নুসরাত হত্যা

ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত ১২ আসামি কুমিল্লা কারাগারে

স্টাফ রিপোর্টার, কুমিল্লা থেকে

দেশ বিদেশ ১৩ নভেম্বর ২০১৯, বুধবার | সর্বশেষ আপডেট: ১:৪৯

ফেনীর সোনাগাজীর মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে পুড়িয়ে হত্যা মামলায় মৃত্যুদণ্ডাদেশপ্রাপ্ত ১৬ জনের মধ্যে ১২ জনকে ফেনী কারাগার থেকে মঙ্গলবার বেলা পৌনে ১২ টার দিকে কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে আনা হয়েছে। অপর ৪ জনের মধ্যে অন্য একটি মামলায় ২ জনকে বুধবার ফেনী আদালতের কার্যক্রম শেষে কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে এবং অপর ২ জনকে চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হবে। ফেনী জেলা কারাগারে ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিদের জন্য পৃথক কনডেম সেল ও ফাঁসির মঞ্চ না থাকায় তাদেরকে ফেনী কারাগার থেকে কুমিল্লা ও চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারে স্থানান্তরের জন্য কারা মহাপরিদর্শক (আইজি প্রিজন) অনুমতি দেন। কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগার সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগার সূত্র জানায়, সোনাগাজীর মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলায় মৃত্যুদণ্ডাদেশপ্রাপ্ত ১৬ জনের মধ্যে মঙ্গলবার ১২ জনকে ফেনী কারাগার থেকে কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে আনা হয়েছে।

তারা হচ্ছে- নূর উদ্দিন, কাউন্সিলর মাকসুদ আলম, শাহাদাত হোসেন, মোহাম্মদ শামীম, হাফেজ আবদুল কাদের, আবদুর রহিম শরীফ, আবছার উদ্দিন, সাইফুর রহমান মোহাম্মদ জোবায়ের, জাবেদ হোসেন ওরফে সাখাওয়াত হোসেন জাবেদ, ইমরান হোসেন ওরফে মামুন, মহিউদ্দিন শাকিল, ইফতেখার উদ্দিন রানা। ফেনী জেলা কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার মোহাম্মদ রফিকুল কাদের জানান, মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার মৃত্যুদণ্ডাদেশপ্রাপ্ত ১৬ জনের মধ্যে ১৪ জনকে কুমিল্লা ও দুই নারীকে চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারে স্থানান্তরের জন্য কারা মহাপরিদর্শক (আইজি প্রিজন) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল একেএম মোস্তফা কামাল পাশা নির্দেশ দিয়েছেন। এদের মধ্যে মঙ্গলবার ১২ জনকে কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে স্থানান্তর করা হয়েছে।
অপর ৪ জনের মধ্যে সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার সাবেক অধ্যক্ষ এসএম সিরাজ-উদ দৌলা ও রুহুল আমীন বুধবার (১৩ই নভেম্বর)  ফেনী আদালতে মামলার দিন ধার্য আছে। আদালতের কার্যক্রম শেষে তাদের ২ জনকে কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হবে। একই দিন (বুধবার) দণ্ডপ্রাপ্ত কামরুন নাহার মনি ও উম্মে সুলতানা ওরফে পপিকে চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হবে। তিনি আরও জানান, ফেনী জেলা কারাগারে ফাঁসির কোনো মঞ্চ নেই। কুমিল্লা ও চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারে জনবল ও কনডেম সেলের সংখ্যা বেশি। দণ্ডপ্রাপ্তদের জন্য প্রয়োজনীয় সবকিছুই সেখানে রয়েছে। যদি তাদের ফাঁসি কার্যকর হয় সেখানেই হবে। কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারের জেলার ফোরকান আহমেদ জানান, নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত ১২ জনকে ফেনী কারাগার থেকে এই কারাগারে স্থানান্তর করা হয়েছে। মঙ্গলবার বেলা পৌনে ১২টার দিকে তাদেরকে এই কারাগারে আনা হয়।    

প্রসঙ্গত গত ২৪শে অক্টোবর আলোচিত নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার ১৬ আসামির সবাইকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের নির্দেশ দেন ফেনীর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. মামুনুর রশিদ।

দেশ বিদেশ অন্যান্য খবর

বাজার সম্প্রসারণে জার্মান বিনিয়োগ পেলো ওয়ালটন

১৫ ডিসেম্বর ২০১৯

আন্তর্জাতিক বাজার সম্প্রসারণে বিশ্বের দ্রুত অগ্রসরমান ইলেকট্রনিক্স ব্র্যান্ড হিসেবে ওয়ালটনের পাশে দাঁড়াচ্ছে জার্মান বিনিয়োগ এবং ...

ট্রাম্পকে অভিশংসনের দুটি আর্টিকেল অনুমোদন কংগ্রেসে

১৫ ডিসেম্বর ২০১৯

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পকে অভিশংসন প্রক্রিয়ায় দুটি অভিযোগ বা আর্টিকেল অনুমোদন করেছে কংগ্রেসের প্রতিনিধি পরিষদের ...

ক্ষমতা না-ও ছাড়তে পারেন মাহাথির মোহাম্মদ

১৫ ডিসেম্বর ২০১৯

 ২০২০ সালের পরেও ক্ষমতায় থেকে যেতে পারেন মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী ড. মাহাথির মোহাম্মদ। কাতারের রাজধানী দোহা’য় ...

সুদানের ক্ষমতাচ্যুত বশিরের রায় ঘোষণা

১৫ ডিসেম্বর ২০১৯

প্রায় ত্রিশ বছর পর ক্ষমতাচ্যুত সুদানের শাসক ওমর আল বশিরের বিরুদ্ধে দুর্নীতি মামলার রায় ঘোষণা ...

ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চল সফরে যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্যের সতর্কতা

১৫ ডিসেম্বর ২০১৯

 নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনকে কেন্দ্র করে ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে চলমান সহিংস বিক্ষোভের প্রেক্ষিতে ভ্রমণ সতর্কতা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র ...

বিতর্কিত নাগরিকত্ব আইনে ঢাকা-দিল্লির ‘স্বর্ণালী’ সম্পর্ক কেঁপে উঠেছে

১৫ ডিসেম্বর ২০১৯

বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ককে ‘ট্রাবল-ফ্রি’ বা ঝামেলামুক্ত হিসেবে দেখে ভারত, যেখানে বহুবিধ সমস্যা রয়েছে। এমনকি বলা ...

শহীদ বুদ্ধিজীবীদের জীবনাদর্শ অনুসরণ করতে হবে: ঢাবি ভিসি

১৫ ডিসেম্বর ২০১৯

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেছেন,শহীদ বুদ্ধিজীবীদের জীবনাদর্শ অনুসরণ করে উদার, অসাম্প্রদায়িক ও ...





আপনার মতামত দিন

দেশ বিদেশ সর্বাধিক পঠিত