মির্জা ফখরুলের বিরুদ্ধে মামলার হুঁশিয়ারি কাদেরের

শেষের পাতা

স্টাফ রিপোর্টার | ১৩ জানুয়ারি ২০১৮, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ১:৪০
পদ্মা সেতু নির্মাণ নিয়ে আনা অভিযোগ প্রমাণ করতে না পারলে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরকে মামলার মুখোমুখি হতে হবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, এখন ফখরুল  সাহেব বলছেন, পদ্মা সেতুর ডিজাইনে ভুল আছে। ডিজাইনে ভুল আছে প্রমাণ করতে আসুন, তথ্য উপাত্ত নিয়ে আসুন। প্রমাণ   না দেখাতে পারলে আপনাকেও মামলা ফেইস করতে হবে। গতকাল রাজধানীর কমলাপুরে ঢাকা দক্ষিণ আওয়ামী লীগের শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। এদিকে আইনি নোটিশ প্রসঙ্গে এক প্রশ্নে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, আইনি নোটিশ না পাঠিয়ে নোটিশের কথা বলায় পাল্টা উকিল নোটিশ পাঠানো হবে।
তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী জিয়া পরিবারের যে দুর্নীতির খবর তুলে ধরেছেন, সেটা দেশি-বিদেশি গণমাধ্যমের তথ্যের ভিত্তিতে। এই তথ্যগুলো মিডিয়া দিয়েছে, এটা প্রমাণিত। এদের দুর্নীতির কেচ্ছা রূপকথার কাহিনীকেও হার মানায়। প্রধানমন্ত্রীর সৎসাহস আছে বলে তিনি সত্যকে তুলে ধরেছেন। এতে বিএনপি নেতাদের অন্তর্জ্বালা শুরু হয়ে গেছে। বিএনপিকেও উকিল নোটিশ দেয়া হচ্ছে। ভুয়া, মিথ্যা উকিল নোটিশ পাঠানোর জন্য বিএনপিকেও উকিল নোটিশ দেয়া হচ্ছে। অপেক্ষা করুন। ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে নিবন্ধিত দল ছাড়া অন্য কেউ নির্বাচনে অংশ নিতে পারবে কিনা- সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নে তিনি বলেন,  দেখুন, এই প্রশ্নের জবাব দেবে নির্বাচন কমিশন। তা আমি দিতে পারি না। আমি যতটুকু জানি, এখানে নিবন্ধিত কোনো দল ছাড়া অন্য কেউ অংশগ্রহণ করার কথা নয়। কমিশন অ্যালাও করা ঠিক না। শীতবস্ত্র বিতরণে এসে এই শীতে বিএনপির কোনো কার্যক্রম নেই দাবি করে তাদের সমালোচনা করেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, এবারের শীত ৫০ বছরের রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে। তীব্র শীতের মধ্যে আমাদের নেত্রী টেলিভিশনের স্ক্রলে পঞ্চগড়-ঠাকুরগাঁওয়ের তীব্র শীতের কথা চোখে পড়ার সঙ্গে সঙ্গে আমাকে পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁওয়ের উদ্দেশ্যে যেতে বললেন শীতবস্ত্র বিতরণের জন্য। তিনি বলেন, সেদিন আমরা চলে গেছি। রাতে প্রচণ্ড শীতের মধ্যে সৈয়দপুরে শীতবস্ত্র বিতরণ করেছিলাম। আমরা নগদ ৩২ লাখ টাকা ও ৩৭ হাজার কম্বল বিতরণ করি। আমাদের রাজনীতি নিষ্ঠুর হয়ে গেছে। এটা শুধু প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করার জন্য। রাজনীতি শুধু প্রতিপক্ষকে বিষোদগার নয়। মানুষের দুঃখ-কষ্টের এ অবস্থায়ও আমরা আওয়ামী লীগ ছাড়া কোনো রাজনৈতিক দলকে শীতার্ত মানুষের পাশে দাঁড়াতে দেখিনি। হয়তো যাওয়ার জন্য অনেকে যায়। সেটাতো একদিনের জন্য লোক দেখানো সাহায্য। ঢাকা দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাতের সভাপতিত্বে শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

kazi

২০১৮-০১-১৩ ০১:২২:০০

বিএনপির কাছে পদ্মাসেতু একটি অসাধ্য কল্পনা ছিল। প্রথম বলত এটা জীবনেও সম্ভব হবে না। কিন্তু তা সম্ভব হয়েছে দৃশ্যমান হয়েছে। হাসিনার অসীম সাহসে দেশের অর্থায়নে এই অসাধ্য কাজ হয়ে গেছে দেখে বিএনপি হিংসায় জ্বলছে। তাদের মাথা নষ্ট হয়ে গেছে। তাই যাচ্ছেতাই বক্তব্য দিয়ে তাদের অপরিণত জ্ঞানের প্রমাণ করছে। নেতৃ বলছে জোড়াতালি , ফখরুল কথা পাল্টিয়ে বলছে ডিজাইন ভুল।

Desh

২০১৮-০১-১২ ১৯:৫৮:০৫

Desh er development nia plz cinta koren. Ulta palta katha nia mamla kore time lost na kore bideshe woman labour ra nirjaton er shikar hosse eta nia cinta koren

আপনার মতামত দিন

কলেজে এসকেলেটর বিলাস, ৪৫৪ কোটি টাকার প্রকল্প

ইইউয়ে পোশাক রপ্তানিতে প্রবৃদ্ধি ধরে রেখেছে বাংলাদেশ

ফাইনালে বাংলাদেশ হাথুরুকেও জবাব

আইভীর অবস্থা স্থিতিশীল, দেখতে গেলেন কাদের

শামীম ওসমানের বক্তব্যে তোলপাড় নানা প্রশ্ন

বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন ‘সভাপতি হলে তুই মাত করে দিবি’

চট্টগ্রামে বেপরোয়া অর্ধশত কিশোর গ্যাং

তুরাগতীরে লাখো মুসল্লির জুমার নামাজ আদায়

দু’দলের সম্ভাব্য প্রার্থীদের তৎপরতা

পিয়াজের কেজি এখনো ৬৫-৭০ টাকা

নির্বাচন চাইলে সরকার আপিল বিভাগে যেতো

‘বাংলাদেশ ক্রমেই সংকুচিত হয়ে আসছে’

‘শাসকগোষ্ঠীর নির্মম শিকলে বন্দি মানুষ’

ফেনীতে সাড়ে ১৩ হাজার ইয়াবাসহ আটক ১

ছেলেকে হত্যার পর মায়ের স্বীকারোক্তি

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মচারী নিখোঁজ