পলাশে স্কুলছাত্রীকে হাত-পা বেঁধে ধর্ষণ

বাংলারজমিন

পলাশ (নরসিংদী) প্রতিনিধি | ১৬ জুলাই ২০১৮, সোমবার
পলাশে বিদ্যালয়ে যাওয়ার পথে ৫ম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে তুলে নিয়ে হাত-পা বেঁধে ধর্ষণের ঘটনায় ধর্ষক আবু তাহেরকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে পলাশ উপজেলার চরসিন্দুর ইউনিয়নের চলনা গ্রামে ওই ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটে। আটককৃত আবু তাহের চলনা গ্রামের মৃত আলাউদ্দিনের ছেলে।
পুলিশ জানায়, শনিবার দুপুর ১২টার দিকে বিদ্যালয়ে যাওয়ার পথে চলনা গ্রামের আবু তাহের পিছন দিক থেকে ওই শিশু শিক্ষার্থীর মুখ চেপে ধরে ঘরে নিয়ে যায়। বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে এ সময় শিশুটির গায়ের ওড়না ও দড়ি দিয়ে শিশুটিকে বেঁধে ধর্ষণ শেষে ছেড়ে দেয়। আহতাবস্থায় শিশুটি বাড়িতে পৌঁছলে অভিভাবকরা পলাশ থানায় খবর দেয়। পরে পুলিশ ধর্ষণের শিকার শিশুটিকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে পাঠায়। পরে শনিবার রাতে শিশুটিকে নরসিংদী সদর হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।
এই ঘটনায় শনিবার রাতেই শিশুটির মা বাদী হয়ে পলাশ থানায় আবু তাহেরকে আসামি করে একটি মামলা করেন। পলাশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইদুর রহমান জানান, আটকের পর আবু তাহেরকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করলে আবু তাহের ধর্ষণের ঘটনা স্বীকার করে। তার জবানবন্দি রেকর্ড করার জন্য তাকে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। এদিকে এই ঘটনায় ধর্ষকের উপযুক্ত বিচারের দাবি জানিয়েছেন শিশুটির পরিবার। এ ছাড়া শিশুটির পরিবারকে আইনি সহযোগিতা সহ সব ধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন পলাশ উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা ভাস্কর দেবনাথ বাপ্পি ও উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা রওশন আরা।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

নিরাপত্তার অভাবে এলাকা ছাড়লেন রেজা কিবরিয়া

হামলার বিচার চেয়ে লতিফ সিদ্দিকীর অবস্থান

নির্বাচনের আগে চারটি জনসভা করবেন শেখ হাসিনা

ভারতীয় নেতারা বিজয় দিবসে মুক্তিযোদ্ধাদের স্বীকৃতি দেননি

নির্বাচন না হওয়ার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে

অভিযোগের প্রতিকার নেই ইসিতে

নির্বাচনে বলপ্রয়োগ গ্রহণযোগ্য হবে না

পরিস্থিতি নো ইলেকশনের দিকেই যাচ্ছে

হাসিনা না খালেদা ভারতের উভয় সংকট

ঐক্যফ্রন্টের শোভাযাত্রায় জনতার ঢল

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের ইশতেহার আজ

নির্বাচনকে সামনে রেখে ভারত থেকে আসছে অস্ত্র

ভারতীয় নেতারা বিজয় দিবসে মুক্তিযোদ্ধাদের স্বীকৃতি দেন নি

বিজয় দিবসে দেশ গড়ার দৃপ্ত শপথ

সাতক্ষীরায় ধানের শীষ প্রার্থী নজরুল গ্রেপ্তার

'ধানের শীষে ভোট মানেই ৩০ লাখ শহীদের হত্যাকারীদের পক্ষে ভোট'