ইবি নিয়োগ বাণিজ্য পদ হারালেন দুই শিক্ষক

শিক্ষাঙ্গন

ইবি প্রতিনিধি | ১৬ জুলাই ২০১৮, সোমবার
নিয়োগ বাণিজ্যের অভিযোগে প্রশাসনিক পদ হারালেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের অভিযুক্ত দুই শিক্ষক। রেকর্ড ফাঁস হওয়ায় ড. আজাদকে বঙ্গবন্ধু হল প্রভোস্ট এবং ড. বিকুলকে টিএসসিসির পরিচালকের পদ থেকে সাময়িক অব্যাহতি দিয়েছে প্রশাসন। আজ সোমবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে রেজিস্ট্রার স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সূত্র মতে, প্রভাষক পদে নিয়োগ পাইয়ে দেবার নামে ২০ লক্ষ টাকা লেনদেনের অভিযোগে তদন্ত কমিটি করেছিল প্রশাসন। তবে অভিযুক্ত ড. শাহাদৎ হোসেন আজাদ এবং ড. বাকী বিল্লাহ বিকুলকে প্রশাসনিক পদ থেকে ওএসডি না করায় বিতর্ক শুরু হয়। এ নিয়ে মানবজমিনে সংবাদ প্রকাশ হয়। পরে বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে ড. আজাদকে বঙ্গবন্ধু হলের প্রভোস্টের দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়। তার অবর্তমানে হলের হাউস টিউটর ও ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক বখতিয়ার হাসানকে প্রভোস্টের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। একই সাথে ড. বিকুলকে বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান মিলনায়তন কেন্দ্রের পরিচালকের দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে।
তদন্ত কাজে স্বচ্ছতার জন্য তাদের অব্যাহতি দেয়া হয়েছে বলে বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়। তদন্ত কমিটির প্রতিবেদন অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার এস, এম আব্দুল লতিফ বলেন, নিয়োগ বাণিজ্যের অডিও ফাঁসের ঘটনায় তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি কাজ করেছে। এই তদন্ত কাজে স্বচ্ছতা আনতে অভিযুক্ত শিক্ষকদের প্রশাসনিক দায়িত্ব হতে বিরত রাখার সিন্ধান্ত গ্রহণ করেছে প্রশাসন।




এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

দাঁড়িয়ে থাকা ট্রাককে অন্য ট্রাকের ধাক্কা, নিহত ২

পারমাণবিক অস্ত্র উৎপাদন বৃদ্ধির ঘোষণা ট্রাম্পের

সীমান্ত অস্ত্রমুক্ত করতে সম্মত দুই কোরিয়া

হাতিরঝিলে মোটরসাইকেল থেকে ছিটকে পড়ে যুবকের মৃত্যু

রেলস্টেশনে ৭ ঘন্টা ধরে দু’পক্ষের গোলাগুলি

‘তার কথা, গান ও স্মৃতিগুলো ভেসে আসছে বার বার’

মিয়ানমারের পাঁচ জেনারেলের ওপর অস্ট্রেলিয়ার নিষেধাজ্ঞা

কে এই কাহতানি

খাসোগিকে মারবে ভেবে ‘বডি ডাবল’ নিয়ে আসে সৌদি ঘাতক দল!

সৌদি আরবের সঙ্গে অস্ত্র চুক্তি ছিন্ন করলো জার্মানি

কাতার এয়ারওয়েজের জরুরি অবতরণ

ব্যারিস্টার মইনুল হোসেন গ্রেপ্তার

ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশে বিপুল লোকসমাগমের প্রস্তুতি বিএনপির

চট্টগ্রাম ও সিলেটে বিএনপি নেতাকর্মীদের ধরপাকড়

মন্ত্রিসভা ছোট না করার ইঙ্গিত প্রধানমন্ত্রীর

অবাধ, বিশ্বাসযোগ্য ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের বার্তা দিয়েছি