আনু মোহাম্মদের প্রশ্ন

সেই বিবৃতির পর কীভাবে তাদের কাছ থেকে শিক্ষকের ভূমিকা আশা করতে পারি

স্টাফ রিপোর্টার

দেশ বিদেশ ১০ অক্টোবর ২০১৯, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:২৮

একাদশ নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে দাবি করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা যে বিবৃতি দিয়েছিলেন তার সমালোচনা করে তেল, গ্যাস, খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ বলেছেন, এমন বিবৃতি দেয়ার পর তাদের কাছ থেকে কীভাবে শিক্ষকের ভূমিকা আশা করা যায়। বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যার ঘটনায় গতকাল বুধবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে নিপীড়নবিরোধী অভিভাবক, শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের কিংবা সাধারণভাবে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের ভূমিকা নিয়ে অনেকেই ক্ষোভ প্রকাশ করছেন। চিন্তা করেন ২৯শে ডিসেম্বরের রাতে যে নির্বাচন হয়েছে, যে নির্বাচনে কোনো ভোট ছিল না। যে নির্বাচন রাতে হয়েছে। সেই নির্বাচনের পরে কোনো আত্মসম্মানবোধসম্পন্ন লোক কি বলতে পারে-এই নির্বাচন সুষ্ঠু হতে পারে? সেই নির্বাচন নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহস্রাধিক শিক্ষক বিবৃতি দিয়ে বলেছেন, নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে। তারপর আমরা কী করে একজন শিক্ষকের ভূমিকা তাদের কাছ থেকে আশা করতে পারি। তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে যখন আবরার নিহত হয়েছে, তার আগে আবরারের মতো অসংখ্য ঘটনা আছে।
এবং সেই অসংখ্য ঘটনা ঘটেছে হলের প্রভোস্ট, হলের হাউস টিউটর এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসির কারণে। আনু মুহাম্মদ বলেন, আজ যদি আইন আদালত ঠিক থাকতো, কাজ করতো তাহলে আবরার হত্যাকাণ্ডের তালিকায় ওই প্রভোস্ট, ভিসির নামও থাকতো। কারণ, তারা দায়িত্বে অবহেলা করেছেন। সমাবেশে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা অংশ নেন।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

ahammad

২০১৯-১০-০৯ ১২:৫৪:২৭

স্যার আপনার সাথে ১০০% সহমত পোষণ করলাম ।

আপনার মতামত দিন

দেশ বিদেশ অন্যান্য খবর

ঈদুল আজহায় জনপ্রিয় সব ব্র্যান্ডের অংশগ্রহণে এফইএবি দেশীয় পোশাক মেলা

১৫ জুলাই ২০২০

ভার্চুয়াল এফইএবি দেশীয় পোশাক মেলা শুরু হয়েছে। ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে এই মেলা ১৫ থেকে ...

বিরোধে জিততে অশীতিপর আনোয়ারাকে নিয়ে টানাহেঁচড়া

১৫ জুলাই ২০২০

বয়সের ভারে কাহিল আনোয়ারা বেগমের (৮০) শরীর। বিভিন্ন সময় তার মৃত্যুর খবরও ছড়িয়েছে। জীবন সাঙ্গ ...

লামার সেই ইউএনওকে রংপুরে বদলি

১৫ জুলাই ২০২০

স্বামীকে তালাক দিয়ে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে থানায় জিডি করা বান্দরবানের লামার আলোচিত সেই ইউএনও নুর ...

এরশাদের মৃত্যুবার্ষিকী পালিত

রাজনীতিতে শক্ত অবস্থান তৈরি করে ক্ষমতায় যাওয়ার অঙ্গীকার জাপার

১৫ জুলাই ২০২০

জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান প্রয়াত হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের আদর্শ, চেতনাকে বুকে ধারণ করে দেশের রাজনীতিতে ...

পশ্চিম তীরে কারফিউ দিয়েছে ফিলিস্তিন

১৪ জুলাই ২০২০

করোনাভাইরাস সংক্রমণের সংখ্যা কমিয়ে আনতে পশ্চিম তীরে রাতের বেলা এবং সাপ্তাহিক ছুটির দিনে কারফিউ দিয়েছে ...

ট্রাম্প টাওয়ারের সামনে উত্তেজনা

১৩ জুলাই ২০২০

নিউ ইয়র্কে ট্রাম্প টাওয়ারের সামনে শোডাউন করেছেন তার সমর্থক ও বিরোধীরা। শনিবার নিউ ইয়র্ক সিটির ...

আসাদের সঙ্গে ইরানি সেনাপ্রধানের বৈঠক

১৩ জুলাই ২০২০

সিরিয়া সফরে গেছেন ইরানের সামরিক বাহিনীর প্রধান মেজর জেনারেল মোহাম্মদ বাকেরি। সেখানে দেশটির রাজধানী দামেস্কে ...

সিলেটে করোনায় মৃত্যুর ‘সেঞ্চুরি’

১৩ জুলাই ২০২০

মহামারি করোনা। সিলেটে কেড়ে নিয়েছে অনেককেই। পরিচিত জনেরা হারিয়ে যাচ্ছেন চিরতরে। আবার অনেকেই মৃত্যুর সঙ্গে ...

আশুগঞ্জ ওসি’র বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগ নেতাদের অভিযোগ

১৩ জুলাই ২০২০

আশুগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাবেদ মাহমুদের বিরুদ্ধে এবার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  ও পুলিশ মহাপরিদর্শকের কাছে অভিযোগ ...

তুরস্কে ওয়ালটন কম্প্রেসর রপ্তানি শুরু

১১ জুলাই ২০২০

এবার দেশে তৈরি উন্নতমানের কম্প্রেসর রপ্তানির মাধ্যমে তুরস্কে ব্যবসায়িক কার্যক্রমের সূচনা করলো ওয়ালটন। নিজস্ব ব্র্যান্ড ...



দেশ বিদেশ সর্বাধিক পঠিত