জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলা

পরবর্তী শুনানি আগামীকাল, আইনজীবী না থাকায় আদালতের উষ্মা

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, মঙ্গলবার, ৩:১৯
জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় যুক্তিতর্কের শুনানির জন্য আগামীকাল বুধবার দিন ধার্য করেছেন আদালত। আজ ঢাকার পঞ্চম বিশেষ জজ আদালতের বিচারক ড. মো. আখতারুজ্জামান শুনানি নিয়ে এ আদেশ দেন। আজ খালেদা জিয়ার পক্ষে তার আইনজীবীরা জামিন বর্ধিতকরনের আবেদন করলে আদালত তা মঞ্জুর করেন। আজ নাজিমউদ্দিন রোডের পরিত্যাক্ত কারাগারের এই বিশেষ আদালতে খালেদা জিয়ার পক্ষে মাসুদ আহমেদ তালুকদার ছাড়া আর কোনো আইনজীবী উপস্থিত ছিলেন না। বিরতির পর বিএনপির চেয়ারপারসনের আইনজীবীরা আদালতে না থাকায় উষ্মা প্রকাশ করে আদালত অন্য আইনজীবীদের উদ্দেশ্যে বলেন, জামিন নিয়েই চলে তারা চলে গেল। আপনারা বিচারকাজকে বিলম্বিত করছেন।

আপনারা শুধু জামিনের জন্য আসেন। এর আগে সোমবার এই মামলার দুই আসামি জিয়াউল ইসলাম মুন্না ও মনিরুল ইসলাম খান আইনজীবীদের মাধ্যমে আদালতের প্রতি অনাস্থা জানান। এরপরপরই জিয়ার ইসলাম মুন্নার জামিন বাতিল করে তাকে কারাগারে  পাঠনোর আদেশ দেন আদালত।
এ বিষয়ে আগামীকাল আদেশ দেবেন বলে জানান আদারতের বিচারক। আজ শুনানিতে দুদকের আইনজীবী মোশাররফ হোসেন কাজল বলেন, এই আদালতের কার্যক্রম নিয়ে ভেতরে বাইরে ষড়যন্ত্র হচ্ছে। আসামিপক্ষের আইনজীবীরা আদালতকে সহযোগিতা করছেন না। একটি গুমোট অবস্থা তৈরি হয়েছে। যদি আসামিপক্ষের আইনজীবীরা না আসেন এবং যুক্তিতর্কের শুনানি না করেন তাহলে আইন তার নিজস্ব গতিতে চলবে। রায়ের জন্য দিন ধার্য করা হোক।

খালেদা জিয়ার আইনজীবী মাসুদ আহমেদ তালুকদার বলেন, খালেদা জিয়া গুরুতর অসুস্থ। তার চিকিৎসার বিষয়ে ইতিমধ্যে আইজি প্রিজনের বক্তব্য পাওয়া গেছে। সম্ভবত দু একদিনের মধ্যে তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হবে। তার অনুপস্থিতিতে এই আদালতে বিচার কার্যক্রমকে চ্যালেঞ্জ করে উচ্চ আদালতে আবেদন করা হবে জানিয়ে শুনানি মুলতবির আবেদন করেন মাসুদ আহমেদ তালুকদার। দুপুর ১২টা ২০ মিনিটের দিকে আদালতের বিচারক খালেদা জিয়ার জামিন বর্ধিতকরণের আদেশ দেন এবং বিরতির পর যুক্তিতর্কের শুনানি শুরুর আদেশ দেন। তবে, বিরতির পর খালেদা জিয়ার কোন আইনজীবী না থাকায় আদালত উষ্মা প্রকাশ করেন।

এসময় আসামি মনিরুল ইসলামের আইনজীবী ড. মো. আখতারুজ্জামান আদালতকে জানান বিএনপির চেয়ারপারসনের আইনজীবীদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলায় তারা হাইকোর্টে জামিনের জন্য গিয়েছেন। এ মামলার অন্য আসামি জিয়াউল ইসলাম মুন্নার পক্ষে আদালতে আজ কোন আইনজীবী ছিলেন না। 



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

এমন নির্বাচন হওয়া উচিত যাতে বৈধতার সংকট থেকে শাসনব্যবস্থা মুক্ত হয়

সেপ্টেম্বরে খাসোগি হত্যার নীলনকশা তৈরি হয়

খালেদা জিয়ার যাবজ্জীবন কারাদণ্ড চায় দুদক

মানহানির মামলায় মইনুল হোসেন কারাগারে

মইনুলকে গ্রেপ্তার জরুরি ছিল- কাদের

ঢাবি’র ‘ঘ’ ইউনিটের উত্তীর্ণদের নিয়ে আবার পরীক্ষা

সরকারের সাম্প্রতিক পদক্ষেপে ড. কামালের উদ্বেগ

সেলিম ওসমানকে অব্যাহতি

কোটা আন্দোলনের চার নেতাকে ছাত্রলীগের মারধর

জয়-পরাজয়ে অন্তরায় কোন্দল

পার্বত্য অঞ্চলের শান্তিতে হুমকি ৯৬৯-এর তৎপরতা

সিলেটে রাতে ধরপাকড়ের অভিযোগ

সিলেটে মাজার জিয়ারতে ঐক্যফ্রন্টের নেতারা ( ভিডিও)

এবার মোবাইল অ্যাপ দেবে অ্যাম্বুলেন্সের সন্ধান

মধ্যরাতে তরুণীর সঙ্গে পুলিশের অশোভন আচরণ ব্যবস্থা নেয়ার সুপারিশ

সৌদিতে ‘যৌনদাসী’ হিসেবে বিক্রি হচ্ছে বাংলাদেশি নারীরা