গণ-পরিবহনে যৌন হয়রানি করলে রুট পারমিট বাতিল

দেশ বিদেশ

সংসদ রিপোর্টার | ১২ জুলাই ২০১৮, বৃহস্পতিবার
গণ-পরিবহনে যৌন হয়রানির শিকার হলে সেই গাড়ির রুট পারমিট বাতিল করার মতো শাস্তির ব্যবস্থা আছে বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, এরইমধ্যে এ সংক্রান্ত অপরাধে একটি গাড়ির রুট পারমিট বাতিল করা হয়েছে। গণ-পরিবহনে নারীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে অধিক গাড়ি নামানো হচ্ছে। সরকারি উদ্যোগের পাশাপাশি বেসরকারি উদ্যোগেও বেশ কিছু গাড়ি নামানো হয়েছে। তাছাড়া গণ-পরিবহনে যৌন হয়রানির বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনায় নিয়ে পেশাদার ড্রাইভিং লাইসেন্স নবায়নের পূর্বে চালকদের সতর্ক করা হচ্ছে। গতকাল সংসদ অধিবেশনে জাসদ দলীয় সংরক্ষিত আসনের সদস্য বেগম লুৎফা তাহেরের ৭১ বিধিতে উত্থাপিত নোটিশের জবাবে মন্ত্রী একথা বলেন। যোগাযোগমন্ত্রী বলেন, গণ-পরিবহনে নারীর ভোগান্তি দূর করতে নারীদের চলাচল নিরাপদ ও নিশ্চিত করার জন্য বিআরটিএ প্রায়ই সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করে। এ কার্যক্রম অব্যাহত আছে।
তাছাড়া গণ-পরিবহনে নারী ও প্রতিবন্ধীদের নিরাপদে যাতায়াতের জন্য প্রতিটি বাসে ৯টি আসন সংরক্ষিত রয়েছে। এছাড়া পেশাদার মোটরযান চালকদের ড্রাইভিং লাইসেন্স নবায়নের পূর্বে বিআরটিএ কর্তৃক বাধ্যতামূলক প্রশিক্ষণের সময় যৌন নিপীড়নের প্রতিরোধের বিষয়ে সচেতন ও সতর্ক করা হচ্ছে। যেসব গণ-পরিবহনে যৌন হয়রানি হচ্ছে, সেগুলো চিহ্নিত করে রেজিস্ট্রেশন ও রুট পারমিট বাতিলের ব্যবস্থা আছে। এখানে উল্লেখ করতে পারি, এরকম অভিযোগের ভিত্তিতে ২০১৭ সালের ২৫শে অক্টোবর ঢাকা মেট্রো গ-১৪-৩৯৬৩ নম্বর গাড়িটির রুট পারমিট বাতিল করা হয়েছে। তিনি বলেন, এছাড়া নারীদের জন্য নিরাপদ যানবাহন ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে বর্তমানে বিআরটিএ কর্তৃক ১৫টি রুটে ১৮টি বাস এবং অতি সম্প্রতি ঢাকার জন্য আরো ২ দুটি বাস যুক্ত করা হয়েছে। তাছাড়া চট্টগ্রাম শহরের দুটি রুটে দু’টি বাস চালু রয়েছে। সর্বমোট ২২ মহিলা বাস সার্ভিস চালু রয়েছে। এই অক্টোবর মাসে ভারত থেকে আরো ৫০০টি ট্রাকসহ ১১০০টি গাড়ি বিআরটিসি’র বহরে যুক্ত হচ্ছে। এই চালান যখন ঢাকায় আসবে তখন আমরা নারীদের জন্য আরো বাস সার্ভিসের ব্যবস্থা করবো। মহিলা বাস সার্ভিসগুলোর অধিকাংশ মহিলা কনডাক্টর দ্বারা পরিচালিত হচ্ছে। তাছাড়া বিআরটিসিতে মহিলা চালক নিয়োগও প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। ওবায়দুল কাদের বলেন, এই করিডরে আরো ১০৫টি আর্টিকুলেটেড বাস চলাচল করবে। যেখানে নারীদের জন্য আসন সংরক্ষিত থাকবে। তাছাড়া বেসরকারি বাসগুলোতে নারীদের জন্য ৯টি আসন থাকলেও বাস্তবে অনেক হ্যাসেলর মধ্য দিয়ে যেতে হয়।
তবে এব্যাপারে মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দের সঙ্গে আলাপ আলোচনা করছি। সেখানে শাস্তিমূলক ব্যবস্থার কথাটি রয়েছে। মন্ত্রী বলেন, সাম্প্রতিকালে বেসরকারিভাবে মহিলা বাস সার্ভিস চালু করেছি। এরইমধ্যে দু’টি গাড়ি রাস্তায় নামানো হয়েছে। খুব শিগগিরই ৮টি গাড়ি বহরে আসবে। দুই-তিন মাসের মধ্যে ৭টি গাড়ি রাস্তায় নামানোর কথা। এগুলো দেখতে খুবই সুন্দর। দোলনচাপা নামের নতুন মহিলা বাস সার্ভিস সবার মন জয় করেছে। এই বাস সার্ভিসে নিরাপত্তা দৃঢ় আছে। এই বাস সার্ভিসে মহিলা ড্রাইভার মহিলা কনডাক্টর রয়েছে। সেখানে গাড়িতে উঠেই নারীরা নিরাপদ বোধ করছে। বেসরকারি ওই সংস্থা আরো গাড়ি বাড়ানোর জন্য উদ্যোগ নেবে। অন্যদিকে পাঠাও, উবারের মতো রাইড শেয়ারিং অ্যাপের মাধ্যমে গণ-পরিবহনে আধুনিকতার ছোঁয়া লেগেছে। আরো আধুনিক হচ্ছে গণ-পরিবহন ব্যবস্থা।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

স্পিকারের ঘোষণা: পার্লামেন্টে সংখ্যাগরিষ্ঠতা হারিয়েছেন রাজাপাকসে

বিনা উস্কানিতে পুলিশের ওপর হামলা:ডিসি মতিঝিল

একপক্ষ নির্বাচন করবে, আর আমরা আদালতে আসবো তা হতে পারে না

ছররা গুলির স্প্লিন্টারে আহত মানবজমিন প্রতিবেদক রুদ্র মিজান

‘নয়া পল্টনে সরকারের পরিকল্পিত হামলা’

ফের হেলমেট বাহিনী!

গণভবন ঘিরে নেতাকর্মী ও সমর্থকদের ঢল

রোহিঙ্গাদের ওপর নৃশংসতা ক্ষমার অযোগ্য

তৃতীয় দিনেও বিএনপির মনোনয়নপত্র কিনতে উপচে পড়া ভিড়

পশ্চিমবঙ্গের নাম বাংলা করা নিয়ে ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রকের আপত্তি

সরকারী টাকায় আওয়ামী লীগের নির্বাচনী প্রচার বন্ধের দাবি বিএনপির

২৮ বছর বয়সেই ফোর্বস ম্যাগাজিনে নাম!

ট্রেন চলাচল বন্ধ

কক্সবাজারে উজ্জ্বীবিত বিএনপি

ডিসেম্বরে শুনানি শেষে চূড়ান্ত রায় শ্রীলঙ্কা সুপ্রিম কোর্টের

সব প্রার্থীকে সমান সুযোগ দিতে হবে