কুমিল্লা কারাগারে অনশনে মনিরুল হক চৌধুরী

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোটার, কুমিল্লা থেকে | ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ১:০৬
কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে আমরণ অনশনে বসেছেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা, কুমিল্লা-১০ সংসদীয় আসনে দলের মনোনীত প্রার্থী ও মুক্তিযুদ্ধের একজন সংগঠক সাবেক এমপি মনিরুল হক চৌধুরী। বৃহস্পতিবার রাত থেকে তিনি অনশন শুরু করেছেন বলে জানিয়েছেন তার আইনজীবী ও পরিবারের সদস্যরা।

এর আগে রাজনৈতিক কারণে মামলায় জড়িয়ে তাকে হয়রানিসহ নির্বাচনী কার্যক্রম থেকে সরিয়ে রাখার অভিযোগ এনে অবাধ-সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে সময়-সুযোগ ও আইনানুগ অধিকার নিশ্চিত করার দাবি জানিয়ে জেলা রিটার্নিং অফিসার ও কুমিল্লা জেলা প্রশাসকের নিকট দাখিলকৃত চিঠিতে অনশনের হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

শুক্রবার দুপুরে চিঠি প্রাপ্তির বিষয়টি নিশ্চিত করেন জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক মো. আবুল ফজল মীর।  জেলা রিটার্নিং অফিসারের নিকট দাখিলকৃত চিঠিতে তিনি উল্লেখ করেন, জেলার চৌদ্দগ্রামে ২০১৫ সালের ৩রা ফেব্রুয়ারি দুর্বৃত্তদের হামলায় বাসের ৮ যাত্রী নিহতের ঘটনায় দায়ের করা পৃথক ২টি মামলায় তার (মনিরুল হক চৌধুরী) নাম ছিল না।

ওই ঘটনার ২ বছর পর হয়রানির উদ্দেশ্যে রাজনৈতিক প্রতিপক্ষের চাপে সম্পূরক চার্জশিটে ওই ২টি মামলায় তাকে আসামিভুক্ত করা হয়। এছাড়া একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার আগে ও পরে জেলার সদর দক্ষিণ মডেল থানার আরও ২টি মামলায় তাকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়। এ ২টি মামলার এজাহারেও তার নাম নেই। এদিকে পেট্রোল বোমা হামলায় বাসের ৮ যাত্রী নিহতের মামলায় তিনি হাইকোর্ট থেকে অন্তর্বর্তীকালীন জামিনে ছিলেন এবং পরবর্তীতে কুমিল্লা জেলা জজ আদালতে ৭টি তারিখে হাজির ছিলেন। কিন্তু গত ২৪শে অক্টোবর কুমিল্লা জেলা জজ আদালত তার জামিন বাতিল করে কারাগারে প্রেরণ করেন। ওই দুটি মামলায় গত ৪ঠা নভেম্বর হাইকোর্ট থেকে তার জামিন আদেশ হয়। এরপর জেলার সদর দক্ষিণ মডেল থানা পুলিশের সন্ত্রাস বিরোধী ও বিশেষ ক্ষমতা আইনের পৃথক দুটি মামলায় গ্রেপ্তার দেখানোর কারণে তিনি জেলহাজতে আছেন।


এদিকে জেলহাজতে থাকা অবস্থায় তিনি দলের মনোনয়ন লাভ করেন এবং যথাযথ প্রক্রিয়ায় মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। মনিরুল হক চৌধুরীর পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আবদুল মোতালেব মজুমদার শুক্রবার দুপুরে সাংবাদিকদের জানান, সদর দক্ষিণ থানার দুটি মামলার এজাহারে তার নাম না থাকলেও তিনি এসব মামলায় জামিন পাচ্ছেন না এবং তার পরিবারের সদস্যসহ দলের নেতাকর্মীদের সাথে সাক্ষাৎ ও নির্বাচনী কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারছেন না। তাই তিনি অবাধ-সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে সময়-সুযোগ ও আইনানুগ অধিকার নিশ্চিত করার দাবি জানিয়ে বৃহস্পতিবার জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার নিকট চিঠি দিয়েছেন।

অন্যথায় তিনি আমরণ অনশনে যাবেন। শুক্রবার বিকালে এ বিষয়ে কারাগারের জেলার নাশির আহমেদ জানান, কারাবনন্দি সাবেক এমপি মনিরুল হক চৌধুরী ওই চিঠিটি বিধিমোতাবেক বৃহস্পতিবার জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার নিকট প্রেরণ করা হয়েছে। চিঠি প্রাপ্তির বিষয়টি নিশ্চিত করে জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক মো. আবুল ফজল মীর সাংবাদিকদের জানান, এ বিষয়ে জেল কোড অনুযায়ী কারা কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা নেবে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

জামিনে মুক্তি পেয়েছেন মামুন হাসান

ইন্টারনেট প্যাকেজের মেয়াদ ৭ দিনের নিচে হবে না: বিটিআরসি

নির্বাচনের ফলকে কীভাবে দেখছেন ভারতীয় গবেষকরা?

কমলাপুর রেলস্টেশনে আগুন

মার্চে ডিএনসিসি ভোটের ইঙ্গিত দিলেন সিইসি

দ্বিতীয়বার ব্রেক্সিট গণভোট চান ৭১ লেবার এমপি

মুসলিম উম্মাহর একসঙ্গে থাকা উচিত: প্রধানমন্ত্রী

সীতাকুন্ডে তেলের ডিপোতে আগুন

টিআইবির বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করলেন সিইসি

এমপিদের শপথের বৈধতা চ্যালেঞ্জের রিটের আদেশ কাল

জাতীয় পার্টি শক্ত বিরোধীদলের ভুমিকা রাখবে: রাঙ্গা

সব জায়গায় শুদ্ধি অভিযান হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

কানাডায় পাল্টে যাওয়া জীবন সৌদি টিনেজার রাহাফের

রামগঞ্জে ৭দিন ধরে নিখোঁজ মাদ্রাসা ছাত্রী

ফখরুলের পদত্যাগ করা উচিত বলে মনে করেন কাদের

ঢাকা উত্তর সিটির উপনির্বাচন হতে আইনগত বাধা নেই