সড়ক দুর্ঘটনায় ঝরলো ৮ প্রাণ

বাংলারজমিন ডেস্ক

শেষের পাতা ২০ অক্টোবর ২০১৯, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ১:১৩

দেশের বিভিন্ন জেলায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছেন ৮ জন। এর মধ্যে- ঝিনাইদহে ৩, বিয়ানীবাজারে ২, বহুবলে ২ ও মেলান্দহে ১ জন রয়েছে। এসব দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন আর অর্ধশতাধিক লোক। বিস্তারিত আমাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো রিপোর্টে-
বিয়ানীবাজার (সিলেট) প্রতিনিধি জানান, বিয়ানীবাজারে দু’টি যাত্রীবাহী সিএনজি অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলে তাহমিনা আক্তার (১৮) ও তিন্নি বেগম (৮) নামের দুইজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় নারীসহ আরো ৩ যাত্রী গুরুতর আহত হন। আহতদের আশঙ্কাজনক অবস্থায় সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। শনিবার দুপুর ১২টার দিকে বিয়ানীবাজার-সিলেট আঞ্চলিক মহাসড়কের চারখাই ইউনিয়নের কামারগ্রাম এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত তাহমিনা ও তিন্নির বাড়ি উপজেলার শেওলা ইউনিয়নের চারাবই গ্রামের মাইজপাড়া এলাকায়।
সম্পর্কে তারা দু’জন খালাতো বোন। চারখাইয়ে এক আত্মীয়ের বিয়েতে যাওয়ার পথে এ দুর্ঘটনা ঘটে। স্থানীয় এলাকাবাসী ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, বিয়ানীবাজার থেকে ছেড়ে আসা একটি যাত্রীবাহী সিএনজি অটোরিকশা চারখাই ইউনিয়নের কামারগ্রামে আসার পর বিপরীত দিক থেকে আসা আরেকটি সিএনজি অটোরিকশার সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।
বাহুবল (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি জানান, বাহুবলে দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে ট্রাক চালক ও হেলপার নিহত হয়েছেন। গুরুতর আহত হয়েছেন অন্য ট্রাক চালক। অন্য ট্রাক চালককে গুরুতর আহত অবস্থায় প্রথমে বাহুবল ও পরে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার দিবাগত রাত তিনটার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের মৌচাক নামক স্থানে। নিহত ট্রাকচালক চাঁপাই নবাগঞ্জ জেলার সদর উপজেলার নাকরাজপুর গ্রামের রহমত আলীর ছেলে বাবু মিয়া (৩২) ও একই গ্রামের হেলপার মোস্তফা আলীর ছেলে রহমত আলী (২৫)। দুর্ঘটনার ফলে মহাসড়কে প্রায় দুই ঘণ্টা যান চলাচল বন্ধ ছিল। খবর পেয়ে শায়েস্তাগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের একটি দল ঘটনাস্থলে পৌঁছে দুর্ঘটনা কবলিত ট্রাকের বডি কেটে নিহতদের উদ্ধার করে ট্রাকগুলো রাস্তা থেকে সরালে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।
ঝিনাইদহ প্রতিনিধি জানান, ঝিনাইদহ সদর উপজেলার লাউদিয়া নামক স্থানে শনিবার দুপুরে মর্মান্তিক এক সড়ক দুর্ঘটনায় ৩ নারী নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হন আরো ৭ যাত্রী। আহতরা হলেন, ঝিনাইদহ শহরের ব্যাপারী পাড়ার রাজু আহম্মেদ, রিহান উদ্দিন, সাব্বির হোসেন, লাউদিয়া এলাকার রাজা মন্ডল, গড়িয়ালা গ্রামের আবদুুর রহিম, মনছুর আলী কাঞ্চননগর এলাকার আবির হোসেন। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, কালীগঞ্জগামী যাত্রীবাহী একটি মাহেন্দ্রকে পেছন দিক থেকে বালি বোঝাই ট্রাক ধাক্কা দিলে এই দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনার সময় ট্রাকটি হেলপার সাগর হোসেন চালাচ্ছিলেন। নিহত একজনের পরিচয় মিলেছে। তিনি ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বিষয়খালী গ্রামের আলাউদ্দীনের স্ত্রী পলি খাতুন (৫০)। অন্য দুই মহিলার পরিচয় মেলেনি। ঝিনাইদহ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার দিলীপ কুমার সরকার জানান, ঝিনাইদহ থেকে যাত্রীবাহী মাহিন্দ্র কালীগঞ্জের দিকে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে মাহিন্দ্রটি লাউদিয়া নমক স্থানে পৌঁছালে পিছন দিক থেকে আসা বালি বোঝাই একটি ট্রাক তাকে ধাক্কা দিয়ে পাশের একটি দোকানে ঢুকে পড়ে। এতে ঘটনাস্থলে মহেন্দ্র্র যাত্রী পলি খাতুন নিহত হন। এরপর হাসপাতালে নিয়ে আসার পর আরো অজ্ঞাত দুই নারীর মৃত্যু ঘটে। দুর্ঘটনায় মাহেন্দ্রটি দুমড়ে-মুচড়ে একটি গাছের সঙ্গে ধাক্কা খায়।
ইসলামপুর (জামালপুর) প্রতিনিধি জানান, জামালপুরের মেলান্দহে টাক্ট্রর চাপায় একজনের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল দুপুরে মেলান্দহ মাহমুদপুরের ইমামপুর এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত মাহিন্দ্র টাক্ট্রর চালক মো. শাহীন (৩৫) ইসলামপুরের সাপধরী ইউনিয়নের ফকিরপাড়া গ্রামের হবিবর রহমান হবুর ছেলে।



আপনার মতামত দিন

শেষের পাতা -এর সর্বাধিক পঠিত



কড়া নিরাপত্তা, এজলাসে সিসি ক্যামেরা

খালেদা জিয়ার জামিন শুনানি কাল