জাতীয় পার্টির আবেদন এখনো ফুরিয়ে যায়নি- রওশন এরশাদ

এক্সক্লুসিভ

স্টাফ রিপোর্টার | ১৬ অক্টোবর ২০১৮, মঙ্গলবার | সর্বশেষ আপডেট: ৪:৪৬
সাতাশ বছর ক্ষমতায় না থাকলেও জনগণের কাছে জাতীয় পার্টির আবেদন ফুরিয়ে যায়নি বলে মন্তব্য করেছেন দলটির জ্যেষ্ঠ কো-চেয়ারম্যান ও সংসদে প্রধান বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ। গতকাল গুলশানে ঢাকা মহানগর উত্তর জাতীয় পার্টি আয়োজিত এক যৌথসভায় বক্তব্যে তিনি এই দাবি করেন। অসুস্থতার কারণে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ সভায় উপস্থিত ছিলেন না। ২০শে অক্টোবর ঢাকার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জাতীয় পার্টির সমাবেশ নিয়ে সভায় আলোচনা করেন দলটির নেতারা। রওশন বলেন, আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপি অংশগ্রহণ না করলে জাতীয় পার্টি এককভাবে ৩০০ আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন এরশাদ। সে দিকটি মাথায় রেখে তৃণমূলে জাতীয় পার্টিকে সুসংগঠিত করার নির্দেশনা দিয়ে রওশন বলেন, জনগণ এখন জাতীয় পার্টির দিকে তাকিয় আছে। আমরা যদি তাদের প্রত্যাশা পূরণ করতে না পারি, তাহলে কীভাবে হবে? জাতীয় পার্টিকে আবার উঠে দাঁড়াতে হবে। ২০শে অক্টোবরের ব্যাপারে তিনি বলেন, যার যা কিছু আছে, তা নিয়ে মহাসমাবেশে আসতে হবে।
আগামীতে ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে। সভায় জাতীয় পার্টির কো চেয়ারম্যান জিএম কাদের নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বলেন, দেশবাসী এখন কট্টরভাবে দুই ভাগে বিভক্ত। নির্বাচনে যদি সব দল অংশগ্রহণ করে তবে আমরা জোটবদ্ধভাবেই নির্বাচন করব। তবে, সেখানে দর কষাকষির বিষয় আছে। সেখানে আমাদের শক্তি প্রদর্শনের বিষয়ও আছে। জনগণ এখন ক্ষমতার ভারসাম্য দেখতে চায়। যৌথ সভায় জাতীয় পার্টি ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি ও কেন্দ্রীয় সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য এসএম ফয়সল চিশতীর সভাপতিত্বে এই সভায় দলীয় মহাসচিব এবিএম রুহুল আমীন হাওলাদারও বক্তব্য রাখেন।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

বিশ্ব চিন্তাবিদদের তালিকায় শেখ হাসিনা

সমঝোতা ফেব্রুয়ারিতে ইজতেমা

ডাকসু নির্বাচন ১১ই মার্চ

বেসরকারি খাতে ঋণ প্রবৃদ্ধি তিন বছরের মধ্যে সর্বনিম্ন

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ২৩ কর্মকর্তা-কর্মচারীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে দুদকের চিঠি

এক বছরে যৌন নির্যাতনের শিকার ৮১২ শিশু

রাজধানীতে প্রকাশ্যে তরুণীকে নিয়ে টানাটানি শ্লীলতাহানির চেষ্টা

সুশাসনে অগ্রাধিকার দিচ্ছে বাংলাদেশের নতুন সরকার

নির্বাচনের অনিয়ম ও রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে আলোচনা হয়েছে

লক্ষ্মীপুরে রোগী দেখতে গিয়ে লাশ হলেন সাত জন

খালেদার জামিন আবেদন নিষ্পত্তির নির্দেশ

সরকারি কেনাকাটা হবে উন্মুক্ত দরপত্রে: অর্থমন্ত্রী

ছাত্রলীগ নেতাসহ ৯ জন রিমান্ডে

সাংবাদিকদের জন্য ফ্ল্যাট নির্মাণের চিন্তাভাবনা করছি

লিবিয়া উপকূল থেকে বাংলাদেশিসহ ৫০০ অভিবাসনপ্রত্যাশী উদ্ধার

বিকিনিতে বাংলাদেশি উপস্থাপিকা, বিতর্ক