কবুতর চুরির অভিযোগে...

অনলাইন

ঝালকাঠি প্রতিনিধি | ১১ জুন ২০১৯, মঙ্গলবার, ৮:১৯
ঝালকাঠির নলছিটিতে কবুতর চুরির অভিযোগে দুই স্কুলছাত্র নির্যাতনের শিকার হয়েছেন। তাদের গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য রফিকুল ইসলাম। তাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

নির্যাতনের শিকার সজিব হোসেন খান বাকেরগঞ্জের তবিরকাঠি গ্রামের খলিলুর রহমানের ছেলে এবং রিফাত হোসেন জয় একই গ্রামের আবদুল ক্দ্দুুস হাওলাদারের ছেলে। তাঁরা দুজনেই স্থানীয় জেড এ ভূট্টো মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্র।

এ ঘটনায় জয়ের বাবা বাদী হয়ে গতকাল সোমবার রাতে নলছিটি থানায় ইউপি সদস্য রফিকুল ইসলাম ও পুলিশ কনস্টেবল শাহ আলমসহ ৮ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন।

নির্যাতনের শিকার দুই ছাত্রের পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, নলছিটি উপজেলার সিদ্ধকাঠি ইউনিয়নের চৌদ্দবুড়িয়া গ্রামের বাসিন্দা বরিশালের গৌরনদী উপজেলার সরিকল অভিযোগ কেন্দ্র কর্মরত পুলিশ কনস্টেবল মো. শাহ আলমের বাড়িতে শনিবার রাতে কবুতর চুরি হয়। রবিবার সকালে পার্শ্ববর্তী বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার তবিরকাঠি গ্রামের মো. সজিব হোসেন খান (১৪) ও রিফাত হোসেন জয় (১৪) নামে দুই শিশুকে আটক করে শাহ আলম। পরে সিদ্ধকাঠি ইউনিয়ন পরিষদের নয় নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য ও রফিকুল ইসলাম বিচার বসিয়ে নির্যাতনের নির্দেশ দেন।
কনস্টেবল শাহ আলম ব্লেড দিয়ে জয় নামে এক স্কুলছাত্রের মাথার মাঝখান থেকে চুল কেটে দেয়। এসময় তাদের ২০ হাজার টাকা জরিমানাও করা হয়। পুরো ঘটনা দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে দেখেন স্থানীয় লোকজন। চুল কাটা ও গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতনের চিত্র ভিডিও করে এবং ছবি তুলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও ছড়িয়ে দেয়া হয়।

নির্যাতনের শিকার স্কুলছাত্র জয় জানায়, গত রবিবার রাত থেকে পরের দিন সন্ধ্যা পর্যন্ত তাদের আটকে রেখে দফায় দফায় নির্যাতন করা হয়েছে।  পরে পুলিশ সদস্য শাহআলম ব্লেড দিয়ে তাদের মাথা ন্যাড়া করে দেয়।

জয়ের বাবা আবদুল কুদ্দুস জানান, আমার ছেলের নামে কবুতর চুরির মিথ্যা অপবাদ দিয়ে মারধর করে চুল কেটে দিয়েছে। আমি এ ঘটনার বিচার চাই। আমি জরিমানার টাকা দিয়ে ছেলেকে ছাড়িয়ে এনেছি।

সিদ্ধাকাঠি ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য ও যুবলীগ নেতা রফিকুল ইসলাম বলেন, ছেলে দুটি আমাদের গ্রামে এসে কবুতর চুরি করেছে। এর আগেও তারা কয়েকজনের বাসা থেকে কবুতর নিয়ে গেছে। আমি তাদের আটক করিনি কিংবা মারধরও করিনি। আমি ঘটনাটি শুনেছি মাত্র। এলাকার প্রতিপক্ষরা আমাকে ফাঁসানোর জন্য এ অপপ্রচার চালাচ্ছে।

নলছিটি থানার ওসি মো. সাখাওয়াত হোসেন জানান, নির্যাতনকারীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। নির্যাতনের শিকার জয়ের বাবা মামলা দায়ের করলে ইতোমধ্যে একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত সকলকে আইনের আওতায় এনে বিচারের ব্যবস্থা করা হবে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ঢাবি ছাত্রীকে অস্ত্রের মুখে ধর্ষণ, ভিডিও ধারণ, অত:পর.....

টীকার ওপর সবচেয়ে বেশি আস্থা বাংলাদেশ ও রোয়ান্ডার

শাহবাজপুরে ক্ষতিগ্রস্থ সেতুর সংস্কার শুরু হয়নি

আওয়ামী লীগের সাবেক এমপি রানার জামিন

জন্মুদিনে রাহুলকে শুভেচ্ছা মোদির

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য হলেন টুকু ও সেলিমা

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে ১৫৯০ কোটি টাকা দান করলেন মার্কিন ধনকুবের

বরিশালে রাতের আধারে যুবককে কোপালো অস্ত্রধারীরা

বায়তুল মোকাররম মসজিদ মার্কেটে আগুন

প্রেমের টানে জার্মান যুবতী বাংলাদেশে, ইসলাম গ্রহণ!

হোসেনপুরে চয়ন হত্যা মামলায় ৩ জনের ফাঁসি

মাদারীপুরের কলেজছাত্র হত্যা মামলায় ৪ জনের যাবজ্জীবন

দিনে ৩৭০০০ মানুষ বাস্তুচ্যুত হচ্ছেন বিশ্বে

হত্যামিশনে গিয়ে গণপিটুনিতে নিহত, বোমা বিস্ফোরণে আহত ২

রাজধানীতে ছুরিকাঘাতে মুদি ব্যবসায়ীর মৃত্যু

জাবিতে সিনেটে ফের ভরাডুবি ভিসিজোটের