নোভার মিশন

বিনোদন

স্টাফ রিপোর্টার | ১৩ জানুয়ারি ২০১৮, শনিবার
দর্শকপ্রিয় অভিনেত্রী নোভা। নতুন বছরে শুধু কাজের মধ্যে ডুবে থাকতে চান। অভিনয়, উপস্থাপনা ও চাকরি এই তিনটি নিয়ে তার প্রাত্যহিক জীবন। এরইমধ্যে নোভা তার সেই মিশনে নেমেছেন। সতীর্থ রহমান রুবেলের ‘কমলার বনবাস’ শিরোনামের একটি একক নাটকের মধ্য দিয়ে নোভা নতুন বছরের মিশন শুরু করেন। এটিতে তার বিপরীতে দেখা যাবে সাজু খাদেম ও শ্যামল মাওলাকে।
গতকাল থেকে শুরু করেছেন বাংলাদেশ টেলিভিশনের ‘জেনারেশন’ শীর্ষক একটি ধারাবাহিকের কাজ। এটির দ্বিতীয় লটের শুটিং করছেন তিনি। এই লটের কাজ শেষ হলেই ধারাবাহিকটি প্রচারে আসবে বলেন এই অভিনেত্রী। এটি পরিচালনা করছেন আলভী আহমেদ। এটি ছাড়াও তার হাতে রয়েছে রাজিবুল ইসলাম রাজিবের ‘বারো ঘরের এক উঠোন’ও আশিক মাহমুদ রনির ‘পাগলা হাওয়া’ শীর্ষক ধারাবাহিকটি। নতুন বছরের মিশন প্রসঙ্গে নোভা বলেন, শৈত্যপ্রবাহের মধ্যেও শুটিং করছি। নতুন বছরটি আমার শুধু ভালো কাজের জন্য। কাজের মধ্য দিয়ে এই বছর কাটিয়ে দেব। বছরের শুরুটা ভালো হয়েছে। আশা করছি আগামী দিনগুলোও এভাবে কেটে যাবে। বাংলাভিশনে ‘সৌন্দর্যের কথা’ ও বাংলাদেশ টেলিভিশনে আধুনিক গানের অনুষ্ঠান ‘মালঞ্চ’ উপস্থাপনা করছেন এই গ্ল্যামার অভিনেত্রী। প্রথমবারের মতো বাংলাদেশ টেলিভিশনের মালঞ্চ অনুষ্ঠানটি তিনি উপস্থাপনা করছেন বলে জানান। উপস্থাপনা প্রসঙ্গে নোভা বলেন, আমি অভিনয়ের পাশাপাশি উপস্থাপনাও করছি। সেই কারণে যেকোনো অনুষ্ঠানে আমাকে জড়াতে পারি না। যে অনুষ্ঠানগুলো দর্শকদের কাছে সমাদৃত হবে বলে মনে করি সেগুলোর শুধু উপস্থাপনা করছি। আমি উপস্থাপনাতেও চেষ্টা করি দর্শকদের ব্যতিক্রমী কিছু দেয়ার।
 আমার প্রতিটি কাজে নতুনত্ব রাখার জন্য চেষ্টা করে থাকি।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

কলেজে এসকেলেটর বিলাস, ৪৫৪ কোটি টাকার প্রকল্প

ইইউয়ে পোশাক রপ্তানিতে প্রবৃদ্ধি ধরে রেখেছে বাংলাদেশ

ফাইনালে বাংলাদেশ হাথুরুকেও জবাব

আইভীর অবস্থা স্থিতিশীল, দেখতে গেলেন কাদের

শামীম ওসমানের বক্তব্যে তোলপাড় নানা প্রশ্ন

বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন ‘সভাপতি হলে তুই মাত করে দিবি’

চট্টগ্রামে বেপরোয়া অর্ধশত কিশোর গ্যাং

তুরাগতীরে লাখো মুসল্লির জুমার নামাজ আদায়

দু’দলের সম্ভাব্য প্রার্থীদের তৎপরতা

পিয়াজের কেজি এখনো ৬৫-৭০ টাকা

নির্বাচন চাইলে সরকার আপিল বিভাগে যেতো

‘বাংলাদেশ ক্রমেই সংকুচিত হয়ে আসছে’

‘শাসকগোষ্ঠীর নির্মম শিকলে বন্দি মানুষ’

ফেনীতে সাড়ে ১৩ হাজার ইয়াবাসহ আটক ১

ছেলেকে হত্যার পর মায়ের স্বীকারোক্তি

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মচারী নিখোঁজ