এ এক অন্যরকম এয়ারলাইন

এক্সক্লুসিভ

মানবজমিন ডেস্ক | ১৯ এপ্রিল ২০১৯, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ১১:১৫
ভাবুন তো বিমানে বসে আছেন। আর আপনার সামনে দিয়ে বিকিনি পরা বিমানবালা হেঁটে বেড়াচ্ছেন। আপনার কাছে জানতে চাইছেন কী কী সেবা দিতে পারেন। না, লাজুক হওয়ার কোনো কারণ নেই। এটাই সত্যি হতে যাচ্ছে একটি বিমানে। এমন বিমান উড়বে ভিয়েতনামের হো চি মিন সিটি থেকে। কোথাও বিরতি না দিয়ে তা সরাসরি উড়ে যাবে নয়া দিল্লিতে। এতে যেসব বিমানবালা থাকবেন তারা বিকিনি পরা। এজন্য এ বিমান সংস্থাটিকে বিতর্কিত করে বলা হয় ‘বিকিনি এয়ারলাইন’। প্রকৃত নাম ভিয়েতজেট এয়ার। এটি পরিচালনা করছেন নারী উদ্যোক্তা নগুয়েন থি ফুওং থাও। সপ্তাহে চারদিন হো চি মিন সিটি ও নয়া দিল্লির মধ্যে চলাচল করবে এ বিমানটি। তবে যৌন সুড়সুড়ি সৃষ্টিকারী বলে এরই মধ্যে ব্যাপক সমালোচনায় পড়েছে ভিয়েতজেট এয়ার। তারা এরই মধ্যে বার্ষিক একটি ক্যালেন্ডার প্রকাশ করেছে। তাতে বিমানবালা, পাইলট ও সমতলে দায়িত্ব পালনরতদের বিকিনি পরা ছবি ব্যবহার করা হয়েছে। এ খবর দিয়েছে অনলাইট আউটলুক ইন্ডিয়া।  
২০১১ সালের ডিসেম্বরে শুরু এই এয়ারলাইনটির যাত্রা। আকাশে উড়ার প্রথম বছরেই তারা চোখে পড়ার মতো লাভ করেছে। বিবিসি রিপোর্ট করেছে যে, আগে এই বিমান সংস্থাটি মাঝে মাঝে সংবাদ শিরোনাম হতো। বিমানবালা বা অন্যরা যাত্রীদের সেবা দিচ্ছেন এমন একটি পোশাক বা ইউনিফর্ম পরে, যা বিকিনির চেয়ে সামান্য মার্জিত। তবে তাকে বিকিনি বলাই ভালো। এ জন্য আগে তাদেরকে নিয়ে সংবাদ শিরোনাম হয়েছে। কিন্তু ২০১২ সালে হঠাৎ করেই বিমান সংস্থাটি নিজেদেরকে সমালোচনার একেবারে তুঙ্গে নিয়ে যায়  
। ওই সময় বিমান যখন কোনো একটি ফ্লাইটের মাঝপথে ঠিক তখন সুন্দরী প্রতিযোগিতার মতো করে এর ভেতর নাচের আয়োজন করা হয়। আর তাতে নাচ করেন বিকিনি পরা ৫ বিমানবালা। এ খবর বাতাসের আগে ছড়িয়ে পড়ে। বিমানের ভেতরে এমন কাণ্ড ঘটানোর জন্য ভিয়েতজেট এয়ার দেশটির বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের পূর্বানুমতি নেয়নি। এ জন্য তাদের ৬৭৮.২০ পাউন্ড জরিমানা করা হয়।
তবে এবার দিল্লি পর্যন্ত তারা এমন যে ফ্লাইট চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে, তাতে যে বিকিনি পরা বিমানবালা থাকবেন, এ বিষয়ে সেখানকার কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে অনুমতি নেয়া হয়েছে কি না তা জানা যায়নি। প্রকাশ করা হয়নি কোন তারিখ থেকে শুরু হবে এমন ফ্লাইট। তবে কোম্পানির একজন কর্মকর্তা বলেছেন, খুব শিগগিরই শুরু হবে এ ফ্লাইট। বর্তমানে ভিয়েতনাম ও ভারতের মধ্যে সরাসরি কোনো ফ্লাইট চালু নেই। সম্প্রতি ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট ট্রান ডাই কুয়াং ভারত সফরে আসেন। তখন ইন্ডিয়া-ভিয়েতনাম বিজনেস ফোরাম আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এমন ফ্লাইট চালু করার ঘোষণা দেয়া হয়।  
বর্তমানে ভিয়েতজেট এয়ারলাইনের ৫৫টি বিমান আছে। তারা ভিয়েতনাম ও আন্তর্জাতিক ৮২টি রুটে প্রতিদিন ৩৮৫টি ফ্লাইট পরিচালনা করে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

কামরুল হাসান

২০১৯-০৪-১৮ ২০:২১:২১

ওহ দাদা,যা মজা হবে না মাইরি,এমন শুভ লগ্নে আপনাকে আমার পাশে থাকতেই হবে। খরচা আমার।

আপনার মতামত দিন

টাঙ্গাইলে পুলিশী নির্যাতনে ব্যবসায়ীর মৃত্যু, সড়ক অবরোধ, ৮ পুলিশ প্রত্যাহার

বাংলাদেশি পাসপোর্ট নিয়ে বিদেশ যাওয়ার সময় ২ রোহিঙ্গা আটক

পদত্যাগের প্রস্তাব দিতে পারেন রাহুল গান্ধী

ট্রেনের ৩ জুনের টিকিটের জন্য কমলাপুর ও এয়ারপোর্ট স্টেশনে উপচেপড়া ভিড়

১৩ তম স্প্যান বসলো পদ্মাসেতুতে

কে হচ্ছেন বৃটেনের পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী!

সিরাজগঞ্জে বজ্রপাতে ঘুমন্ত ৪ ধানকাটা শ্রমিক নিহত

‘অনেক কিছু আছে নজরুলের গানে’

বিরোধীদলীয় নেতার সরকারি বাসভবনে বস্তিঘর (ভিডিও)

তেরেসা মে’র চোখে তখন পানি

২৮শে মে শপথ নিতে পারেন নরেন্দ্র মোদি

সরকার এত অমানবিক নয়

খালেদা জিয়াকে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিচ্ছে সরকার

ধারণা পাল্টে দিতে চায় অভিজ্ঞ বাংলাদেশ

গান্ধী পরিবারের রাজনীতির সমাপ্তি?

দোহার-নবাবগঞ্জকে আধুনিক উপজেলায় পরিণত করবো