চট্টগ্রামে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে দুই বাড়িতে অভিযান

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম থেকে | ২০ মার্চ ২০১৭, সোমবার, ৬:৫০ | সর্বশেষ আপডেট: ৬:৫০
চট্টগ্রামের কর্নেল হাটের সিডিএল আবাসিক এলাকার এক নম্বর সড়কে একটি ও পাশের কাট্টলীর ইশান মহাজন সড়কের আরেকটিসহ মোট দুটি বাড়ি জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ। তবে সর্বশেষ সন্ধ্যা ৭টায় এই প্রতিবেদন তৈরি করার আগ পর্যন্ত বাড়ি দুটি থেকে কেউ গ্রেপ্তার হয়েছেন কিনা সেই ধরনের কোন তথ্য জানাতে পারেনি পুলিশ। দুটি বাড়িই নগরীর আকবর শাহ থানার অধীনে পড়েছে। খবর পাওয়ার পর সোমবার বিকেল ৪টা থেকে বাড়ি দুটির চারপাশে ২০০/৩০০ পুলিশ অবস্থান নেয়। পাশাপাশি সোয়াত, বোমা নিস্ক্রিয়করণ দলসহ পুলিশের প্রচুর সদস্য সাদা পোশাকে সেখানে অবস্থান করছেন।  
বাড়ি দুটির ভেতর ঠিক কতোজন জঙ্গি সদস্য রয়েছেন, আদৌ জঙ্গি আছে কি না কিংবা কিভাবে জঙ্গিরা সেখানে আশ্রয় নিয়েছেন সেই বিষয়ে তাৎক্ষনিক কিছুই বলতে রাজি হননি নগর পুলিশের সদস্যরা। তারা জানিয়েছেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়েই তারা অনেকটা নিশ্চিত হয়েছেন যে বাড়ি দুটির ভেতর জঙ্গি আস্তানা রয়েছে। এসব জঙ্গিদের সঙ্গে মীরসরাই কিংবা সীতাকুন্ড থেকে গ্রেপ্তার হওয়া সদস্যদের যোগাযোগ রয়েছে।

নগর পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার পশ্চিম জোনের নাজমুল হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, জঙ্গি আছে বলেই আমরা সেখানে অভিযান চালাচ্ছি। অভিযান শুরু হয়েছে। বাড়ি দুটির চারপাশ আমরা ঘিরে রেখেছি।

গত বুধবার দুপুরে সীতাকু- পৌরসভার লামারবাজার আমিরাবাদের সাধন কুটির থেকে এক নারীসহ দুই জঙ্গিকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে কলেজ রোডের চৌধুরীপাড়ার প্রেমতলা এলাকার ছায়ানীড় ভবনের জঙ্গি আস্তানায় অভিযান চালায় পুলিশ। বুধবার বিকেল তিনটা থেকে বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টা পর্যন্ত ছায়ানীড় ভবনে ‘অপারেশন অ্যাসল্ট-১৬’ চালায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। ২০ ঘণ্টার এ অভিযানে ২০ জন সাধারণ মানুষকে উদ্ধার করা হয়।  এছাড়া চার জঙ্গিসহ পাঁচজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

নবজাতকের মৃত্যু, উত্তেজনা

তিন দিন ধীরগতি থাকবে ইন্টারনেটে

সন্তানকে ফিরে পেতে বাবা-মায়ের আকুতি

‘সুষমা স্বরাজের ঢাকা সফরে রোহিঙ্গা, তিস্তা ইস্যু থাকবে’

কে এই কিংবদন্তী নর্তকি ও গুপ্তচর মাতা হারি?

আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে স্থায়ী ও কার্যকর ভূমিকা রাখার আহবান স্পিকারের

রোহিঙ্গাদের জন্য ৪৩ কোটি ৪০ লাখ ডলার সংগ্রহে ডোনার কনফারেন্স করবেন জাতিসংঘের কর্মকর্তারা

ইউপি চেয়ারম্যান ও আ’লীগের নেতার বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা

‘ব্যাক্তিগত জীবন নিয়ে সিদ্ধান্তের অধিকার সবারই আছে’

ঢাকায় আসছেন জাপানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী তারো কোনো

আবারো মিয়ানমারের বিরুদ্ধে অস্ত্র-ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার আহ্বান

কুয়েতে এসি বিস্ফোরণে মৌলভীবাজারের একই পরিবারের ৫ জনের মৃত্যু

৮০০ কোটি টাকার প্রকল্প নিয়ে নানা প্রশ্ন

যুদ্ধ নয় আলোচনায় সমাধান

সিইসি’র বক্তব্য কৌশল হতে পারে

আড়াই ঘণ্টা আলোচনার পর হঠাৎ সংলাপ বয়কট