লক্ষ্মীপুরে ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় ৫ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

অনলাইন

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি | ২০ মার্চ ২০১৭, সোমবার, ৪:২৭
লক্ষ্মীপুর সদরে ধর্ষণ ও রায়পুরে হত্যাসহ পৃথক দুইটি  মামলায় ৫ জনের যাবজ্জীবন কারাদ- দিয়েছেন আদালত। এছাড়া প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা ও অনাদায়ে আরো এক বছর করে কারাদ-ের আদেশ দিয়েছেন আদালত। আজ সোমবার দুপুর দুইটায় জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক ড. আবুল কাশেম চৌধুরী এ দুইটি রায় প্রদান করেন। সদর উপজেলার বাঙ্গাখা এলাকার কিশোরীকে ধর্ষণ ও রায়পুর উপজেলার শিবপুর গ্রামের রাব্বি হত্যার অভিযোগে এ দুই মামলা হয়। ধর্ষণ মামলায় যাবজ্জীবন কারাদ-প্রাপ্ত আসামি হচ্ছেন টুটুল চন্দ্র দাস, রাব্বি হত্যা মামলায় দ-প্রাপ্তরা হচ্ছেন স্ত্রী জোসনা আক্তার,জয়নাল আবেদিন, রেজিয়া বেগম ও মো. আলম।
২০১৩ সালের ১৪ এপ্রিল সদর উপজেলার বাঙ্গাখাঁ এলাকায় বাড়ির পুকুরের পাশে এক কিশোরীকে জোরপূর্বক ধর্ষন করে টুটুল চন্দ্র দাস। পরে ওই কিশোরীর বাবা শংকর চন্দ্র দাস একই দিন সদর থানায় নারী ও নির্যাতন আইনে একটি মামলা দায়ের করেন।
একই বছরের ১৬ জুন টুটুল চন্দ্র দাসকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জসীট দেয় পুলিশ। দীর্ঘ শুনানী ও স্বাক্ষীর স্বাক্ষ্য শেষে এ রায় দেন আদালত।
এছাড়া ২০১৫ সালের ৮ সেপ্টেম্বর রায়পুর উপজেলার শিবপুর এলাকায় বাড়ির ছাঁদে নিয়ে হত্যার পর লাশ সুপারী বাগানে ঝুলিয়ে রাখে। পরের দিন রায়পুর থানায় রাব্বীর বাবা নুরুল আমিন পাটওয়ারী বাদী হয়ে রাব্বীর স্ত্রী জোসনা বেগমসহ ৪জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন। ওই বছরের ২৫ নভেম্বর ওইজনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দেয় পুলিশ। দীর্ঘ শুনানী ও স্বাক্ষীদের স্বাক্ষ্য গ্রহন শেষে আদালত এ রায় প্রদান করেন।
জেলা আইনজীবি সমিতির সভাপতি ও জজকোর্টের পিপি এডভোকেট জসিম উদ্দিন এ দুইটি মামলা রায়ের বিষয় নিশ্চিত করেছেন। মামলা দুইটি রায়ে সন্তুষ্ট প্রকাশ করেছেন তিনি।


 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন