৫ দিনে অপারেটর বদলের আবেদন ১০ হাজার

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ৯ অক্টোবর ২০১৮, মঙ্গলবার, ৭:০৫
মোবাইল নম্বর ঠিক রেখে অপারেটর পরিবর্তনের সেবা (এমএনপি) চালুর ৫ দিনের মধ্যে আবেদন করা হয়েছে ১০ হজার ১২২টি। এ সময়ের মধ্যে সবচেয়ে বেশি অপারেটর বদল করেছে গ্রামীণফোনের গ্রাহক। অপারেটর বদল করে সবচেয়ে বেশি গ্রাহক এসেছে রবি আজিয়াটাতে। মোবাইল নম্বর পোর্টেবিলিটি (এমএনপি) চালু হয়েছে ১ অক্টোবর। গতকাল এক পরিসংখ্যানে এসব তথ্য প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ সংস্থা (বিটিআরসি)। পরিসংখ্যানে বলা হচ্ছে, আবেদনগুলোর মধ্যে সফল হয়েছে চার হাজার ১৮১টি এবং বাতিল হয়েছে পাঁচ হাজার ৮৬২টি। পাঁচ দিনে গ্রামীণফোনের মোট চার হাজার ৬১৬ জন গ্রাহক অপারেটর বদলের আবেদন করেছে। এর মধ্যে সফল হয়েছে এক হাজার ৮৩৪টি এবং বাতিল হয়েছে দুই হাজার ৭৮২টি।  গ্রামীণফোন থেকে রবিতে মোট আবেদন এসেছে এক হাজার ৭৭০টি।
এর মধ্যে সফল হয়েছে এক হাজার ৩৫৬টি এবং বাতিল হয়েছে ৪১৪টি।

গ্রামীণফোন থেকে বাংলালিংকে মোট আবেদন করেছে এক হাজার ২৪১টি। এর মধ্যে সফল হয়েছে ৪৫০টি এবং বাতিল হয়েছে ৭৯১টি। গ্রামীণফোন থেকে টেলিটকে আবেদন করেছে ৪৪ জন গ্রাহক। এর মধ্যে সফল হয়েছে ২৮টি এবং বাতিল হয়েছে ১৬টি। সবচেয়ে কম অপারেটর বদল করেছে সরকারি অপারেটর টেলিটকের গ্রাহকরা। পাঁচ দিনে মোট ৭০৯ জন গ্রাহক অপারেটর বদলের জন্য আবেদন করেছে। এর মধ্যে সফল হয়েছে ১৩০টি এবং বাতিল হয়েছে ৫৭৯টি। সবচেয়ে বেশি অপারেটর বদলের আবেদন পেয়েছে রবি। পাঁচ দিনে রবির কাছে মোট আবেদন এসেছে পাঁচ হাজার ৮৯১টি। এর মধ্যে সফল হয়েছে দুই হাজার ৩৪১টি এবং বাতিল হয়েছে তিন হাজার ৫৫০টি। রবিতে গ্রামীণফোন থেকে এসেছে এক হাজার ৩৫৬ জন গ্রাহক, বাধাগ্রস্থ হয়েছে এক হাজার ৯৭৫ জন। বাংলালিংক থেকে এসেছে ৯২৬ জন গ্রাহক, বাধাগ্রস্থ হয়েছে এক হাজার ২৫৩ জন। টেলিটক থেকে এসেছে ৮২ জন গ্রাহক, বাধাগ্রস্থ হয়েছে ৩২২ জন।  প্রসঙ্গত, অপারেটর পরিবর্তন করতে নম্বর প্রতি ফি ৫৭ টাকা ৫০ পয়সা (ভ্যাটসহ)।

নম্বর ঠিক থাকলেও নিতে হবে নতুন সিম কার্ড। এ জন্য লাগবে সিম পরিবর্তন বা রিপ্লেসমেন্ট কর ১০০ টাকা। অর্থাৎ গ্রাহককে দিতে হবে ১৫৭ টাকা ৫০ পয়সা। তবে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সেবা চালু করতে গ্রাহককে আরও ১০০ টাকা বাড়তি দিতে হবে। এর সঙ্গে যোগ হবে ১৫ শতাংশ ভ্যাট। নতুন সিমে এই সুবিধা চালু হতে সময় লাগবে সর্বোচ্চ ৭২ ঘণ্টা। সেবা গ্রহণের পরবর্তী ৯০ দিন পর্যন্ত অপারেটর পরিবর্তন করা যাবে না। বর্তমানে বিশ্বের প্রায় ৭২ দেশে এ সেবাটি চালু রয়েছে। প্রতিবেশী দেশ ভারতে ২০১১ সালে এবং পাকিন্তানে এই সেবা ২০০৭ সাল থেকে চালু রয়েছে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

কিশোরিদের বাল্যবিবাহ না করার শপথ

বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত ৪৯ নারী এমপি

৫৫ দিন ধরে বেডরুমে মায়ের মৃতদেহ লুকিয়ে রেখে ধরা পড়ল মেয়ে

ঘুম থেকে দেরি করে উঠলে কি হয়?

ভারত-পাকিস্তান উত্তেজনা তুঙ্গে, যুদ্ধের আশঙ্কা

কেজির দরে প্রাথমিকের বই

৪৭ বছর পর ক্ষমা চাওয়ার বিষয় কেনো এলো?

শপথ নিলেন সৈয়দ আশরাফের বোন

সৌদি ক্রাউন প্রিন্সের পাকিস্তান সফর বিলম্বিত

আজিমপুর-ধানমন্ডি-মোহাম্মদপুর-মিরপুরে ২৪ ঘণ্টা গ্যাস সরবরাহ বন্ধ

সি জিনপিংয়ের বৈশ্বিক স্বপ্নে বাধা

ইয়াবা ও অস্ত্র জমা দিয়ে ১০২ মাদক ব্যবসায়ীর আত্মসমর্পণ

নাটোরে অগ্নিকান্ডে সর্বশান্ত দিনমজুর

রূপপুর প্রকল্পে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে রাশিয়ান নাগরিকের মৃত্যু

‘মিয়ানমার বাংলাদেশের সার্বভৌমত্বের ওপরে আঘাত করেছে’

কবি আল মাহমুদের মৃত্যুতে মির্জা ফখরুলের শোক