দেশে ফিরতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার বাংলাদেশী তরুণী

ভারত

কলকাতা প্রতিনিধি | ২ অক্টোবর ২০১৯, বুধবার | সর্বশেষ আপডেট: ১:৩৮
অবৈধভাবে দেশে ফিরতে গিয়ে সীমান্ত এলাকায় দালালদের ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক বাংলাদেশি তরুণী। স্থানীয় সূত্রে খবর পেয়ে পুলিশ মঙ্গলবার তাকে উদ্ধার করেছে। বনগাঁ সীমান্তের পেট্রাপোল থানার পুলিশ তঁকে আটক করে তদন্তও শুরু করেছে। তবে বুধবার সকাল পর্যন্ত ওই দুই দালালকে পুলিশ গ্রেপ্তার করতে পারেনি। মাসখানেক আগে বাংলাদেশ থেকে কাজের খোঁজে অবৈধভাবে বনগাঁয় এসেছিলেন ওই তরুণী। সেখান থেকে তিনি ভালো কাজের প্রতিশ্রুতি পেয়ে চলে গিয়েছিলেন গুজরাটের সুরাটে। তবে সেখানে তাকে দেহব্যবসার কাজে লাগানোর আঁচ পেয়ে দেশে ফিরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন।  কোনও বৈধ কাগজপত্র না থাকায় দেশে ফিরে যাবার উদ্দেশে ফের বনগাঁয় এসে সীমান্ত পারাপারের দালালদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছিলেন তিনি।  বনগাঁর নরহরিপুরের ২ দালাল তাকে সীমান্ত পার করে দেবে বলে প্রতিশ্রুতি দিয়ে তাদের ডেরায় নিয়ে উঠেছিল। সেখানেই তরুণীটিকে ওই দুই দালাল ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ।
স্থানীয় এক পঞ্চায়েত সদস্য ঘটনাটি পুলিশকে জানালে পুলিশ গিয়ে তাকে উদ্ধার করে। ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। অভিযুক্ত দুই দালালের খোঁজে তল্লাশিও চলছে। তবে  অবৈধভাবে ভারতে আসার জন্য পুলিশ তরুণীটিকে আটক করেছে।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

বরগুনার ঘটনায় বুধবার সারাদেশে বিএনপির বিক্ষোভ

বায়ু দূষণে বাড়ে হার্ট অ্যাটাক, অ্যাজমা

ভারত-পাকস্তান দ্বন্দ্ব তীব্র হয়েছে

ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে ‘ইংলিশ ক্ল্যাসিক’ ১-১ গোলে ড্র

শপথ নিলেন হাইকোর্টের ৯ বিচারপতি

বলুন তো এটা কিসের ছবি!

জেল হতে পারে পর্নো তারকা ব্রিজেতের

সৌদিতে ধরপাকড়: আজ ফিরেছেন ৭০ বাংলাদেশী

বোমা সন্দেহে রহস্যজনক লাগেজে মিললো লাশ

অস্ট্রেলিয়ার সংবাদপত্রগুলোর প্রথম পৃষ্ঠা ফাঁকা

কাউন্সিলর রাজীবের ১৪ দিনের রিমান্ড

বিশ্লেষক হিসেবে প্রতিবন্ধী শিশুদের খুঁজছে বৃটিশ গুপ্তচর সংস্থা

পর্নো ব্যবসা এত বিপুল হয়ে উঠলো কীভাবে : পর্ব ১

‘সেগুলোতে কাজ করার আগ্রহ পাই না’

পদ হারালেন ওমর ফারুক

১০ বছর আমার চেহারা ভালো ছিলো এখন খারাপ হয়েছে: ওমর ফারুক চৌধুরী