শান্তির বাংলাদেশ গড়তে আমরা এখানে উপস্থিত হয়েছি

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, শনিবার, ৩:৫৮ | সর্বশেষ আপডেট: ৪:৪৬
শান্তির বাংলাদেশ গড়ার জন্য আমরা সকলে এখানে উপস্থিত হয়েছি বলে
মন্তব্য করেছেন গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন।  আজ বিকালে রাজধানীর মহানগর নাট্যমঞ্চে জাতীয় ঐক্যের নাগরিক সমাবেশে স্বাগত বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। তিনি বলেন,  আপনারা অনেক কষ্ট করে এখানে হাজির হয়েছেন। এই জন্য আমি আপনাদের অভিনন্দন জানাই।  

আমরা এমন এক সময় এখানে উপস্থিত হয়েছি যখন দেশে গণতন্ত্র নেই। জনগণ উদ্বেগ উৎকন্ঠার মধ্যে রয়েছে। জনগণের জানমালের নিরাপত্তা নেই।  দেশে কার্যকর গণতন্ত্র নেই। দুর্নীতি ও দুঃশাসনে ভরে গেছে দেশ। যখন দেশ থেকে দুর্নীতি ও দুঃশাসন দূর হবে তখন বাংলাদেশে শান্তি দৃশ্যমান হবে।


তিনি বলেন, জনগণ সকল ক্ষমতার মালিক। জনগণের মত প্রকাশের অধিকার প্রতিষ্ঠিত হতে হবে। সেই লক্ষ্যে সুস্পষ্ট ঘোষণা প্রণয়ণের জন্য আমরা এখানে একত্রিত হয়েছি। এখানে অনেক নেতা উপস্থিত হয়েছেন। আশা করি জনগণকে অনুপ্রেরিত করে বক্তব্য পেশ করবেন তারা।

প্রোগ্রামের শুরুতে শ্লোগান ও বসার জায়গা সংকটে বিশৃঙ্খলা তৈরি হয়। অনুষ্ঠান পরিচালক বিশৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থ হলে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ওঠে গিয়ে বলেন - আমরা জাতীয় ঐক্যের অনুষ্ঠানে অতিথি হয়ে এসেছি। শ্লোগান বন্ধ করে সুশৃঙ্খলভাবে অবস্থান করে সহযোগিতা করবেন অনুষ্ঠান সুন্দরভাবে পরিচালনার জন্য। পরে নেতাকর্মীরা শান্ত হয়।

জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার সদস্য সচিব আ ব ম মোস্তফা আমিনের পরিচালনায় ও ড. কামাল হোসেনের সভাপতিত্বে মঞ্চে উপস্থিত রয়েছেন - বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, ড. আবদুল মঈন খান, ভাইস চেয়ারম্যান নিতাই রায় চৌধুরী। এছাড়া ব্যারিস্টার মঈনুল হোসেন,  মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা মহসিন মন্টু, আওয়ামী লীগের সাবেক সংগঠনিক সম্পাদক সুলতান মনসুর আহমদ, গণফোরামের কার্যকরী সভাপতি সুব্রত চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত রয়েছেন।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Saiful

২০১৮-০৯-২২ ০৮:৪০:৩৩

এইসব দালাল আর যরযন্তকারীদের দিয়ে দেশে শান্তি ফিরবে না। এগুলো পঁচা বাসি যার। নতুন নেতৃত্ব লাগবে।

Bipresh

২০১৮-০৯-২২ ০৪:০৪:৩৬

অধিক সনন্যাসীতে ,,,ন ষ্ঠ।

Nowroj Ahmed

২০১৮-০৯-২২ ০৩:৫১:৪৬

It is the last chance for Dr. Kamal Hossain to be the president of Bangladesh. We are delighted to see him active in politics. As he has no popular support, he has to depend on BNP for his success. Will he BNP support him to implement his agenda? There is every doubt that he will be a puppet in the hand of BNP.

আপনার মতামত দিন

নাটক করছে ঐক্যফ্রন্ট

হাসপাতালে যেমন আছেন খালেদা

ইমরুলের ব্যাটে বঞ্চনার ‘জবাব’

অবাধ ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের তাগিদ

মইনুলের বিরুদ্ধে দুই মামলা, জামিন

অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন উদ্বেগ প্রশমিত করতে পারে

দেশে ৩ কোটি মানুষ দরিদ্র এক কোটি হতদরিদ্র

আড়াইহাজার ও রূপগঞ্জে ৫ যুবকের গুলিবিদ্ধ লাশ

স্টেট ডিপার্টমেন্টের সর্বোচ্চ সম্মাননা পেলেন বার্নিকাট

ভোটের হাওয়া ভোটারের চাওয়া

তরুণদের কাছে ভোট চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

আমীর খসরু কারাগারে

প্রেসিডেন্টের সঙ্গে সাক্ষাতের পর তফসিল: ইসি সচিব

সড়কে সেই আগের চিত্র

পররাষ্ট্র দপ্তরের সর্বোচ্চ সম্মাননা পেলেন বার্নিকাট

প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন কাল