রায়পুরে বই পায়নি ৬১,০০০ শিক্ষার্থী

বাংলারজমিন

রায়পুর (লক্ষ্মীপুর) প্রতিনিধি | ১১ জানুয়ারি ২০১৭, বুধবার
সারাদেশে গত ১লা জানুয়ারি ‘পাঠ্যপুস্তক উৎসব’ পালনের এক সপ্তাহের বেশি হলেও লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলার প্রাথমিক ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা এখনো সব বিষয়ের বই পায়নি। চাহিদার তুলনায় বই কম আসায় উপজেলার ২৫১টি বিদ্যালয়ের ৬১ হাজার ৮০০ শিক্ষার্থী এখনো দুই থেকে চার বিষয়ের বই হাতে পায়নি। বছরের শুরুতে সব বিষয়ের বই না পাওয়ায় হতাশ কোমলমতি শিক্ষার্থীরা। তবে কর্তৃপক্ষ বলছে, আগামী সপ্তাহের মধ্যেই শিক্ষার্থীদের হাতে সব বই পৌঁছে যাবে। গত মঙ্গলবার উপজেলা প্রাথমিক ও মাধ্যমিক অফিস সূত্রে জানা গেছে, উপজেলায় ২০০টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রায় ৪২ হাজার ৮শ’ শিক্ষার্থীর জন্য ২ লাখ ২ হাজার ৮শ’ বইয়ের চাহিদা রয়েছে। কিন্তু প্রাথমিকে মাত্র ৬৪ হাজার ৪শ’ বই পাওয়া গেছে। প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণিতে এক বিষয়ে ও তৃতীয়, চতুর্থ ও পঞ্চম শ্রেণির পর্যন্ত শুধু ২টি বিষয়ের বই শিক্ষার্থীদের দেয়া হয়েছে। বিজ্ঞান, বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় এবং ধর্মশিক্ষাসহ অনেক বই এখনো ছাত্রছাত্রীদের হাতে এখনও পৌঁছেনি। অপরদিকে ৫১টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রায় ২০ হাজার শিক্ষার্থীর জন্য ৩ লাখ ১ হাজার ২শ’ বইয়ের চাহিদা রয়েছে। কিন্তু মাধ্যমিক ২ লাখ ৭৪ হাজার ২৫০টি পাওয়া গেছে। এতে শিক্ষার্থীদের হাতে সব বিষয়ের বই তুলে  দেয়া যায়নি। সব মিলিয়ে চাহিদার তুলনায় মঙ্গলবার পর্যন্ত এখনো ১ লাখ ৬৫ হাজার ৬৫০টি বই পাওয়া যায়নি। এতে ৬১ হাজার ৮শ’ শিক্ষার্থী অধিকাংশ বিষয়ের নতুন বই পাওয়া থেকে এখনো বঞ্চিত। তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মোল্লারহাট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে এক শিক্ষক বলেন, বিদ্যালয় বই বিতরণের জন্য যাতায়াতসহ সরকার যে বরাদ্দ শিক্ষকদের দেয়া হয়, সেই টাকা তাদের না দিয়ে উল্টো শিক্ষকদের কাছ থেকে ১ থেকে ২ হাজার টাকা আদায় করেন মাধ্যমিক কর্মকর্তা। এ নিয়ে শিক্ষকদের মধ্যে চরম ক্ষোভ বিরাজ করছে।
উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা কামাল হোসেন ও প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ফাতেমা ফেদৌসী বলেন, আমরা বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের অবহিত করেছি। আশা করছি, আগামী সপ্তাহের মধ্যে চাহিদা অনুযায়ী বই পেলে বইগুলো ছাত্রছাত্রীরা দ্রুত পেয়ে যাবে। তবে মাধ্যমিক কর্তকর্তা সরকারি বরাদ্দ শিক্ষকদের না দেয়ার কথা স্বীকার করলেও উল্টো নেয়ার কথা অস্বীকার করেন।
এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন