালুর ঘাট আসে, সেখান থেকে সে হিলি সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশের জন্য  সীমান্তের কাছাকাছি আসলে, সে দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ তাকে আটক করে জিজ্ঞাসা বাদ করে জানতে পারে তার বাড়ি বাংলাদেশে, পরে বিএসএফ আটক করে থানায় সোপর্দ করে। পুলিশ কিশোরটিকে আদালতে তুললে, সে দেশের আদালত বাদশা মিয়া শিশু-কিশোর হওয়াই তাকে ২ বছর দক্ষিণ দিনাজপুরের  শিশু শোধনাগারে আটক রাখার নির্দেশ দেয়। পরে দীর্ঘ আইনি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার পর বৃহস্পতিবার সে দেশে ফেরে।
হিলি ইমিগ্রেশন ওসি আফতাব হোসেন জানান, ভারতে ২ বছর আটক থাকার পর হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে দেশে ফিরেছে বাদশা মিয়া নামে এক কিশোর, তাকে তার পরিবারের হাতে তুলে দেয়া হয়েছে। দেশে ফেরত আসা কিশোরের বাড়ি ঠাকুরগাঁ জেলার লক্ষ্মী ডাঙ্গা গ্রামে।

 
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে ইসি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা

মধুপুরে রোহিঙ্গা সন্দেহে যুবক আটক

ম্যানচেস্টারে এবার মসজিদের বাইরে একজন ডাক্তারকে কুপিয়েছে দুর্বৃত্তরা

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে কলেরা সংক্রমণের আশঙ্কা বিশ্ব সাস্থ্য সংস্থার

স্বামীকে বেঁধে গৃহবধূকে ধর্ষণ, আটক ১

২৮ ‘হিন্দু’র খুনী কে!

ভেঙ্গে গেল স্পর্শিয়ার সংসার

নির্বাচিত মারকেল, ইসলামবিরোধী এএফডির উত্থান, কঠিন চ্যালেঞ্জ সামনে

মালিতে নিহত সার্জেন্ট আলতাফের বাড়িতে শোকের মাতম

বাংলাদেশী শান্তিরক্ষী নিহত হওয়ায় জাতিসংঘ মহাসচিবের শোক, নিন্দা

যুক্তরাষ্ট্রে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞায় আরও তিন দেশ

‘যেভাবে ভাবি সেভাবে এখনো ক্যামেরার সামনে অভিনয় করতে পারিনি’

​ জার্মানির নির্বাচনে শেষ হাসি মার্কেলেরই

রোহিঙ্গাদের জন্য বাংলাদেশের ব্যাপক আন্তর্জাতিক সহযোগিতা প্রয়োজন: ইউএনএইচআরসি

মার্কেল?

ফের সীমান্তে রোহিঙ্গা স্রোত