ঘুষ না খাওয়ার শপথ পড়ালেন অর্থমন্ত্রী

শেষের পাতা

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | ২৬ মার্চ ২০১৯, মঙ্গলবার | সর্বশেষ আপডেট: ২:০১
সোনালী ব্যাংকের বার্ষিক সম্মেলন-২০১৯ এ উপস্থিত সব কর্মকর্তা-কর্মচারীর ঘুষ না খাওয়ার শপথ পড়ালেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। গতকাল রাজধানীর আইডিইবি ভবনে ব্যাংকের বার্ষিক সম্মেলনে কুরআনের একটি আয়াত সবাইকে তিলাওয়াত করিয়ে ঘুষ না খাওয়ার জন্য কর্মকর্তাদের কাছ থেকে প্রতিশ্রুতি নেন অর্থমন্ত্রী। সোনালী ব্যাংকের চেয়ারম্যান আশরাফুল মকবুলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির, অর্থমন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব মো. আসাদুল ইসলাম।

অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশের জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৮.১৩ শতাংশ এবং মাথাপিছু আয় ১ হাজার ৯০৯ ডলার। বর্তমানে বাংলাদেশ পৃথিবীর বুকে উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে বিবেচিত। আগামী চার বছরের মধ্যে আমাদের জিডিপি প্রবৃদ্ধি দুই অঙ্কের ঘরে পৌঁছাবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

মুস্তফা কামাল বলেন, আমি পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে থাকা অবস্থায় পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের ট্যাগলাইন দিয়েছিলাম, ‘এখানে আপনার একটি স্বপ্ন আছে’, আর অর্থ মন্ত্রণালয় আসার পর আমি ট্যাগ লাইন দিয়েছি ‘আমরা আপনার সততাই বিশ্বাসী’। আমি বিশ্বাস করি সততার সঙ্গে কাজ করলে আমাদের কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে আমরা অবশ্যই পৌঁছাব।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির বলেন, অনেক সেক্টরে ভালো করলেও সোনালী ব্যাংকের প্রভিশন ঘাটতি অনেক বেশি। অবলোপনকৃত লোনের পরিমাণ খুব একটা কমেনি এবং শ্রেণিকৃত ঋণেরও তেমন উন্নতি দেখা যাচ্ছে না। শ্রেণিকৃত ঋণের ৯০ শতাংশই কুঋণ। এই বিষয়গুলো মাথায় রেখে কাজ করার পরামর্শ দেন গভর্নর। শ্রেণিকৃত ঋণ আদায়ের জন্য প্রথমেই মামলা না করে আলোচনার মাধ্যমে টাকা আদায়ের চেষ্টা করার পরামর্শও দেন তিনি। পাশাপাশি নির্দিষ্ট কোনো সেক্টরে ঋণ কুক্ষিগত না করার পক্ষে মত দেন গভর্নর।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

ফিদহার

২০১৯-০৩-২৫ ২১:৪৭:৫৪

কুরান শপথ করার পরও ত্ররা দুরনীতি করবে

আপনার মতামত দিন

ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রীকে গ্রেপ্তার করেছে সিবিআই

ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রী চিদাম্বরম গ্রেপ্তার

বিএনপি-জামায়াতের পৃষ্ঠপোষকতায় ২১শে আগস্ট হামলা

পরিচ্ছন্নতা অভিযানের পরের দিন আগের চিত্র

কাশ্মীর ইস্যু ভারতের অভ্যন্তরীণ

কাশ্মীরের যে এলাকা এখনো মুক্ত

সর্ষের মধ্যে ভূত থাকতে নেই: হাইকোর্ট

ফেসবুক গ্রুপ ‘গার্লস প্রায়োরিটি’র অ্যাডমিন কারাগারে

বিতর্ক দমাতে ফুটেজ চান মেয়র আরিফ

ঢাকা-দিল্লি সম্পর্ক ইতিবাচক পথেই রয়েছে: জয়শঙ্কর

কে হচ্ছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব ও মুখ্য সচিব

তারেকের সর্বোচ্চ শাস্তির জন্য আপিল করা হবে

ডেঙ্গু পরিস্থিতি: রোগী কমে-বাড়ে ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি ১৬২৬

এডিস মশার লার্ভা পাওয়ায় দুই সিটিতে ৩৯০০০০ টাকা জরিমানা

মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলে নতুন করে অস্থিরতা নিহত ১৯

৫ বছরে আমানত ৫ হাজার কোটি টাকা