ভোট দিতে পারবেন প্রবাসীরা

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোর্টার | ৯ ডিসেম্বর ২০১৮, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ১০:৫৭
একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রবাসীরাও দেশের বাইরে থেকে পোস্টাল ভোটের মাধ্যমে ভোট দেয়ার সুযোগ পাবেন। ব্যালট পেপারের জন্য বিদেশ থেকে ডাকযোগে জেলা রিটার্নিং অফিসারের কাছে দরখাস্ত  
করতে হবে। দরখাস্ত ডাকযোগে বাংলাদেশে পৌঁছানোর পর প্রবাসীর দেয়া বিদেশের ঠিকানায় ডাকযোগে ব্যালট পেপার পাঠানো হবে। তারপর পছন্দের প্রতীকে ভোট দিয়ে পুনরায় ডাকযোগে রিটার্নিং অফিসারের কাছে ৩০ ডিসেম্বরের আগে ফেরত পাঠাতে হবে। প্রবাসী যাদের বাংলাদেশের ন্যাশনাল আইডি কার্ড আছে, যারা নির্বাচনের সময়ে ভোট দিতে বাংলাদেশে যাবেন না এবং পোস্টাল ব্যালটের মাধ্যমে বিদেশ থেকে ভোট দিতে আগ্রহী, তাদের শিগগিরই নিজ নিজ জেলা রিটার্নিং অফিসারের কাছে (জেলা প্রশাসক) পোস্টাল ব্যালটের জন্য দরখাস্ত পাঠাতে হবে। দরখাস্তে ন্যাশনাল আইডি কার্ডের নম্বর, ন্যাশনাল আইডি কার্ডের অপর পৃষ্ঠায় থাকা ঠিকানা উল্লেখ করতে হবে।

বিদেশে যে ঠিকানায় ব্যালট পেপার পাঠাতে হবে ওই ঠিকানা অবশ্যই দরখাস্তে উল্লেখ করতে হবে। বাংলাদেশ থেকে যে খামে করে ব্যালট পেপার পাঠানো হবে তার ডাক টিকিট খরচ নির্বাচন কমিশন বহন করবে। প্রবাসীরা ব্যালট পেপারের জন্য যে দরখাস্ত পাঠাবেন, তার ডাকটিকিট খরচ প্রবাসীদের বহন করতে হবে।
নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন এ তথ্য নিশ্চিত করে জানিয়েছেন, যেসব প্রবাসী ইতিমধ্যে ভোটার হয়েছেন, তারা চাইলে প্রবাসে থেকেও তাদের পছন্দের ব্যক্তি বা প্রতীকে ভোট প্রয়োগ করতে পারবেন। সে ক্ষেত্রে প্রবাসী ভোটারদের তাদের নিজ নিজ এলাকার রিটার্নিং অফিসার অথবা জেলা প্রশাসকের কাছে ডাকযোগে বা ই-মেইলের মাধ্যমে পোস্টাল ব্যালটের জন্য আবেদন করতে হবে।

সংশ্লিষ্ট অফিসার তখন আবেদনপত্রে উল্লিখিত ঠিকানায় পোস্টাল ব্যালট পাঠিয়ে দেবেন। নির্বাচনের আগে ভোটার তার পছন্দের ব্যক্তি বা প্রতীকে ভোট দিয়ে তা আবার নিজ এলাকার রিটার্নিং অফিসার বা জেলা প্রশাসকের কাছে পাঠাতে হবে। তিনি বলেন, পুরো প্রক্রিয়াটা সময়সাপেক্ষ, যেহেতু একাদশ জাতীয় নির্বাচনের ভোট গ্রহণের তারিখ ৩০ ডিসেম্বর ঘোষণা করা হয়েছে, তাই প্রবাসীদের মধ্যে যারা ভোট দিতে ইচ্ছুক তাদের এখনই উদ্যোগ নিয়ে নিজ এলাকার রিটার্নিং অফিসার বা জেলা প্রশাসকের কাছে পোস্টাল ব্যালট চেয়ে দ্রুত আবেদন করতে হবে। 

এদিকে প্রবাসে থাকা প্রায় এক কোটি বাংলাদেশি ভোটাধিকার থেকে বঞ্চিত। পৃথিবীর প্রায় ১২০টি দেশে থাকা প্রবাসী তাদের নাগরিকদের জন্য ভোটাধিকারের ব্যবস্থা করে রেখেছে। কিন্তু বাংলাদেশের নির্বাচন কমিশন বেশ কয়েকবার উদ্যোগ নিয়ে এখনও প্রবাসীদের জাতীয় পরিচয়পত্র প্রদান কিংবা ভোটাধিকার দিতে পারেনি। শুধু যেসব প্রবাসী দেশে গিয়ে ভোটার হয়েছেন তারাই পোস্টাল ভোটের মাধ্যমে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারবেন। এদিকে ভোট দিতে ইচ্ছুক প্রবাসীদের তালিকা নির্বাচন কমিশনে আলাদাভাবে জমা দেয়ার উদ্যোগ নিয়েছে প্রবাসীদের ভোটাধিকার বাস্তবায়নের দাবিতে কর্মরত অরাজনৈতিক সংগঠন প্রবাসী বাঙালি কল্যাণ সমিতি (প্রবাকস)। ভোট দিতে ইচ্ছুক প্রবাসীদের রিটার্নিং অফিসারের কাছে ডাকযোগে প্রদত্ত দরখাস্তের কপি প্রবাকসের কো-অর্ডিনেটর ওমর আলীর কাছে ২০শে ডিসেম্বরের মধ্যে ই-মেইলে ([email protected]) পাঠাতে হবে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

জামিনে মুক্তি পেয়েছেন মামুন হাসান

ইন্টারনেট প্যাকেজের মেয়াদ ৭ দিনের নিচে হবে না: বিটিআরসি

নির্বাচনের ফলকে কীভাবে দেখছেন ভারতীয় গবেষকরা?

কমলাপুর রেলস্টেশনে আগুন

মার্চে ডিএনসিসি ভোটের ইঙ্গিত দিলেন সিইসি

দ্বিতীয়বার ব্রেক্সিট গণভোট চান ৭১ লেবার এমপি

মুসলিম উম্মাহর একসঙ্গে থাকা উচিত: প্রধানমন্ত্রী

সীতাকুন্ডে তেলের ডিপোতে আগুন

টিআইবির বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করলেন সিইসি

এমপিদের শপথের বৈধতা চ্যালেঞ্জের রিটের আদেশ কাল

জাতীয় পার্টি শক্ত বিরোধীদলের ভুমিকা রাখবে: রাঙ্গা

সব জায়গায় শুদ্ধি অভিযান হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

কানাডায় পাল্টে যাওয়া জীবন সৌদি টিনেজার রাহাফের

রামগঞ্জে ৭দিন ধরে নিখোঁজ মাদ্রাসা ছাত্রী

ফখরুলের পদত্যাগ করা উচিত বলে মনে করেন কাদের

ঢাকা উত্তর সিটির উপনির্বাচন হতে আইনগত বাধা নেই