কারাভোগের ২৭ বছর পর নির্দোষ প্রমাণিত

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২১ মার্চ ২০১৮, বুধবার, ৩:২৭ | সর্বশেষ আপডেট: ৩:৩২
অবৈধভাবে ভারত থেকে ৬টি গরু আমদানির অভিযোগের মামলায় ১৯৮৭ সালে যশোরের বিচারিক আদালত আবদুল কাদের ও মফিজুর রহমানকে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড দেয়। পরে আবদুল কাদের ও মফিজুর রহমান রায়ের বিরুদ্ধে তৎকালীন যশোর বিভাগীয়  হাইকোর্টে আপিল করেন। বিভাগীয় হাইকোর্ট বিলুপ্ত হলে ওই আপিল মামলা ঢাকার হাইকোর্টে আসে। তবে, এর মধ্যেই ৫ বছর সাজা খেটে ১৯৯১ সালে বেরিয়ে যান আবদুল কাদের ও মফিজুর রহমান। এদের মধ্যে মফিজুর রহমান ইতিমধ্যে মারা গেছেন। অবশেষে বিচারিক আদালতের রায়ের ৩১ বছর পর হাইকোর্টে সেই আপিলের শুনানি হয় মঙ্গলবার।
আজ রায় ঘোষণা করেন আদালত। রায়ে আবদুল কাদের ও মফিজুর রহমানকে বেকসুর খালাস দেন বিচারপতি কাজী রেজা-উল হক’র একক হাইকোর্ট বেঞ্চ। আদালতে এ দুজনের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন সুপ্রিম কোর্ট লিগ্যাল এইড এর প্যানেলের আইনজীবী কুমার দেবুল দে। মানবজমিনকে তিনি বলেন, আইনি জটিলতার কারণে এ দুজনের আপিল হাইকোর্টে দীর্ঘ দিনেও শুনানি হয়নি। মঙ্গলবার শুনানি শেষে আজ রায় ঘোষণা করেছেন আদালত। সাজা খাটা শেষ হওয়ার ২৭ বছর পর হাইকোর্টের রায়ে দুজনকেই বেকসুর খালাস পেয়েছেন।

[উৎপল]

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

sazzad

২০১৮-০৩-২২ ১১:১৯:২৯

বাংলাদেশ পৃথিবীর নিকৃষ্টতম দেশ।

Citizen

২০১৮-০৩-২১ ২২:৫০:১৪

The judge, police and other who were involved in the process of wrong conviction of the 2 innocents must be now brought to justice. There must be an example.

লেবুমিয়া,জেদ্দা

২০১৮-০৩-২১ ০৩:৫৩:২৯

ক্ষতিপুরনের মামলা করতে মিডিয়া ঐ ভাইকে সাহায্য করেন।

আপনার মতামত দিন

রাখাইন উপদেষ্টা পরিষদের প্রভাবশালী সদস্যের পদত্যাগ

৩২ ধারা থেকে গুপ্তচরবৃত্তি বাতিলের ঘোষণা

৫০ বছর পরে সন্ধান মিলল যাত্রী ও বিমানের

রুশনারা ঢাকায়

বঙ্গোপসাগরে ট্রলার ডুবে ২০ জেলে নিখোঁজ

৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত

আইনজীবিকে কুপিয়ে হত্যা

হাইতি প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ

দৌলতদিয়ায় আটকা ৪ শতাধিক যানবাহন

মেয়েকে বাঁচাতে বাবার চিঠি

বরিশালে কাউন্সিলর প্রার্থীকে তলব

না ফেরার দেশে রাজীব মীর

বাবার স্বপ্ন পূরণই আমার একমাত্র লক্ষ্য

চার কর্মীর মুক্তির দাবিতে পুলিশ কর্মকর্তার কার্যালয়ের সামনে আরিফের অবস্থান

বিমানবন্দরে বিদেশী ওষুধসহ নারী আটক

নির্বাচনের জন্য এমাজউদ্দীনের ৪ শর্ত