গতির প্রতিযোগিতায় প্রাণ গেল দুই বন্ধুর

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোর্টার | ১৮ মার্চ ২০১৮, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:২৬
অতিরিক্ত গতিতে মোটরসাইকেল চালাতে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছেন দুই বন্ধু। এরা হলেন- মেহেদি হাসান রিফাত (১৯) ও জাহাঙ্গীর আলম (১৯)। এ ঘটনায় আনিসুল ইসলাম নামে এক নিরাপত্তারক্ষী আহত হয়েছেন। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে। আহত আনিসুলের অবস্থা আশঙ্কামুক্ত। পুলিশ রিফাতের বিস্তারিত পরিচয় জানাতে পারলেও জাহাঙ্গীর আলমের পূর্ণাঙ্গ পরিচয় জানাতে পারেনি। গতকাল ভোর সাড়ে ৫টায় যাত্রাবাড়ী ফ্লাইওভারের কুতুবখালী নামক স্থানে একটি মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফুটপাথে ছিটকে পড়ে। এতে রিফাত, জাহাঙ্গীর ও ফ্লাইওভারের ওপর নিরাপত্তার দায়িত্ব পালনকারী আনিসুল গুরুত্বর আহত হন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় আহতদের তিনজনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে রিফাতকে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। পরে জাহাঙ্গীরকে তার স্বজনরা উন্নত চিকিৎসার জন্য জাপান বাংলাদেশ ফ্রেন্ডশিপ হাসপাতালে নিয়ে গেলে সকাল ১১টার দিকেও তিনি মারা যান। যাত্রাবাড়ী থানার এসআই মফিজ উদ্দিন আহমেদ জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়। ওই ফ্লাইওভারের কয়েকজন নিরাপত্তারক্ষীর সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, একসঙ্গে ১০টি মোটর সাইকেল গতির প্রতিযোগিতা তুলে ছিল। এতে প্রচণ্ড গতির একটি মোটরসাইকেল কুতুবখালীতে উল্টে যায়। তিনি আরও জানান, তারা সবাই মিলে শুক্রবার রাতে মাওয়া ফেরিঘাটে ইলিশ খেতে গিয়েছিলেন। ঢাকায় ফেরার পথে এ দুর্ঘটনার শিকার হন। মফিজ উদ্দিন আরও জানান, রিফাত পশ্চিম নাখালপাড়ার ৭৮৯ নম্বর বাসায় পরিবারের সঙ্গে থাকতেন। তিনি তেজগাঁও এর বিএফ শাহীন কলেজে এইচএসসি প্রথম বর্ষের ছাত্র ছিলেন। এ ঘটনায় থানায় একটি মামলা করা হয়েছে।



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

kazi

২০১৮-০৩-১৮ ০০:৪৮:৫০

এই দলহের যারা মরেনি তারা কি এই ঘটনা থেকে শিক্ষা নিবে ????? এই দলের বাহিরে যারা মোটর সাইকেল মালিক তারা এই ঘটনা পড়ে কি সাবধান হবে ???????????

আপনার মতামত দিন

রাঙ্গামাটিতে সন্ত্রাসীদের গুলিতে সেনাসদস্য নিহত

ঈদে সড়কেই প্রাণ গেল ২২৪ জনের

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন আদৌ শুরু হচ্ছে কি?

কুমিল্লায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৮

এখনো উচ্চ ঝুঁকি ২৪ ঘণ্টায় ১৭০৬ রোগী ভর্তি

পার্বত্য চট্টগ্রাম ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ

ডেঙ্গুর প্রজননস্থলে কতটা যেতে পারছেন মশক নিধন কর্মীরা?

বৈঠকের পর চামড়া বিক্রিতে সম্মত আড়তদাররা

জনগণকে সতর্ক পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকার পরামর্শ

ছিনতাইকারীর হাতে খুন হন কলেজছাত্র রাব্বী

শিক্ষিকাকে গণধর্ষণের পর হত্যা

শহিদুল আলমের মামলা স্থগিতই থাকবে

ডেঙ্গুর ভয়ে স্কুলে যাওয়া বন্ধ তবুও...

রক্ত পরীক্ষার রিপোর্ট নিয়ে ঢামেকে সংঘর্ষ, আহত ২৫

টার্গেট রাজনৈতিক সম্পর্ক দৃঢ়করণ

ইউজিসি প্রফেসর হলেন ডা. এবিএম আব্দুল্লাহ