বাদ পড়লেন মায়া

প্রথম পাতা

স্টাফ রিপোর্টার, ঢাকা | ৮ ডিসেম্বর ২০১৮, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৮:৪৪
দলীয় মনোনয়ন পেলেন না দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া। গতকাল তার নির্বাচনী আসন চাঁদপুর-২-এ (মতলব উত্তর ও মতলব দক্ষিণ) চূড়ান্ত মনোনয়ন পেয়েছেন অ্যাডভোকেট নূরুল আমিন রুহুল। তিনি ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সহসভাপতি। প্রথম দলীয় মনোনয়ন পেয়েও চূড়ান্ত মনোনয়নে মায়ার বাদ পড়ার খবরে জেলাজুড়ে চলছে আলোচনা। কেন বাদ পড়লেন সরকারের হেভিওয়েট এ মন্ত্রী। এর হিসাব নিকাশ কষছেন স্থানীয় ভোটাররা। মুখে মুখে আলোচনা, তবে কি ছেলেদের বিতর্কিত কর্মকাণ্ড আর জামাতার সাত খুনে জড়িত থাকায় তার কপাল পুড়েছে। নাকি নিজের দুর্নীতির মামলার বিষয়টি বিবেচনা করেছে দলীয় হাইকমান্ড।
দুদকের মামলায় মায়ার বিরুদ্ধে যে ১৩ বছরের সাজা হয়েছিল, উচ্চ আদালত তাকে এই সাজা থেকে খালাস দেন। এ আসনে মনোনয়ন পাওয়া নূরুল আমিন রুহুল অবিভক্ত ঢাকা মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

তিনি ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির প্রচার সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। বিভক্ত ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের দক্ষিণ শাখার সহসভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন সাবেক এই ছাত্র নেতা। ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সহসভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন তিনি। ১৯৮৫ সালে ঢাকা মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি থাকায় এরশাদ সরকার পতন আন্দোলনে তার নেতৃত্বে ১৪৪ ধারা ভেঙে মিছিল হয়। পরে তিনি গ্রেপ্তার হন। এলাকায় দলীয় ও নির্বাচনী রাজনীতিতে আসতে চাইলেও কথিত আছে, মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া চাননি বলে তিনি এলাকার রাজনীতিতে সক্রিয় হতে পারেননি। জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়ে লড়াই করেন। তবে তাতেও বাদ সাধেন মায়া। প্রকাশ্যে রুহুলের বিরোধিতা করেন তিনি। যে কারণে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানও হতে পারেনি রুহুল। এবার জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনয়ন পেলেও তার পক্ষে মায়ার অবস্থান কেমন হবে এটাই এখন বড় প্রশ্ন।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Kazi

২০১৮-১২-০৭ ২০:১৭:৫৫

বিতর্কিত সদস্যকে সরাসরি বরখাস্ত করতে না পারলেও নেত্রী সঠিক সময়ে তাকে বাদ দিয়ে দলের শুদ্ধি অভিযান বাস্তবায়ন করেছেন। জনগণ আশা করি নেতৃর সিদ্ধান্ত মূল্যায়ন করবে। এভাবে বিতর্কিতদের মনোনয়নের সময় বাদ দিলে নির্বাচিত সদস্যরাও আচরণে নমনীয় থাকবে।

আপনার মতামত দিন

শিশুদের পার্ক নাকি ‘শিশু তৈরির পার্ক'

বরগুনায় ওরশ থেকে ধরে নিয়ে কিশোরীকে ধর্ষণ

দক্ষিণ আফ্রিকায় বাংলাদেশিকে শ্বাসরোধ করে হত্যা, গুলিবিদ্ধ-১

পাহাড়ে ভোটের নিরাপত্তায় ঘাটতি ছিল না: সিইসি

পীরগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩

বরগুনায় বিএনপির ৫ নেতা বহিষ্কার

জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৮.১৩ শতাংশ, মাথাপিছু আয় ১৯০৯ ডলার : অর্থমন্ত্রী

ফের নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের ডাক শিক্ষার্থীদের

অব্যাহতি চাওয়া হয়েছে কিনা জানতে চাইলেন খালেদা

অস্ট্রেলিয়া ভ্রমণেও সতর্কতা জারি

ঢাকার কোন রুটেই সুপ্রভাত বাস চলবে না: আতিকুল

ভিপি নুরের একাত্মতা, শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে আঘাত এলে দাঁতভাঙা জবাব

৮ দফায় অনড় বিইউপির শিক্ষার্থীরা

রাখাইন শীর্ষ নেতার ২০ বছরের জেল

ফরিদগঞ্জে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর বাড়ি থেকে অস্ত্র ও গুলি জব্দ

চিলমারীতে মৎস্যজীবীদের মাঝে দুর্গন্ধযুক্ত চাল বিতরণ, ক্ষোভ