নগ্ন স্তনের কারণে মালয়েশিয়ায় নিষিদ্ধ হলো জেনিফার লোপেজের ছবি

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, শনিবার
মার্কিন অভিনেত্রী জেনিফার লোপেজের নগ্নতা বিষয়ক ছবি ‘হাস্টলারস’ নিষিদ্ধ করেছে মালয়েশিয়া। এই ছবিতে অশালীন অনেক দৃশ্য থাকার কারণে এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। দেশটির চলচ্চিত্র সেন্সরশিপ বোর্ড বলেছে, ওই ছবিতে নগ্ন অবস্থায় নারীদের স্তন দেখানো হয়। আছে রগরগে নাচ। এ ছাড়া মাদকের ব্যবহার সংক্রান্ত দৃশ্য আছে এতে। ফলে এই ছবিটি প্রকাশ্যে মালয়েশিয়ায় প্রদর্শন উপযোগী নয়। মালয়েশিয়ায় এ ছবিটির পরিবেশক কোম্পানি স্কয়ার বক্স পিকচার। তারা সামাজিক মিডিয়ায় ছবিটি নিষিদ্ধ হওয়া কথা নিশ্চিত করেছে।
তবে যুক্তরাষ্ট্র ও বৃটেনে ছবিটি বর্তমানে বক্স অফিস হিট করেছে। ধুমছে চলছে হলে হলে। এ খবর দিয়েছে অনলাইন বিবিসি।
 
এই ছবিতে নগ্ন নতর্কীদেরকে দেখা যায় তাদের সম্পদশালী ক্লায়েন্টদের সঙ্গে। একটি সত্য ঘটনা অবলম্বনে ছবিটি নির্মিত। ওই কাহিনী নিয়ে নিউ ইয়র্ক ম্যাগাজিন একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছিল, যা ২০১৫ সালে ভাইরাল হয়। এরই উপর ভিত্তি করে এই ছবি। এতে আরো অভিনয় করেছেন কন্সট্যান্স উউ, জুলিয়া স্টিলেস, লিজ্জো, কার্ডি বি প্রমুখ। এতে যৌনতা বিষয়ক নগ্নতা, শক্তিশালী যৌনতা বিষয়ক রেফারেন্স থাকায় এ ছবিটিকে ‘১৫ সার্টিফিকেট’ দিয়েছে বৃটিশ বোর্ড অব ফিল্ম ক্লাসিফিকেশন। এ বছরের শুরুর দিকে মালয়েশিয়ায় ‘রকেটম্যান’ ছবির সমকামী যৌনতা বিষয়ক দৃশ্য সেন্সর করা হয়। রাশিয়ায়ও এমন দৃশ্য সেন্সর করা হয়েছে। তবে এ ছবিটি মিশর, সামোয়া এবং কুক আইল্যান্ডে নিষিদ্ধ হয়েছে।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

যানবাহনের অসুস্থ প্রতিযোগিতা বন্ধ করতে হবে

ক্রিকেটারদের ধর্মঘট ষড়যন্ত্রের অংশ

যেভাবে কোটিপতি ‘পলিথিন তবারক’

কীভাবে ভিআইপি লাউঞ্জ ব্যবহার করতেন সম্রাট?

ক্রিকেটারদের আন্দোলনে ফিকা’র সমর্থন

দুদকের আট কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অনুসন্ধান শুরু

ইডেন টেস্টে উপস্থিত থাকবেন শেখ হাসিনা

‘আমার মনে হয় বোর্ডের সবাই ব্যর্থ’

বিশ্বনাথে পংকি খান ও ফারুককে নিয়ে জল্পনা

পদ্মা সেতুর ১৫তম স্প্যান বসলো

ব্রেক্সিট চুক্তি পাস করাতে জনসনের শেষ প্রচেষ্টা

এনু-রূপণের ৩৫ কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ

মাদক-দুর্নীতি-চাঁদাবাজি ও অনুপ্রবেশকারীদের বিষয়ে জিরো টলারেন্স: যুবলীগ

সাদাতের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

বায়তুল মোকাররমে হেফাজতের বিক্ষোভ

বাংলাদেশ উন্নয়নের মডেল: আইনমন্ত্রী