দুই কোরিয়ার আলোচনা বাতিল

হুমকিতে ট্রাম্প-কিম বৈঠক

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১৭ মে ২০১৮, বৃহস্পতিবার
দক্ষিণ কোরিয়ার সঙ্গে উচ্চ পর্যায়ের আলোচনা বাতিল করেছে উত্তর কোরিয়া। দক্ষিণ কোরিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক মহড়ার প্রতিক্রিয়ায় এই পদক্ষেপ নিয়েছে দেশটি। পাশাপাশি আগামী মাসে সিঙ্গাপুরে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া ট্রাম্প-কিম বৈঠক নিয়েও সতর্কতা জারি করেছে উত্তর কোরিয়া। বলেছে, যুক্তরাষ্ট্র যদি একতরফাভাবে উত্তর কোরিয়ার হাতে থাকা সকল পারমাণবিক অস্ত্র ত্যাগ করার জন্য জোরাজোরি অব্যাহত রাখে, তাহলে ট্রাম্প-কিম বৈঠক পুনর্বিবেচনা করা হবে। উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্র নিয়ন্ত্রিত সংবাদ মাধ্যম কেসিএনএ’র উদ্ধৃতি দিয়ে এ খবর দিয়েছে দ্য গার্ডিয়ান।
খবরে বলা হয়, উত্তর কোরিয়ার সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী কিম কিয়ে গেয়ান বলেন, একতরফাভাবে উত্তর কোরিয়ার পারমাণবিক কর্মসূচি বাতিল করার দাবিতে অনুষ্ঠিত কোনো বৈঠকে উত্তর কোরিয়ার কোনো আগ্রহ নেই। যুক্তরাষ্ট্র যদি লিবিয়ার মতো করে উত্তর কোরিয়াকে পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণের কথা বলে, তাহলে ট্রাম্প-কিম বৈঠকসহ দু’দেশের  ভবিষ্যৎ সম্পর্কের বিষয়টি পরিষ্কার হয়ে যাবে। পূর্বসূরিদের অনুসরণ করলে ট্রাম্প একজন ব্যর্থ প্রেসিডেন্ট হিসেবেই থেকে যাবেন।
কিম বলেন, সত্যিকার অর্থে পারস্পরিক সম্পর্ক উন্নয়নের জন্য যদি যুক্তরাষ্ট্র বৈঠকে বসতে চায়, আমরা তাতে যথাযথভাবে সাড়া দেবো। কিন্তু আমরা এমন কোনো সমঝোতায় আর আগ্রহী না, যা আমাদের কোণঠাসা করবে, যাতে একতরফাভাবে আমাদের পারমাণবিক অস্ত্র ত্যাগ করতে বলা হবে। এই বিষয়টি আমাদেরকে ট্রাম্প-কিম বৈঠক পুনর্বিবেচনা করতে বাধ্য করেছে।’ এর আগে বুধবার দুই কোরিয়ার মধ্যে উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হওয়ার মাত্র দুই ঘণ্টা আগে তা বাতিল করে উত্তর কোরিয়া। যুক্তরাষ্ট্র ও দক্ষিণ কোরিয়ার যৌথ সামরিক মহড়ার প্রতিবাদে এই সিদ্ধান্ত নেয় উত্তর কোরিয়া। শুক্রবার দক্ষিণ কোরিয়ায় ‘ম্যাক্স থান্ডার’ নামের এ মহড়া শুরু হয়েছে। বার্তা সংস্থা ইয়োনহাপের খবরে বলা হয়েছে, এ মহড়ায় অনির্দিষ্ট সংখ্যক বি-৫২ বোমারু ও এফ-১৫কে সহ শতাধিক যুদ্ধবিমান অংশ নিয়েছে।  এদিকে, মহড়ার বিষয়ে উত্তর কোরিয়ার অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছে দক্ষিণ কোরিয়া। উত্তর কোরিয়ার আপত্তি সত্ত্বেও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সামরিক মহড়া অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছে দেশটি। উত্তরের প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলেছেন, পাইলটদের দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য এই মহড়া চালানো হচ্ছে। যা প্রকৃতিগতভাবে পুরোপুরি আত্মরক্ষামূলক। এ ধরনের একটি মহড়াকে কেন্দ্র করে উত্তর কোরিয়ার বৈঠক বাতিলের সিদ্ধান্তের সমালোচনা করেন তিনি। দক্ষিণ কোরিয়ার আরেকজন মুখপাত্র বলেছেন, বৈঠক বাতিল করে উত্তর কোরিয়া গতমাসে কিম জং উন ও মুন জায়ে ইনের দেয়া পানমুঞ্জাম ঘোষণার উদ্দেশ্য ও মূল্যবোধের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে। এই অবস্থান থেকে সরে আসার জন্য তিনি দেশটির প্রতি আহ্বান জানান। অন্যদিকে, যুক্তরাষ্ট্র বলেছে, উত্তর কোরিয়ার সতর্কতা সত্ত্বেও তারা ট্রাম্প-কিম বৈঠকের প্রস্তুতি অব্যাহত রাখবে। মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র হিদার নর্ট বলেন, আমরা বৈঠকের পরিকল্পনা অব্যাহত রাখবো। কেননা উত্তর কোরিয়া এখনো আনুষ্ঠানিক বা অনানুষ্ঠানিকভাবে আমাদের কিছু জানায়নি। এর আগে কিম জং উন বলেছিলেন, তিনি দক্ষিণ কোরিয়ায় যৌথ মহড়ার গুরুত্ব বুঝেন। আমাদের সে বিষয়টি মনে রাখা দরকার।
বিশ্লেষকরা বলছেন, এমন অবস্থায় উত্তর কোরিয়া আসন্ন ট্রাম্প-কিম বৈঠক বাতিল করলে তা কোনো দেশের জন্যই ভালো ফল বয়ে আনবে না। সিউলের দ্য কোরিয়া ন্যাশনাল ডিপ্লোমেটিক একাডেমির অধ্যাপক কিম হিউক উন বলেন, উত্তর কোরিয়া ভালো করেই জানে যে, ট্রাম্প-কিম বৈঠক বাতিল হলে তা উত্তর কোরিয়া ও যুক্তরাষ্ট্র কোনো দেশের জন্যই ভালো হবে না। কিন্তু নিজেদের নিরাপত্তার গ্যারান্টি পাওয়ার পূর্বেই যুক্তরাষ্ট্রের দাবি অনুযায়ী পারমাণবিক কর্মসূচি বাতিল করার বিষয়টিও মেনে নিতে পারছে না উত্তর কোরিয়া। এই বিষয়টিই উত্তর কোরিয়াকে বৈঠক বাতিলের প্রতি অনুপ্রাণিত করছে।  



