আওয়ামী লীগের আনন্দ মিছিল

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | ১১ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার
একুশে আগস্ট মামলার রায় ঘোষণার পর আনন্দ মিছিল করেছেন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। গতকাল রায় ঘোষণার পর বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ের দলীয় কার্যালয়ের সামনে নেতাকর্মীরা জড়ো হয়ে মিছিল করেন। রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায়ও নেতাকর্মীদের মিছিল করতে দেখা যায়। রায়কে ঘিরে সকাল থেকে রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে অবস্থান নেয় স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের নির্দেশে তারা সতর্ক অবস্থানে ছিলেন। রায় ঘোষণার পর রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে মিছিল বের করেন দলের নেতাকর্মীরা। এদিকে রায়কে কেন্দ্র করে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সকাল থেকেই জড়ো হন আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে উপস্থিতি বাড়তে থাকে।
এসময় স্লোগানে স্লোগানে মুখর ছিল পুরো বঙ্গবন্ধু এভিনিউ। এদিকে সকাল থেকে আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কার্যালয়কে ঘিরে নেয়া হয়েছিলো কঠোর নিরাপত্তা। বিভিন্ন আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পাশাপাশি সাদা পোশাকের নিরাপত্তা রক্ষীরাও অবস্থান নেয়। কার্যালয়ের আশেপাশে অনেককে তল্লাশি করা হয়। এদিকে কার্যালয়ের সামনে স্লোগানের পাশাপাশি দলের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা ও ২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলায় আহত কয়েকজন কর্মী বক্তব্য রাখেন। সেখানে তারা পুরো ঘটনার জন্য বিএনপিকে দায়ী করে দলটিকে নিষিদ্ধ করার দাবি তোলেন। এসময় যুবলীগ সভাপতি ওমর ফারুক চৌধুরী বলেন, আমাদের দাবি বিএনপি নির্বাচন করতে পারবে না। বিএনপিকে নিষিদ্ধ করতে হবে। আমরা জাতিসংঘে যাবো, ইউরোপীয় ইউনিয়নের কাছে যাবো। দাবি জানাবো বিএনপিকে পরিহার করতে। তাদের কোনো গণতান্ত্রিক অধিকার নাই। এরা জঙ্গি সংগঠন। জঙ্গি সংগঠন দিয়ে রাজনীতি হয় না। তিনি আরো বলেন, রাজনীতিতে বিরোধিতা থাকবে, সমালোচনা থাকবে। প্রতিদিন সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলন হচ্ছে। এরপরও পুলিশ কাউকে রিমান্ডে নিয়েছে? বিএনপিকে কখনো উন্নয়নের কথা বলতে শুনেছেন? এই যে ক্রিকেটাররা প্রায়শই জয় ছিনিয়ে আনছে বিএনপি-জামায়াত কখনো শুভেচ্ছা বাণী দিয়েছে? এটা কী রাজনীতি? মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের সভাপতি ইসমাঈল হোসেন সম্রাট বলেন, তারেক জিয়ার ফাঁসির দাবিতে আন্দোলন চলবে। ঢাকা দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ বলেন, আমরা এই রায়ে সন্তুষ্ট না। এই রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে যাবো। মূল ষড়যন্ত্রকারী তারেক রহমানের যাবজ্জীবন নয়, ফাঁসি দাবি করেছিলাম। এসময় ২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলায় আহত অ্যাডভোকেট কাজী শাহানা ইয়াসমিন ও আওয়ামী লীগ নেত্রী রাশিদা আক্তার রোমা তারেক রহমানের ফাঁসি দাবি করেন। একই দাবি করেন ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আজিজুর রহমান বাচ্চু, কৃষক লীগের সভাপতি মোতাহার হোসেন মোল্লা, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের শ্রম ও জনশক্তি বিষয়ক সম্পাদক হাবিবুর রহমান সিরাজ, মুক্তিযোদ্ধা নুর হোসেন সহ আরো অনেকে। বক্তব্য শেষে দুপুরের পর বঙ্গবন্ধু এভিনিউ এলাকায় মিছিল করেন নেতাকর্মীরা।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

জবি ছাত্রলীগের কমিটি বিলুপ্ত

বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো বোয়িং ৭৩৭ ম্যাক্স ৮ আনছে ইউএস-বাংলা

গণতন্ত্র চাইলে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে

যশোরে ভাইয়ের হাতে বোন খুন

চবিতে ১৩ শিক্ষার্থীকে বহিষ্কার, ২ জনের সনদ স্থগিত

নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ হলে গণতন্ত্রও প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে যায়

সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্যদের শপথ কাল

‘বাংলাদেশ ব্যাংকের ইতিহাস’ বই বাজেয়াপ্ত করে সম্পাদককে তলব করেছে হাইকোর্ট

কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে যাওয়ার পথনির্দেশনা

শ্রীনগরে সাবেক সেনা কর্মকর্তার তৃতীয় স্ত্রীর লাশ উদ্ধার

ভারত হামলা চালালে প্রতিশোধ নেবে পাকিস্তান

আর কত বয়স হলে ভাতা পাবেন মযুরী বেগম?

ভারতীয় সেনাবাহিনীর হুঁশিয়ারি

সাঈদীর ছেলে মাসুদ সাঈদী কারাগারে

গণতন্ত্র এখন বিপদগ্রস্ত

আমিন ধ্বনিতে মুখরিত তুরাগ তীর