কাদিয়ানী সম্মেলন বন্ধ না হলে আন্দোলন: আল্লামা শফী

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, মঙ্গলবার, ৭:১৯ | সর্বশেষ আপডেট: ৮:৪৫
হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমীর আল্লামা আহমদ শাহ শফী পঞ্চগড়ে কাদিয়ানিদের ৩ দিনব্যাপী সম্মেলন অবিলম্বে বন্ধ করতে সরকারের প্রতি আহবান জানিয়েছেন। বলেছেন, কাদিয়ানিরা পাঞ্জাবের মির্জা গোলাম আহমদ কাদিয়ানীকে নতুন নবী মানে। অর্থাৎ মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সাঃ)কে সর্বশেষ নবী মানে না। তাই তারা নিশ্চিভাবে কাফের। অথচ তারা নিজেদের আহমদিয়া মুসলিম পরিচয় দিয়ে সাধারণ মুসলমানদের সঙ্গে প্রতারণা করছে। এরই অংশ হলো পঞ্চগড়ে ২২, ২৩ ও ২৪শে ফেব্রুয়ারি কাদিয়ানী সম্মেলন। তিনি বলেন, কাদিয়ানিদের এই সম্মেলন অবিলম্বে বন্ধ করতে হবে। এ ব্যাপারে যারা আন্দোলন করছে তাদের সাথে পরিপূর্ণ একাত্মা ঘোষণা করছি এবং কাদিয়ানিদের এ সম্মেলন বন্ধ না হওয়া পর্যন্ত সর্বাত্মক আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার জন্য সর্বস্তরের মুসলমানদের প্রতি আহবান জানাচ্ছি।
যদি এ সম্মেলন বন্ধ করা না হয় প্রয়োজনে আমি পঞ্চগড়ে গিয়ে আন্দোলনে শরীক হবো ইনশাল্লাহ। আল্লামা শফী বলেন, খতমে নবুয়তের বরকতময় আন্দোলন যারা করছেন, তারাসহ সকল দ্বীনি আন্দোলনের নেতাকর্মীদের কাল বিলম্ব না করে পঞ্চগড় গিয়ে প্রিয় নবীজির খতমে নবুয়তের চিরশত্রু কাফের কাদিয়ানিদের বিরুদ্ধে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলার আহবান জানাচ্ছি।




এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

mohammed ali

২০১৯-০২-১২ ১০:৪৪:১৫

যেহেতু হযরত মোহাম্মদ(সঃ) কে শেষ নবী হিসাবে মানেনা, সুতরাং তাদেরকে অমুসলিম সংখ্যালগু হিসাবে ঘোষনা দিলে সমস্যা কোথায়?

মুহা: ওয়াহিদুর রহমান

২০১৯-০২-১২ ১০:০৫:৩৫

আমাদের নবী হযরত মুহাম্মদ( সা:) শেষ নবী ৷তাকে যারা শেষ নবী মানবেনা তারা নি: সন্দেহে কাফের ৷সুতরাং কাদিযানীরা ও কাফের ৷কারণ তারা আমাদের নবীজিকে শেষ নবী মানেনা

Kazi

২০১৯-০২-১২ ০৮:৫৪:৪৯

Real Muslim cannot agree Qadiyani as Muslim. Prophet Muhammad is the last prophet. Whoever claims after him as new prophet is totally kafer.

আপনার মতামত দিন

সালাউদ্দিন লাভলু হাসপাতালে

জামায়াতের গন্তব্য কোথায়?

সড়কের শৃঙ্খলা ফেরাতে শাজাহান খানের নেতৃত্বে কমিটি

গণশুনানিতে অনড় ঐক্যফ্রন্ট

ঢাকায় যত বাগ

টিকিট বুকিংয়ের নামে প্রতারণা

আমিরাতের প্রতিরক্ষা প্রদর্শনীতে যোগ দিলেন প্রধানমন্ত্রী

নির্বাচনী ট্রাইব্যুনালে আরো ৭ প্রার্থী

যেভাবে নাসায় ডাক পেলেন পাঁচ তরুণ

ভোগান্তির পর গ্যাস সরবরাহ স্বাভাবিক

অর্থ প্রাপ্তি সাপেক্ষে দুই হাজার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তি

সানাইয়ের ভুল স্বীকার

ভালোবাসা দিবসের রাতে সাভারে পোশাক শ্রমিককে গণধর্ষণ

বৃহত্তর ঐক্যে বাম জোট ভোট পেছানোর দাবিতে ছাত্রদল, নির্বাচনমুখী ছাত্রলীগ

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়, নির্বাচন কমিশন, জনপ্রশাসন সচিবসহ ৪৪ কর্মকর্তা ফ্ল্যাট পেলেন

এসডিজি অর্জনে সক্ষমতার পথে বাংলাদেশ: স্পিকার