জাকির নায়েকের জন্য ক্রমশ সংকুচিত হচ্ছে মালয়েশিয়া

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১৯ আগস্ট ২০১৯, সোমবার
ধর্মীয় বিতর্কিত প্রচারক ড. জাকির নায়েকের জন্য ক্রমশ সংকুচিত হয়ে আসছে মালয়েশিয়া। বিতর্কিত মন্তব্য করার কারণে তাকে মালয়েশিয়া থেকে বের করে দেয়ার দাবি উঠেছে পার্লামেন্টের সদস্যদের অনেকের পক্ষ থেকে। সর্বশেষ প্রধানমন্ত্রী ড. মাহাথির মোহাম্মদও তেমন মন্তব্য করার পর আতঙ্কিত হওয়ার কথা জাকির নায়েকের। এরই মধ্যে তার বিতর্কিত ধর্মীয় বক্তব্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে মালয়েশিয়ার ৭টি রাজ্যে। তা হলো জহোর, সেলাঙ্গর, পেনাং, কেদাহ, পারলিস, সারাওয়াক। আর সর্বশেষ তার বক্তব্য প্রচার নিষিদ্ধ করেছে মেলাকা রাজ্য। তার বক্তব্য জ্বালাময়ী হওয়ার কারণে এমন পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। এ খবর দিয়েছে অনলাইন জি নিউজ।
 
মালয়েশিয়ার মিডিয়া রিপোর্ট করেছে, মেলাকা রাজ্যে ড. জাকির নায়েকের ধর্মীয় বক্তব্য নিষিদ্ধ করে নির্দেশ জারি করেছেন ওই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী আদলি জাহারি। তিনি বলেছেন, তিনি চান না ধর্মীয় সাম্প্রদায়িকতা নিয়ে উত্তেজনা সৃষ্টি হোক। তার বক্তব্য উদ্ধৃত করেছে মালয়েশিয়ার স্টার পত্রিকা। তাতে আদলি জাহারি বলেছেন, আমরা (আমাদের মধ্যে) সুসম্পর্ক বজায় রাখতে চাই। তাই কোনো আলোচনা বা সমাবেশে জাকির নায়েককে বক্তব্য দিতে অনুমতি না দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।
 
গত সপ্তাহে রিপোর্ট প্রকাশ হয় যে, ড. জাকির নায়েককে স্থায়ী আবাসিক যে মর্যাদা দিয়েছে মালয়েশিয়া তা বাতিল করা হতে পারে। মালয়েশিয়ায় বসবাসকারী চীনা জনগণের জাতি ও হিন্দুদের বিরুদ্ধে তিনি স্পর্শকাতর মন্তব্য করার অভিযোগে তার বিরুদ্ধে কর্তৃপক্ষ এরই মধ্যে তদন্ত শুরু করেছে। প্রথমে তিনি মালয়েশিয়ার চীনাদের তাদের দেশে ফিরে যেতে বলেন। তিনি তাদেরকে ‘ওল্ড গেস্ট’ হিসেবে আখ্যায়িত করেন। নিজেকে দেশ থেকে বের করে দেয়ার বিষয়ে কেলাতনের কোটা বারু’তে ‘এক্সিকিউটিভ টক বারসাম ড. জাকির নায়েক’ শীর্ষক এক ধর্মীয় আলোচনায় তিনি এসব মন্তব্য করেন।

ওই একই ভেন্যুতে তিনি ভারতে বসবাসকারী মুসলিমদের সঙ্গে মালয়েশিয়ায় বসবাসকারী হিন্দুদের তুলনা করেন। বলেন, ভারতে বসবাসকারী মুসলিমদের চেয়ে শতগুণের বেশি অধিকার ভোগ করছেন মালয়েশিয়ায় বসবাসকারী হিন্দুরা। এর আগে তিনি বলেছেন, মালয়েশিয়ায় বসবাসকারী হিন্দুরা প্রধানমন্ত্রী ড. মাহাথির মোহাম্মদের চেয়ে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রতি বেশি অনুগত। তার এ বক্তব্যের কড়া নিন্দা জানায় মালয়েশিয়ার অনেক দল।  উস্কানিমূলক বক্তব্য, সাম্প্রদায়িক সম্প্রতি নষ্ট করা ও বেআইনি কর্মকা-ের কারণে ভারতে ড. জাকির নায়েক ওয়ান্টেড বা তার নামে পরোয়ানা আছে।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

M A Hoque

২০১৯-০৮-১৯ ০৩:৪৯:০৩

আল্লাহর বান্দা আল্লাহই আশ্রয় দিবেন, হয় দুনিয়াতে না হয় আখিরাতে। দীন প্রচারে নবী এবং রাসুল গনের বিরুদ্ধে অভিযোগ কম ছিলো না। নবী রাসুলগন ছিলেন মাচুম বেগুনা। তার পরও পৃথিবীতে এমন কোনো নবী রাসুল ছিলেন না, যার বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ করা হয় নি। আল্লাহ বলেছেন শয়তানের কৌশল সবসময় দূর্বল। আর আল্লাহ্ আছেন ধর্যশীলদের সাথে।

আপনার মতামত দিন

এনআরসি’র নামে আসামে যা হচ্ছে তা বিপজ্জনক

ছয় মাসে মালয়েশিয়ায় ৩৯৩ বাংলাদেশি শ্রমিকের মৃত্যু

এবার প্রক্টর-ছাত্রলীগ নেতার ফোনালাপ ফাঁস

সিনেট থেকে শোভনের পদত্যাগ, কী করবেন গোলাম রাব্বানী

দৃশ্যত কাশ্মীর নিয়ে মন্তব্য করায় আমাকে ভিসা দেয়া হয়নি

বিদেশ মিশনে নিয়োগ চেয়ে পুলিশের প্রস্তাব

খালেদা জিয়াকে হত্যার উদ্দেশ্যে আটকে রাখা হয়েছে: মির্জা ফখরুল

আগুনে কি ইরানই ঘি ঢালছে?

আজ থেকে খোলাবাজারে পিয়াজ বিক্রি

জাপাকে ছেড়ে দিয়ে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাহার

মেট্রোরেলের নিরাপত্তায় পুলিশ ইউনিট গঠনের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

ডেঙ্গুতে দুই শতাধিক মৃত্যুর তথ্য স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে

নতুন ভিডিও ভাইরাল

সম্পাদক পরিষদের সভাপতি মাহফুজ আনাম, সম্পাদক নঈম নিজাম

নবজাতক সারাকে ফেলে লাপাত্তা মা-বাবা

সিলেটের নিপার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ প্রবাসী নাজমুলের