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

ছাত্রদলের সিনিয়র সহ সভাপতি মামুন গ্রেপ্তার

‘ওয়েব সিরিজও টাকা দিয়েই দেখতে হয়’

বিএনপি নেতা কামালকে না পেয়ে ছেলেকে ধরে নিয়ে গেছে পুলিশ

বাংলাদেশে বিশ্বাসযোগ্য নির্বাচন নিশ্চিতে মার্কিন কংগ্রেসে রেজ্যুলেশন পাস

‘সরকার আর ১৫ দিন ক্ষমতায়, বেআইনি আদেশ মানবেন না’

ড. কামাল হোসেনের গাড়িবহরে হামলা

খামোশ বললেই জনগণ খামোশ হবে না

সিইসির নির্দেশিত তদন্ত ফল প্রকাশ পাবে কি?

চলে গেলেন আমজাদ হোসেন

সিলেটে রচিত হলো ইতিহাস

কুমিল্লা কারাগারে অনশনে মনিরুল হক চৌধুরী

সারা দেশে ধরপাকড় অব্যাহত

রাখাইনে সেনা অভিযানকে গণহত্যা আখ্যা দিলো মার্কিন কংগ্রেস

নির্বাচন ঘনিয়ে আসায় বেড়েছে দমনপীড়ন

পাবনায় চলন্ত ট্রেনের ছাদ থেকে পড়ে নিহত ৩

শ্রদ্ধা ভালোবাসায় জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের স্মরণ