বালাগঞ্জে পৃথক স্থানে ককটেল বিস্ফোরণ

বাংলারজমিন

বালাগঞ্জ (সিলেট) প্রতিনিধি | ১১ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৯:৩৯
বালাগঞ্জে পৃথক স্থানে ককটেল বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে। ২১শে আগস্টের গ্রেনেড হামলা মামলার রায়ের জের ধরে জনমনে আতঙ্ক সৃষ্টি করার জন্য বুধবার দিনগত রাত সাড়ে ৮টা থেকে ১১টার মধ্যে দুষ্কৃতকারীরা এসব ককটেল ফুটিয়েছে বলে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতারা দাবি করেছেন। রাতে সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ওসমানীনগর সার্কেল) মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম, বালাগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ এসএম জালাল উদ্দিন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। বালাগঞ্জ থানার পুলিশ ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতারা জানান, উপজেলার পশ্চিম গৌরীপুর ইউনিয়নের আজিজপুর বাজারে রাত পৌনে ৯টার দিকে একই সময়ে পৃথক ২টি স্থানে, রাত সাড়ে ৮টায় দেওয়ান বাজার ইউনিয়নের মোরারবাজারে এবং রাত ১০টায় মোরার বাজারের পার্শ্ববর্তী একটি বাড়ির সামনে ককটেল বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে। এছাড়া রাত সাড়ে ৮টার দিকে সিরাজপুর গ্রামস্থ এক আওয়ামী লীগ নেতার বাড়ির সম্মুখ এবং রাত ১১টায় এক সাবেক ছাত্রলীগ নেতার সুলতানপুরস্থ গ্রামের বাড়ির ফটকের বাইরে ককটেল বিস্ফোরণ ঘটেছে বলে আওয়ামী লীগ নেতারা দাবি করেছেন। তবে রাতের আঁধারে ককটেল বিস্ফোণের শব্দ শোনা গেলেও কেউ হতাহত হননি।

বিস্ফোরিত ককটেলের কোনো আলামতও পায়নি পুলিশ। সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ওসমানীনগর সার্কেল) মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম বলেন, তাৎক্ষণিক কাউকে চিহ্নিত করা যায়নি।
তদন্তের মাধ্যমে দুষ্কৃতকারীদের চিহ্নিত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। ॥

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

দলবেঁধে বিদেশ ভ্রমণ

টাকার মান কমানোর উদ্যোগ যা ভাবছেন বিশ্লেষকরা

ছাত্ররাজনীতি বন্ধ হওয়া উচিত

দুদক চেয়ারম্যানের পদত্যাগ করা উচিত

গণভবনে আবরারের বাবা-মা, দ্রুত বিচারের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

চার বড় ভাইকে নিয়ে সিলেটে নানা জল্পনা

ড. ইউনূসের গ্রেপ্তারি পরোয়ানা স্থগিত

পরিবেশ রক্ষা করেই সুন্দরবন এলাকায় উন্নয়ন হচ্ছে- সালমান এফ রহমান

বাংলাদেশে মতপ্রকাশের স্বাধীনতার অপরাধকরণ নিয়ে উদ্বেগ

শিশুর ওপর এ কেমন বর্বরতা!

ছাত্রলীগ থেকে অমিত সাহা বহিষ্কার

আবরারের ছবিতে ভিজেছে হাজারো চোখ

‘শিবির সন্দেহে আবরারকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়’

মিজান ও অমিত সাহা জানায়, আবরার শিবির করে

খোকন-শ্যামলসহ ছাত্রদলের অর্ধশতাধিক নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা

বিদেশি পর্যটকে মুখরিত হবে হাওর: প্রেসিডেন্ট