এবার দ্রুত লীগ চান খেলোয়াড়রা

খেলা

স্পোর্টস রিপোর্টার | ১৩ জানুয়ারি ২০১৮, শনিবার
দু’দিন আগে হকি ফেডারেশনে অ্যাডহক কমিটি গড়ে দিয়েছে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ (এনএসসি)। গতকালই ছিলো অ্যাডহক কমিটির প্রথম কর্মদিবস। এদিন দুপুরের আগেই ফেডারেশনে হাজির হন অ্যাডহক কমিটির সাধারণ সম্পাদক আবদুস সাদেক। তাকে ঘিরে দ্রুত দল বদলের দাবি জানান ক্যাম্পে রিপোর্ট করা খেলোযাড়রা। সাদেকও তাদের কথায় ঐকমত্য পোষণ করে দ্রুত দল বদলের তারিখ ঘোষণা করার প্রতিশ্রুতি দেন।
আগামী ৯ই মার্চ ওমানে বসছে এশিয়ান গেমস হকির বাছাই প্রতিযোগিতা।
যেখানে অংশ নেবে বাংলাদেশসহ ১২ দল। এই আসরকে সামনে রেখে কোচ মাহবুব হারুনের কাছে গতকাল রিপোর্ট করেছেন ৩৮ খেলোয়াড়। প্রথমে এই ৩৮ জনকে নিয়ে অনাবাসিক ক্যাম্প হবে। ১৫ দিনের অনাবাসিক ক্যাম্পের পর ২৬ জনের দল ঘোষণা করবেন কোচ। এরপরই শুরু হবে পুরোদমে প্রস্তুতি। গতকালের রিপোর্টিং নিয়ে কোচ মাহবুব হারুন বলেন, আমার দলের আমার দলের বেশির ভাগ খেলোয়াড়ই সার্ভিসেস দলের। সুতরাং বেশির ভাগই খেলার মধ্যে ছিল। প্রথমে একবেলা করে অনুশীলন হবে। দল ছোট হওয়ার পর আবাসিক ক্যাম্প শুরু হবে। তখন দুই বেলা অনুশীলন হবে। এশিয়া কাপে শিষ্যদের পারফরমেন্স মনোপুত না হওয়ার কারণ হিসেবে স্বাগতিক দর্শক ও সাবেক খেলোয়াড়দের চাপকে দায়ী করেন তিনি। তবে আসন্ন টুর্নামেন্টে এই জায়গাতে কাজ করবেন বলে জানান দেশসেরা এই কোচ। মাত্র এক বছর প্রথম বিভাগে খেলেই জাতীয় দলে ডাক পেয়েছেন মনোজ কুমার। প্রথমবারের মতো জাতীয় দলের ক্যাম্পে ডাক পাওয়া এই খেলোয়াড় বলেন, আমার পজিশন ডিফেন্সে অনেক ভালো ভালিা খেলোয়াড় রয়েছেন। এদের বিট করে এখনই জাতীয় দলে সুযোগ পাওয়া অনেক কঠিন। তবে আমার বিশ্বাস আছে নিজেকে প্রমাণ করে আমি শিগগিরই জাতীয় দলে খেলবো। মনোজ দ্রুত লীগের দাবি না তুললেও ক্যাম্পে রিপোর্ট করতে আসা বেশির ভাগ খেলোয়াড়ের কণ্ঠে ছিলো দ্রুত দল বদলের দাবি। খেলোয়াড়দের দাবির প্রেক্ষিতে ফেডারেশনের সাধারণ সস্পাদক বলেন, অবশেষে একটি এডহক কমিটি হয়েছে। সব ক্লাবের প্রতিনিধি আছে এই কমিটিতে। আমার প্রথম কাজ হবে ৭-৮ দিনের মধ্যে লীগ কমিটি করে দলবদলের তারিখ ঘোষণা করা। আমি চাইছি এটি এশিয়ান গেমসের (৯-১৬ই মার্চ) আগেই হোক। লীগ হয়তো এশিয়ান গেমস বাছাইয়ের আগে শুরু করা সম্ভব নয়। তবে বাছাইয়ের পর ৮-১০ দিনের মধ্যেই সিজন শুরু হবে। শেখ জামাল, শেখ রাসেল, সাইফ স্পোর্টিংয়ে আগ্রহের বিষয়ে সাদেক বলেন, আমরাও চাই এসব দল হকিতে আসুক। কিন্তু ওরা সরাসরি প্রিমিয়ার লীগে খেলতে চায়। বাইলজ অনুযায়ী সেটা আসলে সম্ভব নয়। তারপরেও আমার চেষ্টা থাকবে হকির বৃহত্তর স্বার্থের কথা বিবেচনা করে তাদের কিভাবে সুযোগ দেয়া যায় বিষয়টি খতিয়ে দেখা। অ্যাডহক কমিটির পরিকল্পনার কথা জানিয়ে সাদেক বলেন, লক্ষ্য আছে বেশকিছু টুর্নামেন্ট আয়োজন করা। কর্পোরেট টুর্নামেন্ট করা, ক্লাব কাপ, স্বাধীনতা কাপ, বিজয় দিবস। সারা বছর হকিটা মাঠে রাখতে চাই আমরা। কারণ এই বছর জাতীয় দলের অনেকগুলো খেলা রয়েছে। এশিয়ান গেমস বাছাই, এশিয়ান গেমস, এশিয়ান চ্যালেঞ্জ কাপ, যুবদলের যুব অলিম্পিক বাছাই। একটি আন্তর্জাতিক ক্লাব টুর্নামেন্ট করারও ইচ্ছা রয়েছে। তবে সাদেক অ্যাডহক কমিটি নিয়ে নানা আশার কথা শোনালেও এটা নিয়ে বাস্তবায়নে রয়েছে নানা প্রতিবন্ধকতা। শোনা যাচ্ছে নতুন এই অ্যাডহক কমিটির বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বাদপড়া কয়েকজন। ঊষা ক্লাবের যথাযথ মূল্যায়ন না হওয়ায় বেঁকে বসার ইঙ্গিত দিয়েছে ক্লাবটি।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

আইভীকে হাসপাতালে দেখে আসলেন ওবায়দুল

তিস্তা কূটনীতিতে চোখ ঢাকার

শাহজালালে বৈদেশিক মুদ্রাসহ দুই যাত্রী আটক

দারুণ শুরু বাংলাদেশের

ভারতের সুপ্রিম কোর্টে ফেলানী হত্যার রিট শুনানি ফের পেছালো

যশোরে বিএনপি নেতা অমিতের বক্তব্যে তোলপাড়

বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব শুরু

‘বিষয়টি নিয়ে আমি বেশ উত্তেজিত’

পাঁচ দশকের দীর্ঘ লড়াই

ভিডিও দেখে অস্ত্রধারীদের খোঁজা হচ্ছে

‘অতিষ্ঠ হয়ে প্রেমিককে ছুরিকাঘাত’

ফল প্রকাশের দাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ, অবরোধ

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে সময় লাগবে ৯ বছর!

মত প্রকাশের স্বাধীনতা সীমিত, আক্রমণের শিকার নাগরিক সমাজ

মেয়র আইভী হাসপাতালে

জিয়াউর রহমানের ৮২ তম জন্মবার্ষিকী আজ