একাদশে ভর্তির অপেক্ষমাণ তালিকা ২৪শে জুন

শিক্ষাঙ্গন

| ২১ জুন ২০১৬, মঙ্গলবার
একাদশ শ্রেণিতে ভর্তিতে অপেক্ষমাণ তালিকার আবেদনকারীদের জন্য পরবর্তী মেধাতালিকা আগামী ২৪শে জুন প্রকাশ করা হবে বলে জানিয়েছে আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় সাব-কমিটি। গতকাল ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের কলেজ পরিদর্শক ড. আশফাকুস সালেহীন জানান, প্রথম মেধা তালিকা থেকে ভর্তির পর শূন্য আসনের বিপরীতে ভর্তির জন্য অপেক্ষমাণদের তালিকা প্রকাশ করা হবে। সরকারি-বেসরকারি কলেজে ভর্তির জন্য মনোনীতদের মেধা তালিকা প্রকাশ করা হয় গত ১৬ই জুন। তালিকা প্রকাশের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা জানতে পারেন তিনি কোন কলেজে ভর্তি হতে পারবেন। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোও জানতে পারছে আসনের বিপরীতে কোন শিক্ষার্থীরা ভর্তির জন্য মনোনীত হয়েছেন। আসনের বিপরীতে মনোনীত শিক্ষার্থীদের ১৮-২২শে জুনের মধ্যে ভর্তি হতে হবে।
মেধাতালিকা প্রকাশের সময় শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ জানিয়েছিলেন, আসন শূন্য থাকা সাপেক্ষে অপেক্ষমাণ তালিকা থেকে ২৫-২৭শে জুনের মধ্যে ভর্তি করা হবে। অবশিষ্ট আসনে অপেক্ষমাণ তালিকা থেকে ভর্তির সময় ২৮-৩০শে জুন। ক্লাস শুরু হবে ১০ই জুন। বিলম্ব ফি দিয়ে ১০ থেকে ২০শে জুনের মধ্যে ভর্তি হওয়া যাবে। মেধা তালিকায় শূন্য আসনের বিপরীতে ৯ লাখ ৬০ হাজারের মতো শিক্ষার্থীকে ভর্তির জন্য মনোনয়ন দেয়া হয়। আর তিন লাখ ২০ হাজারের মতো শিক্ষার্থীকে অপেক্ষমাণ তালিকায় রাখা হয়। এবার এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ ১৪ লাখ ৫৫ হাজার ৩৬৫ জন শিক্ষার্থীর মধ্যে ভর্তির জন্য আবেদন করে ১৩ লাখ এক হাজার ৯৯ জন। আর এক লাখ ৫৪ হাজার ৩৬৬ জন শিক্ষার্থী আবেদন করেননি। কলেজগুলোতে ২১ লাখ ১৪ হাজার ২৫৬টি আসন আছে জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেছিলেন, ৮ লাখের বেশি আসন ফাঁকা থাকবে। অনলাইনের মাধ্যমে সর্বোচ্চ ১০টি এবং এসএমএসের মাধ্যমে আরো ১০টিসহ মোট ২০টি কলেজে আবেদনের সুযোগ পায় শিক্ষার্থীরা। তবে ৪৮ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভর্তিতে কেউ আবেদন করেননি। সাধারণ শিক্ষা বোর্ড, মাদরাসা ও কারিগরি বোর্ডের অধীনে ৯ হাজার ৮৫ প্রতিষ্ঠানে ভর্তির জন্য শিক্ষার্থীরা আবেদন করেন। তবে ৪৮টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভর্তির জন্য কেউ আবেদন করেনি। কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে ৩৬টি, মাদরাসা বোর্ডে ১০টি, ঢাকা ও রাজশাহী বোর্ডে একটি করে প্রতিষ্ঠানে ভর্তিতে কোন আবেদন পড়েনি। বোর্ড কর্মকর্তারা জানান, ভর্তি প্রক্রিয়ায় প্রথম প্রতিষ্ঠানে ভর্তি বাতিল না করে দ্বিতীয়টিতে ভর্তি হওয়া যাবে না। শিক্ষার্থীকে ভর্তি বাতিল করতে চাইলে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আবেদন করতে হবে। একবার ভর্তি বাতিল করলে আর ওই প্রতিষ্ঠানে ভর্তির সুযোগ থাকবে না। ভর্তি বাতিল করতে হবে ১৮-৩০শে জুনের মধ্যে।

 

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন