মিয়ানমার ও লাওসের জন্য যুক্তরাষ্ট্রের ভিসায় কড়াকড়ি

দেশ বিদেশ

মানবজমিন ডেস্ক | ১২ জুলাই ২০১৮, বৃহস্পতিবার
যুক্তরাষ্ট্র থেকে বের করে দেয়া নিজেদের নাগরিকদের গ্রহণে অস্বীকৃতি জানানোর কারণে মিয়ানমার ও লাওসের বিরুদ্ধে ভিসা দেয়ার ক্ষেত্রে কড়াকড়ি আরোপ করেছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটির ডিপার্টমেন্ট অব হোমল্যান্ড সিকিউরিটি (ডিএইচএস) এক বিবৃতিতে বলেছে, দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার ওই দুটি দেশের কিছু নাগরিককে বহিষ্কার করেছে যুক্তরাষ্ট্র। তাদেরকে গ্রহণ করতে প্রত্যাখ্যান করছে ওই দুটি দেশ অথবা তারা অযৌক্তিভাবে তাদের নাগরিকদের গ্রহণে বিলম্ব করছে। ডিএইচএসের নির্দেশনার ভিত্তিতে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় মিয়ানমারে ও লাওসে তাদের কনসুলার অফিসারদের ভিসা দেয়ার ক্ষেত্রে কড়াকড়ি আরোপের নির্দেশ দিয়েছে। সুনির্দিষ্ট একটি ক্যাটেগরিতে ভিসা আবেদনকারীদের ক্ষেত্রে এ নিয়ম বাস্তবায়ন করতে বলা হয়েছে। ডিএইচএস আরো বলেছে, মিয়ানমার ও লাওস থেকে উপযুক্ত কোনো সাড়া না পাওয়া গেলে এই স্থগিতাদেশের পরিধি আরো বিস্তৃত করা হবে। উল্লেখ্য, মিয়ানমার ও লাওসের যেসব মানুষকে যুক্তরাষ্ট্র থেকে বের করে দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে তাদেরকে যুক্তরাষ্ট্রের সমাজের জন্য ভয়াবহ অপরাধী হিসেবে আখ্যায়িত করা হয়েছে। এ বিষয়ে আর বিস্তারিত কিছু বলা হয় নি।
তবে বৈধ অথবা অবৈধ অভিবাসীদের বিরুদ্ধে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের অভিবাসন নীতি কড়াকড়ি করা হয়েছে। এটা আগে থেকেই সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রশাসন।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

এসকে সিনহা মনগড়া কথা বলছেন

সরকারি কর্মকর্তাদের বিমানের ফ্লাইটে যাতায়াত বাধ্যতামূলক

‘প্রকাশের আগে ভাবিনি এত সাড়া মিলবে’

যে ২৩ দেশে তিন তালাক নিষিদ্ধ

মেলবোর্নে সন্ত্রাসের অভিযোগ স্বীকার করল বাংলাদেশের সোমা

বঙ্গবন্ধু মহাবিদ্যালয়ের নাম মুছে হলো এমপির নাম,প্রতিবাদে মানববন্ধন

চকরিয়ায় যুবকের মাথা ন্যাড়া করলেন পৌর কাউন্সিলর

এলকোহল মিশ্রিত পানীয় পানে বাংলাদেশী সহ ২১ জনের মৃত্যু মালয়েশিয়ায়

যাত্রীসাধারণের প্রতিকারের পথ রুদ্ধ করা হলো

মায়ার জীবনে যা ঘটেছে, তা ছিল মিরাকল!

বিতর্কিত ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন পাস

কেউ বলতে পারবে না কারো গলা টিপে ধরেছি, বাধা দিয়েছি

মেজর মান্নান স্বাধীনতাবিরোধী - মহিউদ্দিন আহমদ

কেন আমাকে হাসপাতালে নেয়া হচ্ছে না?

মিয়ানমারের বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধের প্রাথমিক তদন্ত শুরু আইসিসি’র

ভারতের বড় জয়