নোয়াখালীতে ১৭ জনের দাফন সম্পন্ন এখনো নিখোঁজ ৩১

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোর্টার, নোয়াখালী থেকে | ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:০৬
ঢাকার চকবাজারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে নোয়াখালীর ১৭ জনের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। এখনো ৩১ জনের মতো নিখোঁজ রয়েছে। গতকাল রাত পর্যন্ত সোনাইমুড়ি, বেগমগঞ্জ, কোম্পানীগঞ্জ ও হাতিয়ার বিভিন্ন স্থানে নিহতদের পারিবারিক কবরস্থানে ১৭ জনের লাশ দাফন সম্পন্ন হয়েছে। হৃদয়বিদারক এ ঘটনায় সোনাইমুড়ি, বেগমগঞ্জ, কোম্পানীগঞ্জ ও হাতিয়ার গ্রামে গ্রামে চলছে শোকের মাতম। অন্যদিকে, জেলার বিভিন্ন মসজিদ  ও ইবাদতখানায় নিহতদের স্মরণে দোয়া ও মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। আকস্মিক ভয়াবহ দুর্ঘটনায় পরিবারের কর্মক্ষম আপনজনকে হারিয়ে পরিবার নিঃস্ব হয়ে এখন পথে বসার উপক্রম হয়েছে। কীভাবে তারা এই অপূরণীয় ক্ষতি পূরণ করবে? কেউ আপনজন, কেউ দোকানপাট, আবার কেউ দুটোই হারিয়েছে।

বেগমগঞ্জ উপজেলার মুজাহিদপুর গ্রামের কামাল হোসেন ও কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরএলাহী গ্রামের জসিম উদ্দিন, নাটেশ্বর ইউনিয়নের নজরপুর গ্রামের খাসের বাড়িতে একই পরিবারের দুই সহোদর মাসুদ রানা ও রাজুর দাফন হয়েছে। নাটেশ্বর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান নুরুল আমিন স্বপন  জানান, বটতলী গ্রামের সাহাদাত হোসেন হীরা, মির্জা নগরের আনোয়ার হোসেন মঞ্জু, নাছির উদ্দিন, আলী হোসেন ও হেলাল উদ্দিন এবং পার্শ্ববর্তী বারগাঁও ইউনিয়নের কৃষ্ণরামপুর গ্রামের আনোয়ার হোসেনের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। এর আগে, গত দুইদিন ধরে হতাহতের খবরে স্বজনদের আহাজারিতে নোয়াখালীর গ্রামে গ্রামে পরিবেশ ভারী হয়ে উঠেছে।

কেউ কেউ স্বজনদের এখনো সন্ধানই পাচ্ছেন না, তারা বেঁচে আছেন কি মরে গেছেন তাও জানা নেই অনেকের। সোনাইমুড়ির নাটেশ্বর ইউনিয়নের সহস্রাধিক মানুষ ঢাকার চকবাজারে ব্যবসা ও বসবাস করছেন। বজরা ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান আবেদুর রহমান জানান, নোয়াখালীর মানুষ জীবন-জীবিকার তাগিদে ঢাকা সহ চকবাজারে ব্যবসা-বাণিজ্য করতে গিয়ে নিথর দেহে ফিরলো নিজ জন্মস্থানে। তাই পরিকল্পিত নগরায়নে চকবাজারের মতো ভবিষ্যতে এমন ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা যেন না ঘটে সেই ব্যবস্থা নেবে সরকার- এমনটাই প্রত্যাশা এই সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ও স্থানীয় এলাকাবাসীর।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

কেরানীগঞ্জে আদালত স্থাপন সম্পূর্ণ অসাংবিধানিক : মওদুদ

ভোট গণনায় কারচুপি ঠেকাতে ইসি’র দ্বারস্থ মোদি বিরোধী জোট

প্রেমিকার বাসা থেকে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রের লাশ উদ্ধার

বুথ ফেরত জরিপে মোদির জয়, বিরোধীদের তোড়জোড়

কুষ্টিয়ায় ধর্ষণ মামলায় প্রধান শিক্ষকের যাবজ্জীবন

সরাসরি কৃষকদের কাছ থেকে ধান কেনার দাবিতে নাটোরে বিএনপির স্মারকলিপি

সারাদেশের পাস্তুরিত দুধ পরীক্ষার নির্দেশ হাইকোর্টের

গাজীপুর সিটির ১৪ জনকে কারণ দর্শানোর নোটিশ

রুমিন ফারহানার মনোনয়নপত্র বৈধ

হুয়াওয়ের ওপরকার বিধিনিষেধ শিথিল করছে যুক্তরাষ্ট্র

১০ গ্রামের মানুষের ভরসা একটি বাঁশের সাঁকো

দেশে ফিরেছেন ভূমধ্যসাগরে প্রাণে বেঁচে যাওয়া ১৫ বাংলাদেশি

শাহজালালে সোয়া তিন কোটি টাকার স্বর্ণ জব্দ, যাত্রী আটক

ইউরেনিয়াম উৎপাদন ৪ গুণ বাড়িয়েছে ইরান, বাড়ছে উত্তেজনা

বহিস্কৃত ছাত্রলীগ নেত্রী জারিনের আত্মহত্যার চেষ্টা!

বিশ্ববিদ্যালয় পালানো শিক্ষকরা