ভুলে ভরা পাঠ্যবই

শিক্ষামন্ত্রীর পদত্যাগসহ ৪ দফা দাবি ছাত্র ফেডারেশনের

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | ১২ জানুয়ারি ২০১৭, বৃহস্পতিবার
ভুলে ভরা পাঠ্যপুস্তক প্রণয়নের প্রতিবাদে মতিঝিলে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড (এনসিটিবি) সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট। গতকাল মতিঝিলে এনসিটিবির জাতীয় শিক্ষাক্রম ও  পাঠ্যপুস্তক বোর্ডের সামনে এ বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এর আগে সকাল সাড়ে ১১টার দিকে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে থেকে মিছিল নিয়ে মতিঝিলের উদ্দেশে রওনা দেয় ছাত্রফ্রন্টের নেতা-কর্মীরা। অন্যদিকে পাঠ্যপুস্তকে ভুলের ঘটনায় শিক্ষামন্ত্রীর পদত্যাগসহ চার দফা দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশন। আর দাবি না মানলে ১৬ই জানুয়ারি শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সামনে বিক্ষোভ করবে সংগঠনটি। গতকাল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে এক সংবাদ সম্মেলনে এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন সংগঠনটি।
ছাত্রফ্রন্টের সমাবেশে বক্তারা বলেন, বর্তমান পাঠ্যপুস্তক মুক্তিযুদ্ধের আকাঙ্ক্ষা বিপরীত। অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ গড়ার প্রধান মাধ্যম হলো শিক্ষা। অথচ সেই শিক্ষা ব্যবস্থায় সামপ্রদায়িক দৃষ্টিভঙ্গিতে প্রণীত, লৈঙ্গিক বৈষম্যমূলক, প্রগতিশীল-মুক্তমনা লেখকদের লেখা বাদ দিয়ে সামপ্রদায়িক বিষয় যুক্ত করে কোমলমতি শিশুদের সামপ্রদায়িক বৈষম্যমূলক মনন জগৎ তৈরি করতে চায় সরকার। যা আমাদের মহান মুক্তিযুুদ্ধের আকাঙ্ক্ষার বিপরীত। বক্তারা বলেন, সরকার একদিকে নিজেদের জঙ্গিবাদবিরোধী বলে প্রচার করছে, অপরদিকে জঙ্গি মনোভাব তৈরির সকল আয়োজন সম্পন্ন করছে। এই পদক্ষেপ রুখে না দাঁড়ালে এ দেশের সাংস্কৃতিক ঐক্য বিনষ্ট হবে। সংগঠনটির কেন্দ্রীয় সভাপতি ইমরান হাবিব রুমনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন প্রিন্সের সঞ্চালনায় বিক্ষোভ সমাবেশে কেন্দ্রীয় ও বিশ্ববিদ্যালয়ের নেতারা বক্তব্য রাখেন।  অন্যদিকে ছাত্রফেডারেশন ৪ দফা দাবি তুলে ধরেছে। সেগুলো হলো- শিক্ষামন্ত্রীর পদত্যাগ ও দায়ী কর্মকর্তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি, ভুলে ভরা পাঠ্যপুস্তক বাতিল করে দ্রুত সংশোধন, পাঠ্যপুস্তক প্রণয়নের পূর্বে অবশ্যই শিক্ষার সঙ্গে যুক্ত সর্বজনগ্রাহ্য ব্যক্তিবর্গের সমন্বয়ে গঠিত কমিটির মাধ্যমে পাঠ্যপুস্তক প্রণয়ন ও জনমত যাচাইয়ের জন্য তা উন্মুক্ত রাখা এবং বই দেশে ছাপাতে হবে। লিখিত বক্তব্যে ছাত্র ফেডারেশনের সভাপতি সৈকত মল্লিক বলেন, এই দেশের শিক্ষা ব্যবস্থাকে শিক্ষামন্ত্রী যেভাবে ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে নিয়ে গেছেন তা আর কোনোভাবেই আঠা দিয়ে লাগানো যাবে না। শিক্ষা ধ্বংসের এই তৎপরতা মুক্তিযুদ্ধে জনগণের আকাঙ্ক্ষাকে বিনষ্ট করে দেশে ফ্যাসিজম সৃষ্টির গভীর ষড়যন্ত্র। দাবির পক্ষে আজ বিকাল তিনটায় ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রের (টিএসসি) মুনির চৌধুরী সেমিনার কক্ষে মত বিনিময় সভা হবে। ১৫ তারিখের মধ্যে দাবি আদায় না হলে ১৬ই জানুয়ারি বেলা ১১টায় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সামনে তারা বিক্ষোভ করবে।

 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

কানাডার উন্নয়নমন্ত্রী আসছেন মঙ্গলবার

ব্যক্তির নামে সেনানিবাসের নামকরণ মঙ্গলজনক হবে না: মওদুদ

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে সহায়তার প্রস্তাব জাপানের

পানামা ও প্যারাডাইস পেপারসে নাম আসা ব্যক্তিদের তথ্য প্রকাশের দাবি সংসদে

সমাপনীতে অনুপস্থিত ১৪৫৩৮৩ শিক্ষার্থী

ঈদ-ই মিলাদুন্নবি ২ ডিসেম্বর

দেশের উন্নয়ন ও অগ্রগতির জন্য তারেক রহমানকে দরকার: এমাজউদ্দিন

দল থেকে বরখাস্ত মুগাবে

দেখা হলো, কথা হলো কাদের-ফখরুলের

আখতার হামিদ সিদ্দিকী আর নেই

ইইউ প্রতিনিধি ও তিন পররাষ্ট্রমন্ত্রীর রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন

‘এবার প্রশ্নপত্র ফাঁসের কোনো সুযোগ নেই’

নির্বাচনে হস্তক্ষেপ করবে না শেখ হাসিনার সরকার-নৌ মন্ত্রী

‘আমি ব্যবসায়িক প্রতিহিংসার শিকার’

সেনা মোতায়েন নিয়ে বৈঠকে কোনো আলোচনা হয়নি : সিইসি

২০১৮ সালে প্রবল ভুমিকম্পের আশঙ্কা!