ফিক্সিংয়ের দায়ে নিষিদ্ধ হংকংয়ের তিন ক্রিকেটার

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক | ১১ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার
এবারের এশিয়া কাপের বাছাই পর্বের ফাইনালে স্বাগতিক আরব আমিরাতকে হারিয়ে মূল পর্বে খেলে হংকং। আর হংকংয়ের এই দলেই ছিল ম্যাচ ফিক্সিং করা খেলোয়াড়। আসরের গ্রুপ পর্বে ভারত ও পাকিস্তানের বিপক্ষে খেলে তারা। পাকিস্তানের বিপক্ষে সহজে হারলেও ভারতের সঙ্গে দুর্দান্ত লড়াই করে বিশ্ব ক্রিকেটের নবাগত দলটি। আর এশিয়া কাপ শেষ হতে না হতেই হংকংয়ের তিন ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের অভিযোগ আনলো আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সংস্থা (আইসিসি)। তিনজন হলে নাদিম আহমেদ, ইরফান আহমেদ এবং হাসিব আমজাদ। তিনজনের বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট ১৯টি অভিযোগ আনা হয়েছে। ইরফান ও নাদিম দুই ভাই।
হংকংয়ের এই তিন ক্রিকেটারই পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত। যদিও এশিয়া কাপে নয়, তাদের নামে ফিক্সিং করার অভিযোগ আনা হয়েছে ২০১৪ সালের জানুয়ারিতে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের ম্যাচে। এছাড়া নাদিম এবং ইরফান দুই ভাইয়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ এসেছে ২০১৬ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ফিক্সিং করারও।

ইরফানের বিরুদ্ধে অতিরিক্ত অভিযোগ। তার নামেই অভিযোগ আনা হয়েছে ৯টি। আইসিসি তিনজনকেই সাময়িকভাবে নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে। অভিযোগ সম্পর্কে একটি সিদ্ধান্তে না আসা পর্যন্ত নিষিদ্ধই থাকবেন তারা। আগামী দু’সপ্তাহের মধ্যে এই তিন ক্রিকেটারকে জবাব দিতে বলা হয়েছে আইসিসি’র পক্ষ থেকে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ভারতের কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কের গভর্ণর পদে এবার আমলা

ইসির সিদ্ধান্ত স্থগিত, নির্বাচন পর্যবেক্ষণে থাকবে অধিকার

সেনা মোতায়েনের তারিখ পেছানোর ষড়যন্ত্র চলছে

আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালিয়েছে: আফরোজা আব্বাস

দোহারে বিএনপির মিছিলে পুলিশের লাঠিচার্জ, প্রার্থীসহ আটক ১০ (ভিডিও)

পুলিশ প্রটোকলে আইনমন্ত্রীর গণসংযোগ

যত বাধাই আসুক নির্বাচনে থাকব

নির্বাচন কমিশনের ভূমিকা নির্মোহ ও নিরপেক্ষ: এইচ টি ইমাম

আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কার হয়ে রিকশাচালককে মারধরকারী নারী যা বললেন

‘২০১৪-তে মানুষ ভোট দিয়েছে বলেই বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের রোল মডেল’

টাইমের বর্ষসেরা ব্যক্তিত্বের তালিকায় শহিদুল আলম

সিলেটে ঐক্যফ্রন্টের পথসভায় বাধা, মাইক খুলে নিয়েছে পুলিশ

নির্বাচনে অংশ নিতে পারবেন বিএনপির তমিজ উদ্দিন

‘ইসিতে অভিযোগ জানিয়ে ফেরার পথে বিএনপি নেতা আটক’

ডিসিদের রিটার্নিং কর্মকর্তা নিয়োগ কেন অবৈধ নয়

আজই অনাস্থা ভোটের মুখে পড়ছেন তেরেসা মে