বৃহত্তর জাতীয় ঐক্যের দাবি ও লক্ষ্য চূড়ান্ত হচ্ছে আজ

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | ১১ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার
বৃহত্তর জাতীয় ঐক্যের দাবি ও লক্ষ্য চূড়ান্ত করতে আজ বৈঠকে বসছেন শীর্ষ নেতারা। বিএনপি, ঐক্য প্রক্রিয়া ও যুক্তফ্রন্টের নেতারা সন্ধ্যায় গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেনের বাসায় বৈঠকে মিলিত হবেন। বৈঠকের বিষয়ে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জেএসডি) সাধারণ সম্পাদক আবদুল মালেক রতন বলেন, বৃহত্তর ঐক্যের লক্ষ্যে বিএনপি, যুক্তফ্রন্ট ও জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার দাবি ও লক্ষ্যসমূহ সমন্বয় করে আজ বৈঠকে উপস্থাপন করা হবে। নেতাদের সম্মতি পেলে এই দাবি এবং লক্ষ্যের ভিত্তিতে বৃহত্তর ঐক্যের রূপরেখা ও কর্মসূচি চূড়ান্ত করা হবে। বিএনপি, যুক্তফ্রন্ট ও ঐক্য প্রক্রিয়ার দাবিগুলো সমন্বয় করলে সাত থেকে আটটি হতে পারে আর লক্ষ্য হতে পারে ১০ থেকে ১২টি। আজকের বৈঠকে এটি চূড়ান্ত হবে। সূত্র জানায়, জোটের নামের বিষয়েও আজ সিদ্ধান্ত আসতে পারে। নাম এবং দাবি ও লক্ষ্য চূড়ান্ত হলে তা আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা দেবেন নেতারা।
সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, আজকের বৈঠকে যুক্তফ্রন্টের চেয়ারম্যান ও সাবেক প্রেসিডেন্ট প্রফেসর ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরীর অংশ নেয়ার বিষয়টি নিয়ে ধোঁয়াশা রয়েছে। তবে তিনি অংশগ্রহণ না করলেও সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করতে কোনো বাধা হবে না। উল্লেখ্য, গত রোববার বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের গুলশানের বাসায় অনুষ্ঠিত বৈঠকে পাঁচ দফার ভিত্তিতে এক মঞ্চে কর্মসূচি দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়। পরের দিন জেএসডি সভাপতি আ স ম আবদুর রবের উত্তরার বাসায় দীর্ঘ বৈঠক করেন বিএনপি, যুক্তফ্রন্ট ও ঐক্য প্রক্রিয়ার নেতারা। ওই বৈঠকে জোটের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য সমন্বয় করতে জেএসডি সাধারণ সম্পাদক আবদুল মালেক রতন ও গণফোরামের আ অ ম শফিক উল্লাহকে দায়িত্ব দেয়া হয়।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

কিংবদন্তি নির্মাতা আমজাদ হোসেন আর নেই

পশ্চিম তীরে ইসরাইলি অভিযান, কয়েক ডজন ফিলিস্তিনি আটক

প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তির অভিযোগে দু’জন গ্রেপ্তার

মৌলভীবাজারে বিএনপি প্রার্থীর পক্ষে গণসংযোগে মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী

নতুন ইশতেহারে পুরনো প্রতিশ্রুতি জাপার

ধানের শীষ প্রতীকে প্রচারণা শুরু করলেন মন্টু

গানায় গলায় দড়ি লাগিয়ে সরিয়ে ফেলা হয়েছে গান্ধীর মূর্তি

বরগুনা জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গ্রেপ্তার

বগুড়ায় ফখরুলের নির্বাচনী প্রচারণা শুরু

পাবনায় চলন্ত ট্রেনের ছাদ থেকে পড়ে নিহত ৩

ড. কামালের গাড়িবহরে হামলা

যুবদল নেতাসহ ৯ নেতাকর্মী আটক

টেকনাফ ‘বন্ধুকযুদ্ধে’ ইয়াবা ব্যবসায়ী নিহত

বুদ্ধিজীবী স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা জানালেন প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রী

যা হচ্ছে তাতে খারাপ অবস্থার দিকেই যাচ্ছি আমরা

নির্বাচন ঘনিয়ে আসায় বেড়েছে দমনপীড়ন