আনু মোহাম্মদের প্রশ্ন

সেই বিবৃতির পর কীভাবে তাদের কাছ থেকে শিক্ষকের ভূমিকা আশা করতে পারি

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | ১০ অক্টোবর ২০১৯, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:২৮
একাদশ নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে দাবি করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা যে বিবৃতি দিয়েছিলেন তার সমালোচনা করে তেল, গ্যাস, খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ বলেছেন, এমন বিবৃতি দেয়ার পর তাদের কাছ থেকে কীভাবে শিক্ষকের ভূমিকা আশা করা যায়। বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যার ঘটনায় গতকাল বুধবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে নিপীড়নবিরোধী অভিভাবক, শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের কিংবা সাধারণভাবে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের ভূমিকা নিয়ে অনেকেই ক্ষোভ প্রকাশ করছেন। চিন্তা করেন ২৯শে ডিসেম্বরের রাতে যে নির্বাচন হয়েছে, যে নির্বাচনে কোনো ভোট ছিল না। যে নির্বাচন রাতে হয়েছে। সেই নির্বাচনের পরে কোনো আত্মসম্মানবোধসম্পন্ন লোক কি বলতে পারে-এই নির্বাচন সুষ্ঠু হতে পারে? সেই নির্বাচন নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহস্রাধিক শিক্ষক বিবৃতি দিয়ে বলেছেন, নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে। তারপর আমরা কী করে একজন শিক্ষকের ভূমিকা তাদের কাছ থেকে আশা করতে পারি। তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে যখন আবরার নিহত হয়েছে, তার আগে আবরারের মতো অসংখ্য ঘটনা আছে।
এবং সেই অসংখ্য ঘটনা ঘটেছে হলের প্রভোস্ট, হলের হাউস টিউটর এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসির কারণে। আনু মুহাম্মদ বলেন, আজ যদি আইন আদালত ঠিক থাকতো, কাজ করতো তাহলে আবরার হত্যাকাণ্ডের তালিকায় ওই প্রভোস্ট, ভিসির নামও থাকতো। কারণ, তারা দায়িত্বে অবহেলা করেছেন। সমাবেশে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা অংশ নেন।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

ahammad

২০১৯-১০-০৯ ১২:৫৪:২৭

স্যার আপনার সাথে ১০০% সহমত পোষণ করলাম ।

আপনার মতামত দিন

বরগুনার ঘটনায় বুধবার সারাদেশে বিএনপির বিক্ষোভ

বায়ু দূষণে বাড়ে হার্ট অ্যাটাক, অ্যাজমা

ভারত-পাকস্তান দ্বন্দ্ব তীব্র হয়েছে

ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে ‘ইংলিশ ক্ল্যাসিক’ ১-১ গোলে ড্র

শপথ নিলেন হাইকোর্টের ৯ বিচারপতি

বলুন তো এটা কিসের ছবি!

জেল হতে পারে পর্নো তারকা ব্রিজেতের

সৌদিতে ধরপাকড়: আজ ফিরেছেন ৭০ বাংলাদেশী

বোমা সন্দেহে রহস্যজনক লাগেজে মিললো লাশ

অস্ট্রেলিয়ার সংবাদপত্রগুলোর প্রথম পৃষ্ঠা ফাঁকা

কাউন্সিলর রাজীবের ১৪ দিনের রিমান্ড

বিশ্লেষক হিসেবে প্রতিবন্ধী শিশুদের খুঁজছে বৃটিশ গুপ্তচর সংস্থা

পর্নো ব্যবসা এত বিপুল হয়ে উঠলো কীভাবে : পর্ব ১

‘সেগুলোতে কাজ করার আগ্রহ পাই না’

পদ হারালেন ওমর ফারুক

১০ বছর আমার চেহারা ভালো ছিলো এখন খারাপ হয়েছে: ওমর ফারুক চৌধুরী