ফেনীতে অপহরণ ও ধর্ষণ মামলার রায় যুবকের যাবজ্জীবন

অনলাইন

ফেনী প্রতিনিধি | ১৫ নভেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার, ১:২১ | সর্বশেষ আপডেট: ৬:০০
ফেনীর সোনাগাজীতে এক মাদরাসা ছাত্রীকে জোরপূর্বক অপহরণ ও ধর্ষণের ঘটনায় আবু সুফিয়ান নামের এক যুবককে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দিয়েছেন আদালত। একই মামলায় অপর দুই আসামী আবু সফিয়ানের বাবা আবুল বাশার ও মা বিবি মরিয়মকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়েছে । আসামীরা সবাই উপজেলার বগাদানা ইউনিয়নের নদনা গ্রামের বাসিন্দা। দীর্ঘ শুনানীর পর আজ বৃহস্পতিবার ফেনীর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুুনালের বিচারক মো. মামুনুর রশিদ এ আদেশ দেন।
রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনাকারী পাবলিক প্রসিকিউটার (পিপি) ফরিদ আহম্মদ হাজারী জানান, ২০১৩ সালে ১ আগষ্ট দুপুরে মাদরাসা থেকে বাড়ি যাওয়ার পথে সোনাগাজী উপজেলার বগাদানা ইউনিয়নের তাকিয়া বাজার এলাকা থেকে বখাটে আবু সুফিয়ানসহ কয়েকজন সহযোগী ওই ছাত্রীকে জোর করে সিএনজি চালিত অটোরিক্সায় তুলে অপহরণ করে। পরে তাকে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে ধর্ষণ করে।
এঘটনায় ছাত্রী বড় ভাই বাদী হয়ে তিনজনকে আসামী করে সোনাগাজী মডেল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে অপহরণ ও ধর্ষনের মামলা দয়ের করেন। ঘটনার কয়েকদিন পর পুলিশ অপহৃত ছাত্রীকে উদ্ধার ও অপহরনকারীসহ তিন আসামীকে গ্রেপ্তার করে। মামলার তিন আসামী কিছুদিন পর জামিনে বের হন।
মামলার তদন্ত শেষে ওই বছর ৪ অক্টোবর তিন আসামীকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দেয় পুলিশ।
এ মামলা দীর্ঘ বিচারকালে ছাত্রী নিজেসহ ১১জন স্বাক্ষী আদালতে তাদের সাক্ষ্য প্রদান করেন। দীর্ঘ শুনানীর পর আদালত এ মামলার রায় ঘোষণা করেন। মামলায় স্বাক্ষ্য প্রমানে দোষি স্বাব্যস্ত হওয়ায় আসামী আবু সুফিয়ানকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড প্রদান করা হয়। অপর দুই আসামী সুফিয়ানের বাবা ও মাকে মামলা থেকে খালাস প্রদান করেন আদালত।
রায় ঘোষণার সময় আদালতে তিন আসামী উপস্থিত ছিলেন। পরে দন্ডপ্রাপ্ত আসামী আবু সুফিয়ানকে কারাগারে প্রেরণ করা হয়।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Kazi

২০১৮-১১-১৫ ০২:১২:০৪

অপহরণে জড়িত তার সহযোগীদের বাদ দিয়ে মামলায় বাবা মাকে কেন আসামী করা হল। এ ধরনের কাজে কি তারা জড়িত ? বরং সহযোগীরা সাজা পেল না।

আপনার মতামত দিন

নিজ আসন থেকেই প্রচার শুরু করছেন শেখ হাসিনা

নির্বাচন পর্যবেক্ষণে আগ্রহী ৩৪,৬৭১ স্থানীয় পর্যবেক্ষক

উচ্চ আদালতে হাজারো জামিনপ্রার্থী, দুর্ভোগ

পরিস্থিতির উন্নতি না হলে নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন উঠবে

হাইকোর্টেও বিভক্ত আদেশ

সব দলকে অবাধ প্রচারের সুযোগ দিতে হবে

পাঁচ রাজ্যে বিজেপির ভরাডুবি

নোয়াখালীতে গুলিতে যুবলীগ নেতা নিহত

ভুলের খেসারত দিলো বাংলাদেশ

চার দলের প্রধান লড়ছেন যে আসনে

কোনো সংঘাতের ঘটনা ঘটেনি

সিলেটে মাজার জিয়ারতের মাধ্যমে ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচনী প্রচারণা শুরু আজ

দেশজুড়ে ধরপাকড়

টেকনোক্র্যাট মন্ত্রীদের চার মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব তিন জনের হাতে

আবারো বন্ধ হলো ৫৪টি নিউজ পোর্টাল

নারী প্রার্থীদের অঙ্গীকার