কেমন আছেন বাবর

বিনোদন

স্টাফ রিপোর্টার | ৯ মার্চ ২০১৭, বৃহস্পতিবার
দেশীয় চলচ্চিত্রের একসময়ের জনপ্রিয় খল অভিনেতা বাবর দীর্ঘ এক যুগেরও বেশি সময় ধরে চলচ্চিত্রে অভিনয় করছেন না। অসুস্থ থাকার কারণে তার এই সরে থাকা। তবে সম্প্রতি মানবজমিনে ফোন করে নিজের ও চলচ্চিত্রের বর্তমান প্রেক্ষাপট নিয়ে কিছু কথা জানালেন তিনি। বাবর বলেন, আমি চলচ্চিত্রকে এখনো মনেপ্রাণে ভালোবাসি। তবে যারা বিদেশের ছবি বাংলাদেশে না চালানোর জন্য কাফন পরে মিছিলে অংশ নিলো তারা কিভাবে এখন বাইরে গিয়ে একের পর এক ছবিতে কাজ করছে। আমি মাঝে মাঝে চিন্তা করি যে, চলচ্চিত্রের প্রকৃত শিল্পী কয়জন আছে এখন।
তাদের দেশীয় ছবির প্রতি সমান মমত্ববোধ থাকা উচিত। কারো নাম উল্লেখ করতে চাই না। আমি চাই বাংলাদেশের ছবিতে সুদিন ফেরাতে হলে হালের জনপ্রিয় অভিনেতা-অভিনেত্রীদের বেশি দায়িত্ব নেয়া উচিত। তিনি আরও বলেন, সর্বশেষ একযুগেরও বেশি সময় আগে মনোয়োর হোসেন ডিপজল পরিচালিত ‘তের গুণ্ডা এক পাণ্ডা’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছি আমি। এখন অভিনয় না করলেও চলচ্চিত্রঙ্গনের সব খবর আমি রাখি। দর্শকের ভালবাসা নিয়ে আজও বেঁচে আছি। দেশীয় চলচ্চিত্রের সেই সুদিন এখনো ফিরিয়ে আনা সম্ভব। সেজন্য আমাদের শিল্পী-কলাকুশলীদের একসঙ্গে হয়ে কাজ করা উচিত। না হলে একদিন বিদেশি ছবির আগ্রাসনে দেশীয় চলচ্চিত্র বিলীন হয়ে যাবে। যা আমাদের কারো কাম্য না। বাংলাদেশের চলচ্চিত্রে একজন শক্তিশালী খল অভিনেতা হিসেবে কাজ করতে দেখা গেছে বাবরকে। আমজাদ হোসেনের নির্দেশনায় ‘বাংলার মুখ’ চলচ্চিত্রে নায়ক হিসেবে তার অভিষেক ঘটে। তবে খলনায়ক হিসেবে বাবরের যাত্রা শুরু হয় নায়করাজ রাজ্জাক প্রযোজিত ও জহিরুল হক পরিচালিত ‘রংবাজ’ চলচ্চিত্রে। এরপর দীলিপ বিশ্বাসের ‘আসামি’, শামসুদ্দিন টগরের ‘বাঞ্জারান’, দারাশিকোর ‘ডাকু দরবেশ’, ‘জিপসী সরদার’সহ তিন শতাধিক চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন তিনি। তার প্রযোজিত চলচ্চিত্র ‘দাগী’ (পরিচালক প্রয়াত নূর হোসেন বলাই) এবং একমাত্র পরিচালিত চলচ্চিত্র ছিল ‘দয়াবান’। অসংখ্য জনপ্রিয় এই অভিনেতা বাসায় অসুস্থ হয়ে একাকী সময় কাটান। সামনে শিল্পী সমিতির নির্বাচন। এ প্রসঙ্গে এই সমিতির প্রতিষ্ঠাকালীন সহকারী সাধারণ সম্পাদক বিশিষ্ট এই অভিনেতা শিল্পীদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেন, বরাবরই দেখেছি শিল্পী সমিতির নির্বাচনটি কেবল উৎসবমুখর হয়, কমিটিও নির্বাচিত হয়, তবে কাজ খুব একটা হয় না। কেবল পদাধিকারী হওয়ার জন্য নির্বাচন করা উচিত নয়। আমি নির্বাচিত হলাম, সমিতির সদস্যদের উন্নয়ন ও অধিকারে কোনো কাজ করলাম না- এমন মনোভাব নিয়ে যাতে প্রার্থীরা নির্বাচন না করেন। শিল্পীদের সত্যিকারের উন্নয়ন এবং তাদের পাশে থাকার মানসিকতা নিয়ে নির্বাচন করতে হবে।

 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

খেলার মাঠে দেয়াল ধসে দর্শক যুবকের মৃত্যু

‘বিচার বিভাগের স্বাধীনতার মৃত্যু ঘটেছে’

কুমারিত্বের দাম ৩ মিলিয়ন ডলার!

ছাত্রদল সাধারণ সম্পাদক আকরাম ৮ দিনের রিমান্ডে

১৫৪ টার্গেট গেইল-ম্যাককালামের

বাড়ি ফিরেছেন নিখোঁজ ব্যবসায়ী অনিরুদ্ধ রায়

শিক্ষার্থীদের মাথা ন্যাড়ার শর্তে এসএসসি’র ফরম পূরণ!

একটি অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন গুরুত্বপূর্ণ

রাবি অপহৃত ছাত্রী ঢাকায় উদ্ধার

‘সমাবেশে জোর করে লোক আনা হয়েছে’

সমাবেশ মঞ্চে শেখ হাসিনা

যুদ্ধাপরাধের ২৯তম রায়ের আপেক্ষা

সিরিয়া ইস্যুতে আবারো রাশিয়ার ভেটো

হারিরির সৌদি আরব ত্যাগ

ইরাক ও ইসরায়েল সুন্দরী একসঙ্গে সেলফি তুলে বিপাকে

‘বিএনপিকে দূরে রেখে নির্বাচনের ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে’