মাহীকে দুদকের জিজ্ঞাসাবাদ, যাননি স্ত্রী

প্রথম পাতা

স্টাফ রিপোর্টার | ২৬ আগস্ট ২০১৯, সোমবার | সর্বশেষ আপডেট: ১:৩৭
যুক্তরাষ্ট্রে অর্থপাচার ও জ্ঞাত আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগ অনুসন্ধানে বিকল্প ধারা বাংলাদেশের যুগ্ম মহাসচিব মাহী বি. চৌধুরীকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। গতকাল দুদকের প্রধান কার্যালয়ে সকাল সোয়া ১০টা থেকে অনুসন্ধান কর্মকর্তা দুদক উপ-পরিচালক জালাল উদ্দিন আহাম্মদ তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। তবে একই অভিযোগে তলব করা হলেও উপস্থিত হননি মাহীর স্ত্রী আশফাহ হক। গত ৭ই আগস্ট তাদের তলব করে দ্বিতীয় দফায় চিঠি দিয়েছিল দুদক। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নে মাহী বলেন, এখানে জ্ঞাত আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের সুযোগ নেই, মানি লন্ডারিংয়েরও সুযোগ নেই।

বাংলাদেশের বাইরে যদি কোনো আয় থেকে থাকে, ব্যয় থাকে, তা বাংলাদেশের বাইরের বৈধ আয় থেকেই হয়েছে। তিনি বলেন, একটি অভিযোগ এসেছে আমার নামে, সেই অভিযোগের প্রাথমিক তদন্ত করছে দুদক। সেই অভিযোগের সত্যতা যাচাই করার জন্য আমার বক্তব্য নেয়া প্রয়োজন ছিল। এ জন্য দুদক আমাকে ডেকেছে, আমি আমার বক্তব্য দিয়েছি। মাহী বলেন, আমি মনে করি দুদকে যেহেতু অভিযোগ এসেছে, দুদক প্রকৃত অথরিটি, সত্য উদঘাটনের জন্য সময় দরকার। আমার কাছ থেকে দুদক যেসব তথ্য চেয়েছে, সেগুলো আমি দেব। দুদক তার মতো কাজ করবে। পাশাপাশি আমার কিছু কাজ করতে হবে, যা পরবর্তীতে সংবাদ সম্মেলনে খোলাসা করব। অভিযোগের সত্যতা কতটুকু, এর পেছনে কী ষড়যন্ত্র রয়েছে, তা বলব। আগামী ২৭ বা ২৮শে আগস্ট সেই সংবাদ সম্মলন করবেন জানিয়ে তিনি বলেন, পেছনে কী কারণ রয়েছে, যে অভিযোগগুলো এসেছে, তার ভিত্তি কতটুকু, সেগুলোর ব্যাখ্যা অবশ্যই আমরা দেব। নিজেকে নির্দোষ প্রমাণ করতে পারবেন কি না-এ প্রশ্নে মাহী বলেন, নির্দোষ প্রমাণ করারই কিছু নেই, আমি নির্দোষ, এটা আপনারা দেখতে পাবেন।

এর আগে তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহে আরো সময় চেয়ে এ দম্পতির আবেদনের প্রেক্ষিতে ১৮ দিন সময় দিয়ে গতকাল রোববার উপস্থিত হয়ে বক্তব্য দেয়ার জন্য ফের তলবি নোটিশ পাঠিয়েছিল দুদক। এর আগে গত ২৮শে জুলাই দুদকের প্রধান কার্যালয় থেকে সাবেক প্রেসিডেন্ট ডা. এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরীর ছেলের বারিধারার (রোড নং ১২, বাড়ি ১৯) ঠিকানায় তলবি নোটিশ পাঠানো হয়। যেখানে তাদেরকে ৭ই আগস্ট সকাল সাড়ে ১০টায় হাজির হতে বলা হয়েছিল। দুদক সূত্রে জানা যায়, মাহী বি চৌধুরী ও তার স্ত্রী আশফাহ হকের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রে অর্থ পাচারের মাধ্যমে জ্ঞাত আয় বহিভূর্ত সম্পদ অর্জনের অভিযোগ রয়েছে। চলতি বছরের জুন মাসে তাদের বিরুদ্ধে অনুসন্ধান শুরু করে দুদক।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

এনআরসি’র নামে আসামে যা হচ্ছে তা বিপজ্জনক

ছয় মাসে মালয়েশিয়ায় ৩৯৩ বাংলাদেশি শ্রমিকের মৃত্যু

এবার প্রক্টর-ছাত্রলীগ নেতার ফোনালাপ ফাঁস

সিনেট থেকে শোভনের পদত্যাগ, কী করবেন গোলাম রাব্বানী

দৃশ্যত কাশ্মীর নিয়ে মন্তব্য করায় আমাকে ভিসা দেয়া হয়নি

বিদেশ মিশনে নিয়োগ চেয়ে পুলিশের প্রস্তাব

খালেদা জিয়াকে হত্যার উদ্দেশ্যে আটকে রাখা হয়েছে: মির্জা ফখরুল

আগুনে কি ইরানই ঘি ঢালছে?

আজ থেকে খোলাবাজারে পিয়াজ বিক্রি

জাপাকে ছেড়ে দিয়ে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাহার

মেট্রোরেলের নিরাপত্তায় পুলিশ ইউনিট গঠনের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

ডেঙ্গুতে দুই শতাধিক মৃত্যুর তথ্য স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে

নতুন ভিডিও ভাইরাল

সম্পাদক পরিষদের সভাপতি মাহফুজ আনাম, সম্পাদক নঈম নিজাম

নবজাতক সারাকে ফেলে লাপাত্তা মা-বাবা

সিলেটের নিপার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ প্রবাসী নাজমুলের