দ্বিতীয় দফায় জিজ্ঞাসাবাদ চলছে নাজিব রাজাকের

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ২৪ মে ২০১৮, বৃহস্পতিবার | সর্বশেষ আপডেট: ৮:০৬
কয়েকদিন আগেও তিনি ছিলেন ক্ষমতাধর একজন প্রধানমন্ত্রী। আর এখন আসামীর কাঠগড়ায়। হ্যাঁ, দ্বিতীয়বারের জন্য মালয়েশিয়া এন্টি করাপশন কমিশনে (এমএসিসি) দুর্নীতির অভিযোগের জবাব দিতে হাজির হয়েছেন মালয়েশিয়ার সদ্য ক্ষমতাচ্যুত প্রধানমন্ত্রী নাজিব রাজাক। এসএসিসির সদর দফতরে আজ দ্বিতীয়বারের মতো তাকে প্রশ্নবাণে জর্জরিত করা হচ্ছে। অভিযোগ আছে তিনি প্রধানমন্ত্রী থাকাকালে রাষ্ট্রীয় তহবিল ‘১ মালয়েশিয়া ডেভেলপমেন্ট বেরহাদ’ (১এমডিবি) থেকে প্রায় ৭০ কোটি ডলার নিজের ব্যক্তিগত ব্যাংক একাউন্টে স্থানান্তর করেছেন। আর এই টাকা স্থানান্তর হয়েছে এসআরসি ইন্টারন্যাশনাল নামের একটি বিদ্যুত উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানে। এ নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করতে তাকে তলব করা হয় কমিশনে। সে অনুযায় ২১ শে মে মঙ্গলবার তিন হাজির হন কমিশনে।
সেখানে টানা সাড়ে চার ঘন্টা প্রশ্নবানে তাকে জর্জরিত করেন তদন্তকারীদের একটি টিম। এরপর তাকে বৃহস্পতিবার দ্বিতীয়বার কমিশনে হাজির হতে বলা হয়েছিল। সে অনুযায়ী স্থানীয় সময় সকাল ৯টা ৪৫ মিনিটে নাজিব রাজাক কমিশনে হাজির হন। একটি পুরো সাদা গাড়িতে ছিলেন তিনি। তাকে পুলিশি প্রহরায় নিয়ে যাওয়া হয় কমিশনের ভিতরে। এ সময় তিনি ওই ভবনের বাইরে দাঁড়ানো সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে স্মিত হাসেন ও হাত নাড়ান। তারপর ভিতরে প্রবেশ করেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত তাকে জিজ্ঞাসাবাদ চলছিল।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

কাতার এয়ারওয়েজের জরুরি অবতরণ

ঐক্যফ্রন্টের সমাবেশে বিপুল লোকসমাগমের প্রস্তুতি বিএনপির

চট্টগ্রাম ও সিলেটে বিএনপি নেতাকর্মীদের ধরপাকড়

মন্ত্রিসভা ছোট না করার ইঙ্গিত প্রধানমন্ত্রীর

অবাধ, বিশ্বাসযোগ্য ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের বার্তা দিয়েছি

রাষ্ট্রীয় পদ পাওয়ার ইচ্ছা নেই, অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনই লক্ষ্য

খাসোগি হত্যা মারাত্মক ভুল, সালমান জড়িত নয়

কী মর্মান্তিক!

গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের জন্য বিরোধী দলের অংশগ্রহণ প্রয়োজন

৪ জনের ফাঁসি ও ১ জনের যাবজ্জীবন

‘শহিদুল আলম যুক্তরাষ্ট্রেও সম্মানিত’

আদমজীতে পুলিশ-শ্রমিক সংঘর্ষ, আহত অর্ধশত

ব্যারিস্টার মইনুলের বিরুদ্ধে আরো মামলা, জামিন

প্রচারণায় আওয়ামী লীগ মাঠে নেই বিএনপি

যুক্তরাজ্যে বাংলাদেশের নতুন হাইকমিশনার সাঈদা মুনা তাসনিম

আড়াইহাজারে গুলিবিদ্ধ ৪ লাশের পরিচয় মিলেছে