বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে ২৫ বছর আগেই মানুষ উন্নত জীবন পেত

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ১৮ মার্চ ২০১৭, শনিবার, ৫:৫০
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বেঁচে থাকলে আরও ২৫ বছর আগেই মানুষ উন্নত জীবন পেতো। এখন বঙ্গবন্ধুর দেখানো পথে বাংলাদেশ চলছে। দেশের উন্নয়নও হচ্ছে।
আজ শনিবার বিকালে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আওয়ামী লীগ আয়োজিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৭তম জন্মবার্ষিকীর আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, জিয়া, এরশাদ আর খালেদা জিয়া কোনদিন চান নাই এদেশের মানুষ বড়লোক হোক। তারা সব সময় চেয়েছে এদেশের মানুষ গরীব থাক। তিনি আরও বলেন, বিএনপি ক্ষমতায় থাকাকালীন বলেছিল- বাংলাদেশ খাদ্যে স্বয়ং সম্পূর্ণতা অর্জন করলে বিদেশীরা সাহায্য সহযোগিতা বন্ধ করে দিবে। তারা চাইতো দেশের মানুষ গরীব থাক যেন এই গরীব মানুষ দেখিয়ে বিদেশীদের থেকে ভিক্ষা চাইতে পারে। বিদেশীদের দেয়া ভিক্ষা থেকে নিজেরা চুরি করে খেতে পারে। আমরা তখন বলেছিলাম আপনারা ফকিরের সরদার হয়ে থাকতে চান থাকেন। আমরা চাই খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা। পরে ২০০৮ সালে আমরা ক্ষমতায় এসে অসহায় মানুষের বাড়ি তৈরী করে দিচ্ছি, স্বাক্ষরতার হার বাড়ছে। এছাড়া,  সবদিক দিয়ে যখন দেশ এগিয়ে যাচ্ছে তখন খালেদা জিয়ার গায়ে জ্বালা ধরে গেল। ২০১৩ সালে প্রতিশোধ নেয়া শুরু করলো। নির্বাচন চানচালের নামে তারা তান্ডব শুরু করলো।
আলোচনা সভায় দলের কেন্দ্রীয় নেতারা বক্তব্য রাখেন।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

৮৫ লাখ টাকা মূল্যের স্বর্ণসহ ভারতীয় নাগরিক আটক

যেকোনো মুহূর্তে যুদ্ধ!

নবজাতকের মৃত্যু, উত্তেজনা

মিয়ানমারের অনুরোধে খবর গোপন করেছিল জাতিসংঘ

তিন দিন ধীরগতি থাকবে ইন্টারনেটে

সন্তানকে ফিরে পেতে বাবা-মায়ের আকুতি

‘সুষমা স্বরাজের ঢাকা সফরে রোহিঙ্গা, তিস্তা ইস্যু থাকবে’

কে এই কিংবদন্তী নর্তকি ও গুপ্তচর মাতা হরি?

রোহিঙ্গাদের জন্য ৪৩ কোটি ৪০ লাখ ডলার সংগ্রহে ডোনার কনফারেন্স করবেন জাতিসংঘের কর্মকর্তারা

ইউপি চেয়ারম্যান ও আ’লীগের নেতার বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা

‘ব্যাক্তিগত জীবন নিয়ে সিদ্ধান্তের অধিকার সবারই আছে’

ঢাকায় আসছেন জাপানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী তারো কোনো

আবারো মিয়ানমারের বিরুদ্ধে অস্ত্র-ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার আহ্বান

কুয়েতে এসি বিস্ফোরণে মৌলভীবাজারের একই পরিবারের ৫ জনের মৃত্যু

৮০০ কোটি টাকার প্রকল্প নিয়ে নানা প্রশ্ন

যুদ্ধ নয় আলোচনায় সমাধান