রূপগঞ্জ ও রংপুরে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ২

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) থেকে | ১১ জুলাই ২০১৮, বুধবার
রূপগঞ্জে পূর্বাচল উপশহরে র‌্যাবের সঙ্গে বন্ধুকযুদ্ধে নাদিম ওরফে পঁচিশ নাদিম (৩৫) নামে এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ১টি পিস্তল, ১টি শুটারগান, ৬ রাউন্ড গুলি ও বিপুল পরিমাণ ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় র‌্যাবের দুই সদস্য আহত হয়েছেন বলে র‌্যাব দাবি করেছে। সোমবার গভীর রাতে উপজেলার পূর্বাচল উপশহরের ২ নম্বর সেক্টরের জলসিঁড়ি সড়কের বৌরারটেক এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। র‌্যাব-২ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক (এএসপি ) রবিউল ইসলাম জানান, সোমবার রাত পৌনে ৩টার দিকে রাজধানীর মোহাম্মদপুরের জেনেভা ক্যাম্পের চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী নাদিম ওরফে পঁচিশ নাদিম কক্সবাজারের টেকনাফ থেকে একটি মাদকের চালান নিয়ে এসে পূর্বাচল উপশহরের ২নং সেক্টরে জলসিঁড়ি সড়কের বৌরারটেক এলাকায় খুচরা ব্যবসায়ীদের কাছে বিক্রি করছে- এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-২ এর একটি একটি দল অভিযান চালায়। র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে মাদক ব্যবসায়ীরা গুলি ছোড়ে। র‌্যাবও তাদের লক্ষ্য করে পাল্টা গুলি ছোড়ে। দুই পক্ষের মধ্যে কিছুক্ষণ গোলাগুলির পর বাকি মাদক ব্যবসায়ীরা পালিয়ে যেতে সক্ষম হলেও গুলিতে রাজধানীর মোহাম্মদপুরের জেনেভা ক্যাম্পের চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী নাদিম ওরফে পঁচিশ নাদিম গুরুত্বর আহত হয়।
তাকে উদ্ধার করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা রূপগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্মরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। র‌্যাব ঘটনাস্থল থেকে ১টি পিস্তল, ১টি শুটার গান, ৬ রাউন্ড গুলি ও বিপুল পরিমাণ ইয়াবা উদ্ধার করেন। নিহত নাদিমের বিরুদ্ধে রাজধানীর বিভিন্ন থানায় হত্যাসহ ৮ থেকে ১০টি মাদকের মামলা রয়েছে বলে র‌্যাব আরো জানান। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে রূপগঞ্জ থানায় একটি মামলা করা হয়েছে।
এদিকে স্টাফ রিপোর্টার, রংপুর থেকে জানান, রংপুরে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে বেলাল হোসেন (৪০) নামে এক ডাকাত নিহত হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে পিস্তল ও দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করেছে। এ ঘটনাটি ঘটেছে রংপুর নগরীর হাজিরহাট এলাকায়।
পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার মধ্যরাতে রংপুর নগরীর হাজিরহাট মহাসড়কের পাশে মেজরের গলির তেলির ব্রিজ সংলগ্ন এলাকায় ডাকাতির প্রস্তুতির জন্য সংঘবদ্ধ ডাকাতদল সমবেত হচ্ছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে ডাকাতদল পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। পুলিশও পাল্টা গুলি ছুড়লে ঘটনাস্থলে বেলাল হোসেন (৪০) নামে এক ডাকাত সদস্য নিহত হয়। এ ঘটনায় দুই পুলিশ কর্মকর্তাসহ ৮ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। নিহত বেলালের নামে কোতোয়ালি থানায় একাধিক ডাকাতি, হত্যা ও ছিনতাই মামলা রয়েছে। সে উত্তম বেতারপাড়ার মৃত ইসহাক ওরফে আতার ছেলে।
রংপুর কোতোয়ালি থানার ওসি (তদন্ত) মো. মোখতারুল আলম বলেন, নিহত বেলালের বিরুদ্ধে ডাকাতি, হত্যা ও ছিনতাইসহ ১৮টি মামলা আছে। পুলিশের অভিযানের সময় কয়েকজন কর্মকর্তাসহ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশি পিস্তল ও দুটি ছোরা উদ্ধার করা হয়েছে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ব্রিজের নিচ থেকে অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার

দাবি ও ১২ লক্ষ্য চূড়ান্ত করেছে বিএনপি

তারা কেন এত উদ্বিগ্ন হয়ে উঠছেন?

দৃশ্যপটে বৃহত্তর জোট এক মঞ্চে উঠছেন বিরোধী নেতারা

সিনহার বই নিয়ে বাহাস

কারাগার থেকে বঙ্গবন্ধুর প্রথম দিককার চিঠি

নিউ ইয়র্কে দুটি অ্যাওয়ার্ড পাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

পবিত্র আশুরা আজ

তারুণ্যের ব্যর্থতায় লজ্জার হার

খালেদা জিয়ার অনুপস্থিতিতে বিচার চলবে

মানবাধিকার ও নির্বাচনের পরিবেশ নিয়ে দুই সংস্থার উদ্বেগ

বাম জোটের কর্মসূচিতে পুলিশের লাঠিচার্জ, আহত অর্ধশত

বিলে স্বাক্ষর না করতে প্রেসিডেন্টের প্রতি সাংবাদিক নেতাদের আহ্বান

১০ কার্যদিবসের সংসদ অধিবেশনে ১৮টি বিল পাস

এখনো জঙ্গি হামলার ঝুঁকিতে বাংলাদেশ

জনগণের বিরুদ্ধে নয়, কল্যাণে আইন করতে হবে