সেনা কল্যাণ সংস্থার চার স্থাপনা উদ্বোধন

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোর্টার | ২০ নভেম্বর ২০১৯, বুধবার | সর্বশেষ আপডেট: ৫:৪২
বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত সদস্যদের প্রতিষ্ঠান সেনা কল্যাণ সংস্থার চারটি স্থাপনা উদ্বোধন করেছেন সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ। গতকাল সকালে রাজধানীর মহাখালী রেলক্রসিংয়ের পাশে এসকেএস টাওয়ারে অনুষ্ঠান  থেকে সুইচ চেপে তিনি স্থাপনাগুলো উদ্বোধন করেন। নতুন চালু হওয়া স্থাপনার মধ্যে রয়েছে ঢাকায় এসকেএস টাওয়ার ও এসকে বিজনেস মার্ট এবং চট্টগ্রামে সেনা কল্যাণ  ট্রেড সেন্টার ও সেনা কল্যাণ কনভেনশন সেন্টার। সুপার শপ, জুয়েলারি, ফ্যাশন পণ্য, রেস্টুরেন্ট, সিনেপ্লেক্সসহ বিভিন্ন বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান থাকছে এসকে বিজনেস মার্টে। অনুষ্ঠানে সেনাপ্রধান বলেন, সেনা কল্যাণ সংস্থা একটি ব্যবসামুখী সংস্থা। এই প্রতিষ্ঠান থেকে যা আয় হয় সেটা সেনাবাহিনীতে দেয়া হয় না। তিন বাহিনী থেকে অবসরপ্রাপ্তদের কল্যাণে ব্যয় করা হয়, যা ইনডিরেক্টলি তিন বাহিনীকে সহায়তাই করে। সেনা কল্যাণ সংস্থার লভ্যাংশ থেকে শিক্ষা, চিকিৎসা, বিধবা ও অসহায় মানুষের সহায়তা করা হয়।
অবসরে যাওয়া সামরিক ব্যক্তিবর্গের পাশাপাশি অসামরিক মানুষও সেই সহায়তা পেয়ে থাকেন। মহাখালিতে সেনা কল্যাণ সংস্থার এসকেএস টাওয়ার উদ্বোধনের পর তা ঘুরে দেখেন সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, বিমান বাহিনী ও নৌ বাহিনীর কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

‘উপরে আল্লাহ আর আপনারা ছাড়া আমাদের যাবার কোনো জায়গা নেই’

আসামে উত্তেজনা, কারফিউ, পরীক্ষা স্থগিত, বিমানের ফ্লাইট বাতিল

সংসদে পাস হলেও আইনের লড়াই এবার শুরু হবে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল নিয়ে

সুপ্রিম কোর্টে আইনজীবীদের বিক্ষোভ

খালেদা জিয়া রাজি না হওয়ায় উন্নত চিকিৎসা দেয়া যায়নি: মেডিকেল বোর্ড

নারীঘটিত মামলায় শীর্ষে বিজেপি জনপ্রতিনিধিরা

এক বছরের মধ্যে তৃতীয় জাতীয় নির্বাচন হবে ইসরাইলে

বিএসএমএমইউ-এর প্রতিবেদন ভুয়া : জয়নুল আবেদীন

জেনারেলদের দায় নিজের কাঁধে তুলে নিলেন সুচি

ফখরুলসহ ১৩৫ জনের বিরুদ্ধে মামলা

বিএনপি কার্যালয়ের সামনে কড়া পুলিশি পাহারা

১০০ বছরের মধ্যে প্রথম

ময়মনসিংহে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ১৩ মামলার আসামী নিহত

খালেদা জিয়ার জামিন শুনানি ঘিরে সারাদেশে কঠোর নিরাপত্তা

খালেদার জামিন শুনানিতে থাকবেন উভয়পক্ষের ৬০ আইনজীবী

অবশেষে পদত্যাগে বাধ্য হলেন মুসলিম অধ্যাপক