গোপন ক্যামেরায় ৩৪ নারীর স্নানের দৃশ্য ধারণ, অতপরঃ...

রকমারি

অনলাইন ডেস্ক | ১০ আগস্ট ২০১৮, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:১১
অবাক করার মতো এই ঘটনাটি ঘটেছে নিউজিল্যান্ডে।  সেখানকার এক নাগরিক নিজের গেস্টহাউসে আসা নারীদের স্নানঘরের দৃশ্য গোপন ক্যামেরায় ধারণ করতেন। আর এ জন্য ব্যবহার করতেন শ্যাম্পুর বোতল। শ্যাম্পুর  বোতলে গোপনে ক্যামেরা লাগিয়ে রেখে দিতেন স্নানঘরে। নারী অতিথিরা নিরাপদ ভেবে  ঘরে প্রবেশ করলেই তা রেকর্ড হয়ে যেত। অবশেষে  নিউজিল্যান্ডের এই নাগরিক ধরা পড়েছে। নিউজিল্যান্ডের নর্থ আইল্যান্ডের হকস বে এলাকার ঘটনা এটি।

বিবিসি আরও জানায়, পুলিশের হাতে ধরা পড়া অভিযুক্ত ব্যক্তি আদালতে দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন। দোষী সাব্যস্ত এই ব্যক্তির বিরুদ্ধে অভিযোগ, ২০১৭ সালের ডিসেম্বর থেকে ২০১৮ সালের ফেব্রুয়ারি মাস পর্যন্ত গোপনে ৩৪ নারীর ২১৯টি ভিডিও চিত্র ধারণ করেন তিনি। গোপন ক্যামেরায় ধারণ করা এসব ভিডিও চিত্র একটি পর্নো সাইটে আপলোড করেছিলেন ওই ব্যক্তি।
কিছু ভিডিও চিত্রের ক্ষেত্রে লিখিত বর্ণনাও দেওয়া হয়েছিল। প্রতারণার শিকার নারীদের বেশির ভাগের বয়স ৩০ বছরের নিচে। জানা গেছে, গেস্টহাউসে থাকা কোনো নারী স্নানঘরে ঢুকলেই রিমোট কন্ট্রোলের মাধ্যমে শ্যাম্পুর বোতলে থাকা ক্যামেরা চালু করতেন ওই ব্যক্তি। পরে সুযোগমতো শ্যাম্পুর বোতল সরিয়ে নিয়ে ভিডিও চিত্রগুলো কম্পিউটারে রেখে দিতেন।

এই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তারের পর থেকেই নিউজিল্যান্ডের পুলিশ পর্নো সাইটে আপলোড করা ভিডিও চিত্রগুলো মুছে ফেলতে শুরু করে। দোষী সাব্যস্ত ব্যক্তির স্ত্রী শারীরিকভাবে অসুস্থ থাকায় তার পরিচয় ও নাম প্রকাশ না করার জন্য আদালতে অনুরোধ জানিয়েছেন তার আইনজীবী। ইতিমধ্যেই ভিডিওগুলো মুছে ফেলতে শুরু করেছে সে দেশের পুলিশ। চূড়ান্ত রায়ে অভিযুক্ত ব্যক্তির সর্বোচ্চ ১৪ বছরের কারাদন্ড হতে পারে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

পাকিস্তানকে ভেঙে ৩ টুকরো করার পরামর্শ রামদেবের, বেলুচিস্তানের বিদ্রোহীদের অস্ত্র দেয়ার আহ্বান

বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ২২ উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত

মুখোমুখি মোদি-ইমরান

যে কারণে পাকিস্তান থেকে সরাসরি ভারত গেলেন না সালমান

সড়কে শৃঙ্খলা ফেরানোর কমিটি প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়

‘বাংলাদেশ ব্যাংকের ইতিহাস’ বাজার থেকে সরানোর নির্দেশ হাইকোর্টের

তুরাগতীরে ফরিয়াদ

ঐক্যফ্রন্টের গণশুনানি শুক্রবার

৭ বিলিয়ন ডলার ঋণের অধীনে ‘কানেকটিভিটি’

নতুন বাজারে বাড়ছে পোশাক রপ্তানি

সরগরম ক্যাম্পাস প্রথম দিন মনোনয়নপত্র নেননি আলোচিত কেউ

করবিনের সাদামাটা জীবন

নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ হলে গণতন্ত্রও প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে যায়

মাদক রুট, তদন্তে ঢাকায় আসছেন শ্রীলঙ্কান গোয়েন্দারা

সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বাড়ানোর তৎপরতা নেই

আমরা প্রেসের ফ্রিডমকে ইউকে’র পর্যায়ে নিতে চাই